সংবাদ শিরোনাম
‘অনাকাঙ্ক্ষিত মৃত্যু আমাদের কারও কাম্য নয়’- অনন্ত জলিল | ‘এই আওয়ামী লীগ মুজিব-সোহরাওয়ার্দী-ভাসানীর আওয়ামী লীগ নয়’ | ‘ছাত্রলীগ সারাদেশেই হামলা চালাচ্ছে’- ভিপি নুর | ‘সরকারবিরোধী হলে ৩০ ডিসেম্বরের পরই রাস্তায় নামতাম’- ভিপি নুর | ব্রাহ্মণবাড়িয়ায় ট্রেন ‍দুর্ঘটনাস্থল পরিদর্শনে জামায়াতের নবনির্বাচিত আমীর | জামায়াতে ইসলামীর নতুন আমীর ‘ডা. শফিকুর রহমান’ | ‘শেখ হাসিনাকে কটাক্ষ করলে জনগণ কাউকে ক্ষমা করবে না’- কাদের | ‘খালেদা জিয়ার অঙ্গ-প্রত্যঙ্গগুলো পঙ্গু হয়ে যাচ্ছে’- ফখরুল | এবার ওয়ানডে র‌্যাংকিং থেকেও সাকিবের নাম মুছে দিল আইসিসি | ‘সরকারের ব্যর্থতার কারণেই একের পর এক দুর্ঘটনা ঘটছে’- ফখরুল |
  • আজ ২৮শে কার্তিক, ১৪২৬ বঙ্গাব্দ

৩য় শ্রেণী পর্যন্ত পরীক্ষা বাতিলের সব প্রক্রিয়া চূড়ান্ত

৯:০৪ পূর্বাহ্ণ | বুধবার, সেপ্টেম্বর ১১, ২০১৯ শিক্ষাঙ্গন

সময়ের কন্ঠস্বর ডেস্ক: ১ম থেকে ৩য় শ্রেণি পর্যন্ত পরীক্ষা বাতিলের সব প্রক্রিয়া ইতোমধ্যেই চূড়ান্ত হয়েছে। আগামী বছর ১০০ টি স্কুলে পরীক্ষা মূলকভাবে এ পদ্ধতি কার্যকর করা হবে বলে জানিয়েছেন, প্রাথমিক ও গণশিক্ষা প্রতিমন্ত্রী।

এ উদ্যোগকে সাধুবাদ জানিয়ে শিক্ষাবিদরা বলছেন, সরকারের এমন সিদ্ধান্তে ভবিষ্যৎ প্রজন্ম আরো সমৃদ্ধ হবে । এমন নির্দেশনায় শিশু শিক্ষার্থীদের পাশাপাশি অভিভাবকরাও নিজেদের চাপমুক্ত মনে করছেন।

নিলা। রাজধানীর একটি বেসরকারি স্কুলে ১ম শ্রেণিতে পড়ালেখা করছে । স্কুল থেকে এসেই প্রতিদিন হোম ওয়ার্ক শেষ করতে পড়ার টেবিলে বসে পড়তে হয় তাকে। আর তারপর কোচিং , বাড়ির পড়া সব মিলিয়ে বয়সের তুলনায় একটু বেশি বোঝা বহন করতে হয় নিলাকে। যেকারণে নেই তার খেলার ফুরসত।

নিলার মতো এমন অবস্থা আরো অনেক শিক্ষার্থীই। বর্তমান সমাজে সন্তানের একাডেমিক ভালো ফলাফলের প্রতিযোগিতায় নেমেছেন প্রায় সব অভিভাবকই। শৈশবে এমন পড়ার চাপে নূব্জ প্রায় প্রতিটি শিক্ষার্থী। তবে সম্প্রতি ১ম শ্রেণি থেকে পরীক্ষা বাতিলের ঘোষণায় খুশি অভিভাবকরা।

সরকারের এমন সিদ্ধান্তকে ইতিবাচকভাবে দেখছেন শিক্ষাবিদরা। এ পদ্ধতি বাস্তবায়নে শিক্ষকদের প্রতিশ্রুতি ও আন্তরিক সদিচ্ছা প্রয়োজন বলেও মনে করছেন তারা।

ড. এম অহিদুজ্জামান বলেন, আমরা যারা শিক্ষক, তাদের আন্তরিকতা প্রয়োজন।

আগামী বছর থেকেই এ পদ্ধতি প্রথমে ১০০ স্কুলে চালু করা হবে এ জন্য শিক্ষকদেরকে এ বিষয়ে প্রশিক্ষণ দেয়া হচ্ছে বলে জানান, প্রাথমিক ও গণশিক্ষামন্ত্রী।

প্রাথমিক ও গণশিক্ষা প্রতিমন্ত্রী মো. জাকির হোসেন বলেন, আমরা এটাকে একটা পাইলট প্রজেক্টের মতো করে দেখছি।

পরীক্ষা না থাকলেও শ্রেণিকক্ষে শিক্ষার্থীদের মূল্যায়ন করা হবে আর সে মূল্যায়ন করবেন শ্রেণী শিক্ষকরাই।

Loading...