সংবাদ শিরোনাম

সিরিয়ার প্রেসিডেন্ট বাশার আল-আসাদ সস্ত্রীক করোনায় আক্রান্তরোহিঙ্গা শিশু অপহরণের পর হত্যার ঘটনায় নারীসহ দু’জন গ্রেপ্তারবেলকুচিতে দূর্বৃত্তদের আগুনে পুড়ে গেল শিক্ষা প্রতিষ্ঠান !জামালপুরে মাদ্রাসা ছাত্রীকে রাতভর ধর্ষণ, গ্রেফতার মাদ্রাসার শিক্ষক‘করোনাকালের নারী নেতৃত্ব: গড়বে নতুন সমতার বিশ্ব’বগুড়ায় শিক্ষা প্রনোদনা পেতে প্রত্যয়নের নামে টাকা নেয়ার অভিযোগজামালপুরে ধর্ষণ মামলায় ধর্ষকের যাবজ্জীবনপাবনায় অবৈধ অস্ত্র তৈরির কারখানায় অভিযান, চারটি আগ্নেয়াস্ত্রসহ গ্রেফতার-২উপজেলা আ.লীগের সভাপতিকে ‘পেটালেন’ কাদের মির্জা!কে কত বড় নেতা, সবাইকে আমি চিনি: কাদের মির্জা

  • আজ ২৪শে ফাল্গুন, ১৪২৭ বঙ্গাব্দ

দুই মাস পরে কর্মস্থলে শিক্ষক শ্যামল কান্তি ভক্ত

১০:৩০ পূর্বাহ্ন | সোমবার, জুলাই ১১, ২০১৬ আলোচিত বাংলাদেশ

নারায়ণগঞ্জ প্রতিনিধি- ধর্মীয় অবমাননা ও ছাত্রকে মারধরের অভিযোগে লাঞ্ছনার শিকার নারায়ণগঞ্জ বন্দরের পিয়ার সাত্তার লতিফ উচ্চ বিদ্যালয়ের প্রধান শিক্ষক শ্যামল কান্তি ভক্ত দুই মাস পর কর্মস্থলে যোগদান করেছেন।

রোববার সকাল ৯টায় পুলিশ প্রহরায় স্কুলে যোগ দেন তিনি। এ সময় উপস্থিত ছিলেন বন্দর উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা (ইউএনও) মৌসুমী হাবীব, উপজেলা মাধ্যমিক শিক্ষা অফিসার আ.ক.ম নুরুল আমিন এবং বন্দর থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) আবুল কালাম প্রমুখ।

প্রধান শিক্ষক শ্যামল কান্তি ভক্ত স্কুলে এসে দায়িত্ব বুঝে নেয়ার পর শিক্ষক ও ক্লাসে ক্লাসে গিয়ে শিক্ষার্থীদের সঙ্গে কুশল বিনিময় করেন। এ সময় তাকে স্বাগত জানান শিক্ষকরা। এরপর বেলা ১২টার দিকে জেলা প্রশাসকের সঙ্গে সাক্ষাৎ করতে পুলিশ পাহারায় জেলা প্রশাসকের কার্যালয়ে যান তিনি।

এদিকে, প্রধান শিক্ষকের স্কুলে যোগদানের খবরে সকালে স্কুলের কিছু শিক্ষার্থী বিক্ষোভ করলেও এলাকাবাসী তা থামিয়ে দেয়। নিরাপত্তাহীনতার অজুহাতে তার বিরুদ্ধে অভিযোগকারী ১০ শ্রেণির ছাত্র রিফাতকে স্কুল থেকে নিয়ে যান তার মা।

এ ব্যাপারে প্রধান শিক্ষক শ্যামল কান্তি ভক্ত জানান, আমি এখন সম্পূর্ণ সুস্থ। গত ১৩ মে স্কুলে একটি অনাকাঙ্ক্ষিত ঘটনার জন্য আমাকে দেড় মাস হাসপাতালে চিকিৎসা নিতে হয়েছে। আর রমজান ও গ্রীষ্মকালীন ছুটির কারণে দুই মাস পর স্কুলে যোগদান করি।

মিডিয়ার কারণে আমি আমার ন্যায্য অধিকার ফিরে পেয়েছি। তবে অনেক অনাকাঙ্ক্ষিত ঘটনার পর আমার কর্মস্থলে ফিরে এলেও নিরাপত্তাহীনতায় ভুগছি না। কারণ পুলিশ প্রহরায় আমি যোগদান করতে পেরে নিজেকে স্বাচ্ছন্দ্য বোধ করছি। আমি স্কুলের সকল কাজকর্ম আন্তরিকভাবে পালন করবো। শিক্ষার্থী ও শিক্ষকদের বিরুদ্ধে আমার কোনো অভিযোগ নেই।

এ ব্যাপারে স্কুলের অভিভাবক প্রতিনিধি সালাউদ্দিন জানান, সকালে প্রধান শিক্ষক স্কুলে যোগদানের ফলে এলাকায় ও অভিভাবকদের মাঝে মিশ্র প্রতিক্রিয়া সৃষ্টি হয়েছে। আর প্রধান শিক্ষক পুলিশ নিয়ে স্কুলে আসায় অনেক শিক্ষার্থীর মাঝে আতঙ্ক দেখা দিয়েছে।shamolনারায়ণগঞ্জ সদর থানার সহকারী উপ-পরিদর্শক (এএসআই) সরাফত জানান, তিনি সারারাত পাহারা দেওয়ার পর সকালে এএসআই মাহবুবুরের নেতৃত্বে কঠোর নিরাপত্তার মধ্যে বন্দর থানা পুলিশের কাছে শিক্ষকে তুলে দেওয়া হয়। পরে বন্দর থানা পুলিশ শিক্ষক শ্যামল কান্তি ভক্তকে স্কুলে পৌঁছে দেয়। স্কুল ছুটি না হওয়া পর্যন্ত বন্দর থানা পুলিশ শিক্ষকের নিরাপত্তার জন্য স্কুলে অবস্থান করবে এবং তাকে পুনরায় বাসায় পৌঁছে দেবে।

প্রসঙ্গত, গত ১৩ মে বন্দরের পিয়ার সাত্তার লতিফ উচ্চ বিদ্যালয়ের প্রধান শিক্ষক শ্যামল কান্তি ভক্তকে ধর্মী অনুভূতিতে আঘাত এবং দশম শ্রেণির শিক্ষার্থী রিফাতকে মারধরের অভিযোগে এলাকাবাসী গণপিটুনি দেয়। এ ঘটনাটি আরো ভয়াবহ রূপ ধারণ করলে বিকেলে স্থানীয় সংসদ সদস্য সেলিম ওসমান এসে তাকে জনগণের সামনে কান ধরে উঠবস করান। এরপর তাকে উদ্ধার করে নিয়ে যান তিনি। পরে বিষয়টি সামাজিক যোগাযোগসহ সারা বিশ্বে ব্যাপক আলোড়ন সৃষ্টি করে।