খুন হওয়া সেই কিশোরী পেয়েছে জিপিএ-৫

৫:৪৮ অপরাহ্ণ | রবিবার, মে ৩১, ২০২০ অন্যান্য ক্যটাগরি
nura

সময়ের কণ্ঠস্বর ডেস্কঃ সাবরিনা সুলতানা নূরার স্বপ্ন ছিল একজন চিকিৎসক হয়ে সে দেশের সেবায় নিজেকে নিয়োজিত করবে। পড়ালেখার প্রতিটি ধাপে সফলতার স্বাক্ষর রেখেছিল নূরা। সবশেষ সফলতার দ্যূতি ছড়িয়েছে চলতি বছর এসএসসি পরীক্ষার ফলাফলে। ঘোষিত ফলাফল অনুযায়ী নূরা জিপিএ-৫ পেয়ে উত্তীর্ণ হয়েছে।

ফলাফল প্রকাশের পর নূরার বন্ধু ও সহপাঠীরা আনন্দ উল্লাস করলেও নূরার স্বজনদের মধ্যে নেই তার ছিটেফোঁটাও। কারণ এই উৎসবের মধ্যমণি নূরা যে আর নেই। তাই এ ফলাফল এখন বাড়িয়েছে শুধুই আক্ষেপ।

গত ২২ এপ্রিল রাতে গাজীপুরের শ্রীপুরের আবদার গ্রামে নিজ বাড়িতে মা, বোন ও ভাইয়ের সঙ্গে হত্যার শিকার হন সাবরিনা সুলতানা নূরা। এ ঘটনায় একটি পরিবারের সঙ্গে নূরার স্বপ্নও শেষ হয়ে যায়।

নূরার বাবা রেজোয়ান কাজল বলেন, নূরা ছোটবেলা থেকেই মেধাবী। সে প্রাথমিক সমাপনী ও জেএসসি পরীক্ষায়ও জিপিএ-৫ পেয়েছিল। নূরা স্থানীয় এইচ একে একাডেমী নামে একটি প্রতিষ্ঠানের শিক্ষার্থী হিসেবে এসএসসি পরীক্ষায় বিজ্ঞান বিভাগ থেকে অংশ নিয়েছিল।

বিদ্যালয়টির প্রধান শিক্ষক শাহীন সুলতানা জানান, আজকের ঘোষিত ফলাফলে নুরা জিপিএ-৫ পেয়েছে। এখন তার এ ফলাফল বন্ধুবান্ধব ও পরিবারের কাছে শুধুই স্মৃতি। তার এমন ফলাফলই আমাদের কাছে প্রত্যাশিত ছিল। তার স্বপ্ন ছিল চিকিৎসক হবে। কিন্তু একটি ঘটনার মধ্য দিয়ে সবই এখন অতীত।

প্রসঙ্গত, গত ২২ এপ্রিল রাতে গাজীপুরের শ্রীপুরের আবদার গ্রামে নিজ বাড়িতে মা, বোন ও ভাইয়ের সঙ্গে হত্যার শিকার হন নূরা সবারিনা। এ ঘটনায় জড়িত এক কিশোরকে গ্রেফতার করে জেলহাজতে পাঠিয়েছে পুলিশ।