কাবা শরিফের আঙিনায় তৈরি হচ্ছে বিশ্বের সবচেয়ে বড় ছাতা

১১:৩৪ অপরাহ্ণ | রবিবার, জানুয়ারি ১৯, ২০২০ জানা-অজানা
mokka

জানা-অজানা ডেস্কঃ বৃষ্টি কিংবা রোদ হলেই মনে পড়ে ছাতার কথা। কিন্তু এবার শধুমাত্র হজ বা পুণ্য যাত্রা নয়। বিশ্বের সব চাইতে বড় ছাতার তলায় দাঁড়াতে হলে যেতে হবে সুদূর মক্কায়। কারণ লক্ষ লক্ষ হজ যাত্রীদের কথা মাথায় রেখে মক্কায় সব থেকে বড় ছাতা তৈরির সিদ্ধান্ত নিয়েছে সৌদি প্রশাসন।

মক্কায় হজ ও ওমরাহ পালনে আসা মুসলিম ধর্মপ্রাণ মানুষের সুবিধার্থে কাবা শরিফের আঙিনায় তৈরি করা হচ্ছে বিশ্বের সবচেয়ে বড় ছাতা। জানা গিয়েছে, নির্মাণাধীন একেকটি ছাতার নিচে অবস্থান করতে পারবে আড়াই হাজার ধর্মপ্রাণ মুসলমান। আরবের তাপদাহ থেকে সুরক্ষা দিতেই এই ছাতাগুলো নির্মাণের পদক্ষেপ নেওয়া হয়েছে। ২০১৪ সালেই এই ছাতা তৈরির সিদ্ধান্ত নেয় সৌদি সরকার। জানা গিয়েছে, ৩০ মিটার উচ্চতায় স্থাপন করা হচ্ছে ছাতাগুলো।

এক একটি ছাতা দৈর্ঘ্যে এবং প্রস্থে ৫৩ মিটার। অর্থাৎ এর পরিধি ২ হাজার ৮০৯ বর্গমিটার। সৌদি প্রশাসন সূত্রে জানা গিয়েছে, ‘জেনারেল প্রেসিডেন্সি টু হলি মস্ক’ নামের একটি কোম্পানিকে এই ছাতা নির্মাণ কাজের বরাত দেওয়া হয়েছে। তবে এই ছাতা তৈরির প্রযুক্তিটি নেওয়া হয়েছে জাপান থেকে।

এক একটি ছাতার ওজন প্রায় ১৬ টন অর্থাৎ ১৬ হাজার কেজি। তবে ওই এলাকায় মোট আটটি ছাতা বসানোর সিদ্ধান্ত নেওয়া হয়েছে। ওই ছাতার নিচে এক সাথে বসে নামাজ পড়তে পারবে প্রায় চার লাখ মুসলিম ধর্মপ্রাণ মানুষ। প্রতিটি ছাতার নিচে থাকছে বসার জায়গা। এমনকি ঘড়ি ও এইচ ডি স্ক্রিনও থাকছে ওই ছাতার তলায়। ওই ছাতা গুলি একসাথে মেলে ধরলে ফুলের বাগানের মতো দৃষ্টি নন্দন লাগবে বলেও জানিয়েছে সৌদি সরকার।

Loading...