করোনা সন্দেহে লাশ রেখে পালাল স্বজনরা, দাফন করলেন ইউপি চেয়ারম্যান

১:২৩ অপরাহ্ণ | সোমবার, জুন ১, ২০২০ চট্টগ্রাম, দেশের খবর

আবদুল্লাহ রিয়েল, ফেনী প্রতিনিধি: ফেনীর সোনাগাজীতে করোনা উপসর্গ নিয়ে ষাটোর্ধ্ব একজন ব্যক্তির মৃত্যু ঘটেছে। ভয়ে লাশ রেখে পালিয়েছে পরিবারের সদস্যরা। সেই লাশ দাফন সম্পন্ন করলেন মতিগঞ্জ ইউনিয়ন পরিষদ চেয়ারম্যান রবিউজ্জামান বাবু।

তিনি জানান, চট্টগ্রামে বসবাসরত এ পরিবার পূর্ব থেকেই মৃতের করোনার উপসর্গের কথা জানতেন। দুইদিন পূর্বে পরিবারের আরও সদস্যসহ তারা বাড়িতে আসেন।

রবিবার (৩১ মে) রাতে সোনাগাজী উপজেলার মতিগঞ্জ ইউনিয়নের ভাদাদিয়া গ্রামে এ ব্যক্তির মৃত্যু হয়। তিনি শ্বাসকষ্ট জ্বরসহ একাধিক করোনা উপসর্গে ভূগছিলেন।

সোনাগাজী উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্স সূত্র জানায়, রবিবার বিকালে ওই ব্যক্তির কোভিড টেস্টের জন্য নমুনা সংগ্রহ করা হয়েছে।

রবিউজ্জামান বাবু জানান, মৃত্যুর পর পরিবারের সদস্যরা লাশ ফেলে পালিয়েছে। মৃতের স্ত্রী, মেয়ে, জামাতা কেউ লাশ দাফনে আসতে রাজি নন। তার আত্মীয় স্বজনরাও আসেনি। এ অবস্থায় ইউনিয়ন পরিষদের পক্ষ হতে দাফনের সব ব্যবস্থা গ্রহণ করা হয়েছে।

তিনি আরও জানান, সোনাগাজী উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্স হতে দাফনের জন্য পার্সোনাল প্রোটেক্টিভ ইক্যুপমেন্ট (পিপিই) সংগ্রহ ও মডেল থানা হতে লাশের জন্য ব্যাগ এনে রাত ৩টা নাগাদ জানাযা ও দাফন সম্পন্ন করা হয়।

এ সময় উপস্থিত ছিলেন, ইসলামি আন্দোলন বাংলাদেশ সোনাগাজী উপজেলা সভাপতি ও লাশ দাফন টিম লিডার মুফতি আহসান উল্লাহ কাসেমী, ইসলামী আন্দোলন বাংলাদেশ ফেনী জেলা সাংগঠনিক সম্পাদক ও উপজেলা যুগ্ম-সাধারন সম্পাদক মুফতি আবদুর রহমান ফরহাদ, ইসলামী যুব আন্দোলন সোনাগাজী উপজেলা যুগ্ম সম্পাদক মাওলানা একরামুল হক, মৌলভি আবুল কাশেম, মতিগঞ্জ ইউপি সদস্য ফেরদৌস রাসেল প্রমুখ ।