মাস্ক খুলে করোনা পজিটিভ ঘোষণা, ব্রাজিলের প্রধানমন্ত্রীর বিরুদ্ধে মামলা

৬:৩৫ অপরাহ্ণ | শুক্রবার, জুলাই ১০, ২০২০ আন্তর্জাতিক
bb

আন্তর্জাতিক ডেস্কঃ ব্রাজিলের প্রেসিডেন্ট জেইর বলসোনারো করোনাভাইরাস পজিটিভ নিশ্চিত হওয়ার পর সংবাদ সম্মেলন ডাকেন এবং মাস্ক খুলে সাংবাদিকদের কাছে গিয়ে জানান, তিনি করোনাভাইরাসে আক্রান্ত হয়েছেন। তাঁর এমন আচরণে ক্ষুব্ধ সাংবাদিকরা তাঁর বিরুদ্ধে মামলা করেছেন।

বলসনারোর বিরুদ্ধে দুটি মামলা দায়ের করেছে ব্রাজিলের প্রেস অ্যাসোসিয়েসন। এক, তিনি মাস্ক না পরে অনেক মানুষের জীবন ঝুঁকির মধ্যে ফেলেছেন। দুই, দেশে সংক্রমণ ঠেকাতে তিনি সঠিক পথ অবলম্বন করেননি। করোনা রোধে ব্যর্থ হয়েছেন।

ডোনাল্ড ট্রাম্পের মতোই মাস্ক পরায় অনীহা ব্রাজিলের প্রেসিডেন্ট জায়ের বলসোনারোর। এমনকী করোনা পজিটিভ রিপোর্ট জানার পরেও টেলিভিশন সাক্ষাৎকারে মাস্ক পরেননি। তাই তার বিরুদ্ধে ব্রাজিলের প্রেস অ্যাসোসিয়েশনের এই মামলা।

গত মঙ্গলবার টেলিভিশনে এক লাইভ সাক্ষাৎকারে বলসোনারো ঘোষণা করেন, তিনি কভিড আক্রান্ত। তিনি যে আক্রান্ত, তা জানা সত্ত্বেও মুখের মাস্কটি সে সময় খুলে রেখেছিলেন। ঘোষণার আগে পর্যন্ত উলটো দিকে বসে থাকা সাংবাদিকরা এর বিন্দুবিসর্গ জানতেন না। বলসোনারোর আচমকা এই ঘোষণায় ওই সাংবাদিকেরা চাপে পড়ে যান। চ্যানেল কর্তৃপক্ষ তাদের কোয়ারেন্টিনে পাঠায়।

ফৌজদারি তদন্তের ভিত্তিতে প্রেসিডেন্টের বিরুদ্ধে কোনও ব্যবস্থা নেওয়ার ভিত্তি রয়েছে কি না, সে সম্পর্কে সিদ্ধান্ত নেওয়ার জন্য অভিযোগটি অ্যাটর্নি জেনারেলের কার্যালয়ে পাঠানোর আর্জি জানায় প্রেস অ্যাসোসিয়েশন।

উল্লেখ্য গত মঙ্গলবারই ব্রাজিলের প্রেসিডেন্টের করোনা টেস্ট রিপোর্ট পজিটিভ আসে। তার আগে আরও তিন বার তিনি পরীক্ষা করিয়েছিলেন। প্রতিবারই রিপোর্ট এসেছে নেগেটিভ। সিএনএন ব্রাজিলকেকে দেওয়া লাইভ সাক্ষাৎকারে তিনি নিজেই করোনাভাইরাসে আক্রান্তের কথা ঘোষণা করেন।

মহামারির শুরু থেকেই করোনাভাইরাসকে রীতিমতো অবজ্ঞার চোখে দেখা শুরু করেছিলেন ব্রাজিলের প্রেসিডেন্ট। বলেছিলেন ‘সামান্য ফ্লু’। শেষ পর্যন্ত তিনি নিজেও বিশ্বে ত্রাস ধরানো কভিড সংক্রমণের শিকার হন।

Skip to toolbar