সংবাদ শিরোনাম
  • আজ ৬ই আশ্বিন, ১৪২৬ বঙ্গাব্দ

কয়েক দফা ধর্ষণে ছাত্রী অন্তঃসত্ত্বা , শিক্ষক গ্রেফতার

১০:৫১ অপরাহ্ণ | শনিবার, আগস্ট ১৭, ২০১৯ অপরাধ

সময়ের কন্ঠস্বর ডেস্ক:বরগুনার আমতলী উপজেলায় এক স্কুলছাত্রীকে ধর্ষণের ঘটনায় জহিরুল ইসলাম (৩৮) নামে এক শিক্ষককে গ্রেপ্তার করেছে পুলিশ।

আজ শনিবার সকালে মামলার তদন্তকারী কর্মকর্তা আমতলী থানার উপপরিদর্শক (এসআই) মো. ফয়সাল পটুয়াখালী চৌরাস্তা থেকে তাকে গ্রেপ্তার করেন।

মামলার এজাহার সূত্রে জানা গেছে, গ্রেপ্তার শিক্ষক মো. জহিরুল ইসলাম তার স্কুলের দশম শ্রেণির এক ছাত্রীকে গত বছর ডিসেম্বর মাসে অনৈতিক প্রস্তাব দেন। শুরুতে ওই ছাত্রী তার প্রস্তাবে রাজি হয়নি।

পরে ওই ছাত্রীকে পরীক্ষায় ফেল করানোর ভয় দেখিয়ে গত ছয় মাস ধরে তাকে জহিরুল একাধিকবার ধর্ষণ করেছেন। এতে চলতি বছরের ফেব্রুয়ারি মাসে ওই ছাত্রী অন্তঃসত্ত্বা হয়ে পড়ে। জহিরুল বিষয়টি জানতে পেরে ওই ছাত্রীকে গর্ভপাত করানোর চেষ্টা করেন। কিন্তু ওই ছাত্রী তাতে রাজি হয়নি।

ওই ছাত্রীর বাবার অভিযোগ, এ ঘটনা এলাকায় জানাজানি হলে শিক্ষক জহিরুল তাকে মেরে ফেলার হুমকি দিয়ে তিনিসহ তার মেয়েকে জোর করে পটুয়াখালী নিয়ে গর্ভপাত করান।

এ ঘটনায় গত ৩০ জুন ওই স্কুলের শিক্ষার্থী, অভিভাবক ও স্থানীয়রা শিক্ষক জহিরুল ইসলামের বিচার দাবি করে বিদ্যালয় প্রাঙ্গণে মানববন্ধন কর্মসূচি পালন করে। সেদিনই ওই ছাত্রীর দাদা জালাল মাতুব্বর বাদী হয়ে আমতলী থানায় শিক্ষক জহিরুলকে আসামি করে মামলা দায়ের করেন।

আমতলী থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) মো. আবুল বাশার বলেন, ‘দীর্ঘ এক মাস ১৭ দিন পলাতক থাকার পরে শনিবার সকালে পুলিশ শিক্ষক জহিরুলকে গ্রেপ্তার করে।