এই মাত্র
  • তুরস্ক-সিরিয়া সীমান্তে ভূমিকম্প: নিহতের সংখ্যা ছাড়িয়েছে ১৩শ’
  • পদ্মা সেতুর নাট-বল্টু খোলা সেই বায়েজিদের জামিন
  • তুরস্কে ভূমিকম্পে নিহতের সংখ্যা ১০ হাজার ছাড়াতে পারে
  • ভয়াবহ ভূমিকম্পে তুরস্ক-সিরিয়ায় ৫ শতাধিক মৃত্যু
  • আমার মন্তব্য ছিল ফখরুলকে নিয়ে, হিরো আলম নয়: ওবায়দুল কাদের
  • তুরস্ক-সিরিয়ায় শক্তিশালী ভূমিকম্প, নিহতের সংখ্যা ছাড়ালো ৩০০
  • তিন দিনের সফরে ঢাকায় বেলজিয়ামের রানি মাথিল্ডে
  • শক্তিশালী ভূমিকম্পে তুরস্ক ও সিরিয়ায় নিহত শতাধিক
  • ৫ মাসেই হাফেজ হলো ৯ বছরের শিশু আলিফ
  • ইতিহাস গড়লো ‘পাঠান’
  • আজ সোমবার, ২৪ মাঘ, ১৪২৯ | ৬ ফেব্রুয়ারী, ২০২৩
    দেশজুড়ে

    ‘প্রযুক্তির অপব্যবহারে শিক্ষার্থীদের বইপড়ার আগ্রহ কমে গেছে’

    user Palash_Malick
    প্রকাশ: ২৪ জানুয়ারি, ২০২৩ ১৩:৪২ পিএম

    রাজশাহী প্রতিনিধি: তানোর উপজেলা পরিষদ মিলনায়তনে উপজেলার ৬৬টি মাধ্যমিক বিদ্যালয়ের প্রধান ও সহকারী শিক্ষকদের (লাইব্রেরি) অংশগ্রহণে পাঠাভ্যাস উন্নয়ন কর্মসূচির উদ্বুদ্ধকরণ কর্মশালা অনুষ্ঠিত হয়েছে।

    সোমবার (২৩ জানুয়ারি) সকালে এ আয়োজন করা হয়। এতে প্রধান অতিথির বক্তব্যে তানোর উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা পংকজ চন্দ্র দেবনাথ বলেন, ‘তথ্য প্রযুক্তির অপব্যবহারে শিক্ষার্থীদের মাঝে বই পড়ার আগ্রহ কমে গেছে।’

    উপজেলা মাধ্যমিক শিক্ষা কর্মকর্তা মো. সিদ্দিকুর রহমানের সভাপতিত্বে অনুষ্ঠানে প্রধান অতিথির বক্তব্য রাখেন ইউএনও পংকজ চন্দ্র দেবনাথ। ওই কর্মশালায় বিশেষ অতিথির বক্তব্য রাখেন, উপজেলা একাডেমিক সুপারভাইজার সায়মা আঞ্জুমান, পাঠাভ্যাস উন্নয়ন কর্মসূচীর টিম ম্যানেজার মো. ইজাজুল ইসলাম। 

    ইউএনও পংকজ চন্দ্র দেবনাথ প্রধান অতিথির বক্তব্যে বলেন, ‘তথ্য প্রযুক্তির অপব্যবহারে শিক্ষার্থীদের মাঝে বই পড়ার আগ্রহ কমে গেছে। পাঠাভ্যাস ছাড়া জাতির অন্ধকার দূর হবে না। অন্ধকার জাতিকে আলোকিত করতে হলে পাঠাভ্যাসের বিকল্প নেই। শিক্ষার্থীদের মৌলিক ও মানবিক মানুষ হিসেবে গড়ে তোলার জন্য বেশি বেশি বই পড়তে হবে। শিক্ষার মান উন্নত করতে পাঠাভ্যাস উন্নয়ন কর্মসূচি ভূমিকা রাখবে।’ অত:পর কর্মসূচীর সফলতা কামনা করে অত্র কর্মশালার শুভ উদ্বোধন ঘোষণা করেন।

    স্বাগত বক্তব্য পাঠাভ্যাস উন্নয়ন কর্মসূচির টিম ম্যানেজার মো. ইজাজুল ইসলাম বলেন, ‘বর্তমান সৃজনশীল শিক্ষা ব্যবস্থাকে আরো বেশি কার্যকর ও সফল করতে এই পাঠাভ্যাস উন্নয়ন কর্মসূচি প্রভাবক হিসেবে কাজ করবে। সেই সাথে বই পড়ার উপর গুরুত্বারোপ করেন এবং শিক্ষা প্রতিষ্ঠানে এ কর্মসূচি পরিচালনা করার ব্যপারে সর্বাত্বক সহযোগীতা করার প্রতি প্রতিষ্ঠান প্রধান ও সংগঠকগণদের আহ্বান জানান। 

    মাধ্যমিক ও উচ্চ শিক্ষা অধিদপ্তর কর্তৃক বাস্তবায়নাধীন সেকেন্ডারি এডুকেশন ডেভেলপমেন্ট প্রোগ্রামের (এসইডিপি) অন্তর্ভুক্ত স্ট্রেংদেনিং রিডিং হ্যাবিট অ্যান্ড রিডিং স্কিলস অ্যামাং সেকেন্ডারি স্টুডেন্টস স্কিম-এর আওতায় পাঠাভ্যাস উন্নয়ন কর্মসূচির উদ্বুদ্ধকরণ কর্মশালায় উপজেলার ৬৬টি মাধ্যমিক পর্যায়ের সকল শিক্ষা প্রতিষ্ঠান প্রধান, সহকারী শিক্ষকগণ (লাইব্রেরি) উপস্থিত ছিলেন।
     

    ট্যাগ :

    সম্পর্কিত:

    চলতি সপ্তাহে সর্বাধিক পঠিত

    সর্বশেষ প্রকাশিত