‘খালেদার মুক্তি সরকারের হাতে’- ফখরুল

৩:১৭ অপরাহ্ণ | বুধবার, ফেব্রুয়ারি ১২, ২০২০ ঢাকা
fokk

সময়ের কণ্ঠস্বর ডেস্কঃ বিএনপি চেয়ারপারসন বেগম খালেদা জিয়ার মুক্তি এখন সরকারের হাতে বলে মন্তব্য করেছেন দলটির মহাসচিব মির্জা ফখরুল ইসলাম আলমগীর।

বুধবার রাজধানীর নয়াপল্টন বিএনপির কেন্দ্রীয় কার্যালয়ে আয়োজিত এক সংবাদ সম্মেলনে এ কথা জানান দলটির মহাসচিব মির্জা ফখরুল ইসলাম আলমগীর। এর আগে মির্জা ফখরুলের সভাপতিত্বে বিএনপি ও এর অঙ্গ-সহযোগী সংগঠনগুলো এবং ঢাকা বিভাগীয় বিএনপির নেতৃবৃন্দদের এক যৌথসভা অনুষ্ঠিত হয়।

ফখরুল বলেন, রাজনৈতিক প্রতিহিংসার কারণেই জামিন পাওয়ার সাংবিধানিক অধিকার থেকে বঞ্চিত করা হচ্ছে বিএনপি চেয়ারপানসনকে। সরকার সুপরিকল্পিতভাবে খালেদা জিয়াকে হত্যার জন্য কারাগারে আটকে রেখেছে। আমরা তাকে বাঁচাতে চাই। তার মুক্তির জন্য সাংবিধানিকভাবে যতরকমের চেষ্টা করার আমরা সবই করছি। আইনগতভাবেও যতরকম পথ আছে সবরকম চেষ্টা করে যাচ্ছি। তবে এটা আইনের মধ্যে নেই। সেজন্য জনগণকে সঙ্গে নিয়ে তার মুক্তির জন্য চেষ্টা চালিয়ে যাচ্ছি।

বিএনপির এ নেতা বলেন, এখন পুরো ইচ্ছেটাই সরকারের হাতে। অন্যায়ভাবে তাকে গ্রেফতারের জন্য সরকারই দায়ী। এ ধরনের মামলায় সাত দিনের মধ্যে জামিন হওয়ার কথা। সাধারণ নাগরিকও সাত দিনে জামিন পান। কিন্তু উনাকে দু’বছর ধরে আটকে রাখা হয়েছে।

এক প্রশ্নের জবাবে মির্জা ফখরুল বলেন, আমরা বেগম খালেদা জিয়াকে মুক্ত করতে জনগণকে সাথে নিয়েই নিয়মতান্ত্রিকভাবে যা করার দরকার, তা করছি। তিনি বলেন, প্যারোলে মুক্তির বিষয়ে আমার কাছে কোনো তথ্য নেই। আমরা দেশনেত্রীর মুক্তি চাই, তাকে বাঁচাতে চাই।

সংবাদ সম্মেলনে উপস্থিত ছিলেন বিএনপির ভাইস চেয়ারম্যান শামসুজ্জামান দুদু, সিনিয়র যুগ্ম মহাসচিব রুহুল কবির রিজভী, সৈয়দ মেয়াজ্জেম হোসেন আলাল, খায়রুল কবির খোকন, ঢাকা মহানগর দক্ষিণ বিএনপির সভাপতি হাবিব উন নবী খান সোহেল, সমাজকল্যাণ সম্পাদক কামরুজ্জামান রতন, স্বেচ্ছাসেবক বিষয়ক সম্পাদক মীর সরফত আলী সপু, সহ-সাংগঠনিক সম্পাদক অ্যাডভোকেট আবদুস সালাম আজাদ, স্বেচ্ছাসেবক দলের সভাপতি শফিউল বারী বাবু, সাধারণ সম্পাদক আব্দুল কাদির ভুইয়া জুয়েল, মহিলা দলের সভাপতি আফরোজা আব্বাস, তাঁতী দলের আহ্বায়ক আবুল কালাম আজাদ, মৎস্যজীবী দলের আহ্বায়ক রফিকুল ইসলাম মাহতাব, সদস্য সচিব আবদুর রহিম, ওলামা দলের শাহ মুহাম্মদ নেছারুল হক, শ্রমিক দলের আনোয়ার হোসাইন, মুক্তিযোদ্ধা দলের সাদেক আহমদ খান, কৃষক দলের হাসান জাফির তুহিন, ঢাকা জেলা বিএনপির ডা. দেওয়ান মো: সালাউদ্দিন, ঢাকা উত্তর বিএনপির খন্দকার আবু আশফাক, আহসান উল্লাহ হাসানসহ দলটির অঙ্গ সংগঠনের সভাপতি ও সাধারণ সম্পাদকরা।

Loading...