সংবাদ শিরোনাম
নির্ভীক সাংবাদিকতার মাধ্যমে বস্তুনিষ্ঠ সংবাদ প্রকাশ করতে হবে: রমেশ চন্দ্র সেন | মিলান কনস্যুলেটের আয়োজনে আন্তর্জাতিক মাতৃভাষা দিবস উদযাপন | মধ্যরাতে ইবি ছাত্রলীগের দুগ্রুপের তুমুল সংঘর্ষ, আহত ৭ | প্রথমবারের মত স্প্যানিশ বিদ্যালয়ে আন্তর্জাতিক মাতৃভাষা দিবস পালন | ফরিদপুরে ইজিবাইকে অশ্লীলতা, ভাইরাল সেই যুবক গ্রেপ্তার | বঙ্গবন্ধু উপাধিতে ভূষিত হন শেখ মুজিব | বাবরি মসজিদের জন্য বরাদ্দ ৫ একর জমি নিল সুন্নি ওয়াক্ফ বোর্ড | একাই চার গোল করে বার্সাকে শীর্ষে ফেরালেন মেসি | বান্দরবানে সন্ত্রাসীদের হামলায় ওয়ার্ড আ’লীগের সভাপতি নিহত, গুলিবিদ্ধ ৫ | ‘মাদকসেবীরা সরকারি চাকরি পাবে না’- স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী |
  • আজ ১০ই ফাল্গুন, ১৪২৬ বঙ্গাব্দ

ছাত্রীদের পর্ন ছবি দেখানোর অভিযোগে প্রধান শিক্ষক আটক

১১:৩৬ অপরাহ্ণ | মঙ্গলবার, ফেব্রুয়ারি ১১, ২০২০ আলোচিত
Sunamgonj

জাহাঙ্গীর আলম ভূঁইয়া, সুনামগঞ্জ প্রতিনিধি: সুনামগঞ্জে প্রাথমিক বিদ্যালয়ের ছাত্রীদের পর্ন ছবি দেখানো ও যৌন হেনস্তার অভিযোগে গিয়াস উদ্দিন নামের এক প্রধান শিক্ষককে পুলিশে দিয়েছে এলাকাবাসী। গিয়াস উদ্দিন শহরের বিলপাড় এলাকার বাসিন্ধা। তিনি মাইজবাড়ি প্রাথমিক বিদ্যালয়ের প্রধান শিক্ষক।

মঙ্গলাবর (১১ ফেব্রুয়ারি) সন্ধ্যায় সুনামগঞ্জ সদর উপজেলার মাইজবাড়ি এলাকা থেকে ঐ প্রধান শিক্ষককে থানায় নিয়ে আসে পুলিশ।

পুলিশ ও এলাকাবাসী জানান,জেলার মাইবাড়ি প্রাথমিক বিদ্যালয়ের ৮ম শ্রেণির চার ছাত্রীকে কিছু দিন ধরে নানা অজুহাতে বিদ্যালয়ের ছাদে নিয়ে যেতেন প্রধান শিক্ষক গিয়াস উদ্দিন। সেখানে তাদের মোবাইলে পর্ন ছবি দেখাতেন তিনি। পর্ণ ছবি না দেখলে পরীক্ষায় ফেল ও নানা ভয়ভীতি দেখাতেন। মঙ্গলবারও চার ছাত্রীর মধ্যে দুই ছাত্রীকে ছাদে নিয়ে পর্ন দেখানোর চেষ্ঠা করেন। অন্য দুই ছাত্রী বিষয়টি তাদের অভিভাবকদের জানান।

ঘটনাটি জানাজানানি হয়ে গেলে স্থানীয় মানুষজন বিদ্যালয় ঘেরাও শিক্ষককে মারধর করেন। পরে খবর পেয়ে সদর থানা পুলিশ ঘটনাস্থলে গিয়ে অভিযুক্ত শিক্ষককে উদ্ধার করে তাদের হেফাজতে নিয়ে আসে।

ছাত্রীদের অভিভাবকরা জানান, বেশ কিছু দিন ধরেই শিক্ষক গিয়াস উদ্দিন নানা অজুহাতে ছাত্রীদের ছাদে নিয়ে ছাত্রীদের খারাপ ছবি দেখাতো। হাত ধরে টানাটানি করতো। ছবি না দেখলে নানা ভাবে হয়রানি করতো। আজ একই কাজ করলে এলাকাবাসী নিয়ে আমরা বিদ্যালয় ঘেরাও করি। আমরা এ ব্যাপারে থানায় অভিযোগ দিব।

সদর থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্ত (ওসি) সহিদুর রহমান জানান, বিদ্যায়লয়ের শিক্ষককে থানা হেফাজতে রাখা হয়েছে। ছাত্রীদের পরিবারের লোকজন অভিযোগ দেয়ার জন্য থানায় এসেছেন।

Loading...