• আজ ৮ই ফাল্গুন, ১৪২৬ বঙ্গাব্দ

মারা গেলেন বিশ্বের সবচেয়ে ছোট মানুষ

১২:১২ অপরাহ্ণ | শনিবার, জানুয়ারি ১৮, ২০২০ আন্তর্জাতিক
thapa

আন্তর্জাতিক ডেস্কঃ নিউমোনিয়ায় আক্রান্ত হয়ে বিশ্বের সবচেয়ে ক্ষুদে ব্যক্তি খাগেন্দ্র থাপা মাগার মারা গেছেন। শুক্রবার (১৭ জানুয়ারি) নেপালের একটি হাসপাতালে তিনি মারা যান।

খাগেন্দ্র গিনেজ বুকে নাম লেখানো বিশ্বের সবচেয়ে ক্ষুদে মানুষ ছিলেন যিনি হাঁটতে পারতেন। তার উচ্চতা ছিল ৬৭ দশমিক ৮ সেন্টিমিটার বা ২ ফুট ২ ইঞ্চির সামান্য বেশি।

সংবাদসংস্থা এএফপি-কে দেওয়া সাক্ষাত্‍কারে তাঁর ভাই মহেশ থাপা মাগার জানান,‘নিউমোনিয়ায় আক্রান্ত হয়ে বেশ কয়েকবার হাসপাতালে ভর্তি হয়েছিল সে। কিন্তু এবার তার হৃদযন্ত্রও বিকল হয়ে পড়ে।

২০১০ সালে ১৮ বছরের জন্মদিনের পরই তাঁকে বিশ্বের ক্ষুদ্রতম পুরুষ হিসেবে ঘোষণা করা হয় গিনেস ওয়ার্ল্ড রেকর্ডস-এ।

খগেন্দ্রর বাবা রূপ বাহাদুর জানিয়েছেন, জন্মের সময়ে ও এতটাই ছোট ছিল যে হাতের তালুর মধ্যে ধরে যেত। ওকে স্নান করানো খুবই সমস্যার ছিল।

বিশ্বের ক্ষুদ্রতম পুরুষ হিসেবে সারাজীবনে ১২টির বেশি দেশ ভ্রমণ করেছেন তিনি। ইউরোপ এবং আমেরিকার বেশ কয়েকটি টিভি চ্যানেলে সাক্ষাত্‍কারও দিয়েছেন।

খগেন্দ্রের মৃত্যুর খবর পেয়ে শোক প্রকাশ করেছেন গিনেস ওয়ার্ল্ড রেকর্ডস-এর এডিটর ইন চিফ ক্রেইগ গ্লেনডে। নেপালের পর্যটন প্রচারের মুখ হয়ে উঠেছিলেন খগেন্দ্র থাপা মাগার।

Loading...