সংবাদ শিরোনাম

ছাত্রকে বলাৎকার, মাদ্রাসা শিক্ষককে গণধোলাইয়ের পর পুলিশে দিলেন জনতা | মধ্যরাত থেকে করোনা নেগেটিভ সনদ ছাড়া দেশে প্রবেশ নিষেধ | বিদায় নেয়ার আগে ইরানের ওপর নতুন নিষেধাজ্ঞা ট্রাম্প প্রশাসনের | প্রথম ধাপে ভাসানচরে পৌঁছেছেন ১৬৪২ রোহিঙ্গা | মৌলবাদী গোষ্ঠীগুলো যুগে যুগে দেশকে পিছিয়ে দেওয়ার অপচেষ্টা চালিয়েছে: তথ্যমন্ত্রী | কালীগঞ্জে ট্রেনে কাটা পড়ে দুজনের মৃত্যু | টাঙ্গাইলে শিক্ষকতায় উজ্জল নক্ষত্রের নাম দুঃখীরাম রাজবংশী | চাঁদপুরে স্বৈরাচার বিরোধী আন্দোলনে শহীদ রাজুরকে স্মরণ করে বিভিন্ন মহলের শ্রদ্ধা | গোবিন্দগঞ্জে চা দোকানীর গলাকাটা লাশ উদ্ধার | কাপাসিয়ায়  নারীসহ ৩ মাদক কারবারী গ্রেফতার |

  • আজ ১৯শে অগ্রহায়ণ, ১৪২৭ বঙ্গাব্দ

৭৯০টি পোশাক কারখানা বন্ধ রয়েছে, সংসদে বাণিজ্যমন্ত্রী

⏱ ৭:৪১ অপরাহ্ন | সোমবার, জুন ২০, ২০১৬ 📂 অর্থনীতি, চিত্র বিচিত্র, জাতীয়

banijjomontri

সময়ের কণ্ঠস্বর- বাণিজ্যমন্ত্রী তোফায়েল আহমেদ বলেছেন, ক্রেতাদের শর্ত পূরণ না হওয়া এবং নানা কারণে সব মিলিয়ে দেশে ৭৯০টি পোশাক তৈরি কারখানা বন্ধ রয়েছে। যথাযথ নিরাপত্তা ব্যবস্থা না থাকায় ৮১টি পোশাক তেরির কারখানা বন্ধ করে দেওয়া হয়েছে। এরমধ্যে ৩৯টি সম্পূর্ণ এবং ৪২টি কারখানা আংশিক বন্ধ রয়েছে।

সোমবার সংসদে প্রশ্নোত্তরে অংশ নিয়ে তিনি এ তথ্য জানান। এর আগে বেলা ১১টায় স্পিকার ড. শিরীন শারমিন চৌধুরীর সভাপতিত্বে সংসদের বৈঠক শুরু হয়।

কুড়িগ্রাম-৩ আসনে জাতীয় পার্টির সাংসদ এ কে এম মাইদুল ইসলামের প্রশ্নের জবাবে বাণিজ্যমন্ত্রী বলেন, দেশে পাঁচ হাজার ১৯০টি পোশাক তৈরি কারাখানা রয়েছে। এরমধ্যে চার হাজার ৮৩৪টি রপ্তানিমুখী। জাতীয় উদ্যোগ, অ্যাকর্ড ও অ্যালায়েন্সের তত্ত্বাবধানে রপ্তানিমুখী তিন হাজার ৭৪৬টি কারাখানায় অগ্নি, বৈদ্যুতিক ও কারখানা ভবনের প্রাথমিক নিরাপত্তা যাচাই করা হয়েছে। যাচাই শেষে যথাযথ নিরাপত্তা ব্যবস্থা না থাকায় ৩৯টি কারখানা সম্পূর্ণ এবং ৪২টি কারখানা আংশিক বন্ধ করে দেওয়া হয়েছে। অন্যান্য কারণসহ সব মিলিয়ে বর্তমানে ৭৯০টি কারখানা বন্ধ রয়েছে।