বাবার পর ৯ বছরের মেয়ে করোনায় আক্রান্ত

১০:৫৭ অপরাহ্ণ | বৃহস্পতিবার, মে ২১, ২০২০ ঢাকা, দেশের খবর

মো. সানোয়ার হোসেন, মির্জাপুর (টাঙ্গাইল) প্রতিনিধি- টাঙ্গাইলের মির্জাপুরে এবার বাবার পর মেয়ে করোনা ভাইরাসে আক্রান্ত হয়েছেন। এ নিয়ে উপজেলায় নতুন করে দু’জনের দেহে করোনা শনাক্ত হয়েছে।

বৃহস্পতিবার (২১ মে) দুপুরে বিষয়টি নিশ্চিত করেন উপজেলা স্বাস্থ্য ও পরিবার পরিকল্পনা কর্মকর্তা ডা. মাকসুদা খানম।

আক্রান্তদের মধ্যে একজন উপজেলার লতিফপুর ইউনিয়নের বরদাম গ্রামের করোনাক্রান্ত ব্যক্তি (উপজেলা কৃষি অফিসের নৈশ প্রহরীর) মেয়ে (০৯) ও গোড়াই ইউনিয়নের দক্ষিণ নাজিরপাড়া (মীর শরীফ মাহমুদ হাউস) এলাকার বাসিন্দা ব্যবসায়ী (৪৫)। তার গ্রামের বাড়ি কড়িগ্রাম জেলার ওলিপুর উপজেলায় বলে জানা গেছে।

স্বাস্থ্য কমপ্লেক্স সুত্র জানায়, উপজেলার পৌর সদরের বাসিন্দা এক সাংবাদিক আক্রান্তের পর গত (১৬ মে) ইউএনও, এসিল্যান্ড, এলাকার গণ্যমান্য ব্যক্তি ও বেশ কয়েকজন সাংবাদিকসহ মোট ৭২ জনের নমুনা সংগ্রহ করে রাজধানীর সাভারে অবস্থিত এলআরআরসি ল্যাবে পাঠানো হয়। এতে বৃহস্পতিবার প্রাপ্ত ফলাফলে ৭০ জনের দেহে করোনা নেগেটিভ আসে এবং ২ জনের দেহে করোনা শনাক্ত হয়।

এদের মধ্যে শনাক্ত হওয়া কিশোরী করোনা আক্রান্ত ব্যক্তির (তার বাবার) সংস্পর্শে ছিলেন বলে জানা গেছে। এছাড়া আক্রান্ত আর এক ব্যক্তির বড় ভাইয়ের ডায়রিয়া জনিত রোগের কারণে সে ও তার বড় ভাইয়ের নমুনা উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে গিয়ে দিয়ে আসেন। এতে তার দেহে করোনা শনাক্ত হয়।

উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা মো. আবদুল মালেক জানান, নাজিরপাড়া এলাকার আক্রান্ত ব্যক্তির বাড়িসহ আশপাশের ২৩টি বাড়ি ও এর পূর্বেই উপজেলা কৃষি অফিসের কর্মচারী আবাসিক ভবন লকডাউনই আছে।

আক্রান্ত কিশোরী কৃষি অফিসের কর্মচারী আবাসিক ভবন ও নাজিরপাড়া এলাকার বাসিন্দা তার বাড়িতেই চিকিৎসা নিবেন বলেও উল্লেখ করেন। এ নিয়ে মির্জাপুর উপজেলায় আক্রান্তের সংখ্যা বেড়ে দাঁড়ালো ১৬ জনে।