• আজ বৃহস্পতিবার, ৮ আশ্বিন, ১৪২৮ ৷ ২৩ সেপ্টেম্বর, ২০২১ ৷

আগামীকাল সন্ত্রাসবিরোধী সমাবেশ করবে জাতীয় পার্টি


❏ শুক্রবার, জুলাই ১৫, ২০১৬ Breaking News, জাতীয়

সময়ের কণ্ঠস্বর – বাংলাদেশে নজিরবিহীন জঙ্গি হামলার পর সংসদের প্রধান বিরোধী দল হিসেবে জাতীয় পার্টি ঘটনার প্রতিবাদে অবশেষে সমাবেশ করার সিদ্ধান্ত নিয়েছে।

আগামীকাল শনিবার দুপুর ৩টায় কাকরাইল পার্টি অফিসের সামনে গুলশান ঘটনার প্রতিবাদে সন্ত্রাসবিরোধী সমাবেশ করার ঘোষণা দিয়েছে জাতীয় পার্টি।

গত ১ জুলাই গুলশানের হলি আর্টিজান বেকারিতে হামলায় ১৭ বিদেশিসহ অন্তত ২৮ জন নিহতের পর সপ্তাহ শেষ না হতেই শোলাকিয়ায় ঈদ জামাতের আগে আরেক হামলায় দুই পুলিশসহ ৪ জনের মৃত্যু হয়। এই দুই মর্মস্পর্শী ঘটনার পর আওয়ামী লীগ, বিএনপিসহ ছোট ছোট দলগুলো রাস্তায় সভা সমাবেশ করে নিন্দা ও শোক প্রকাশ করলেও জাতীয় পার্টির চেয়ারম্যান হুসেইন মুহম্মদ এরশাদ শুধু একটি বিবৃতি দিয়ে এর নিন্দা জানান।

গুলশানে সন্ত্রাসী হামলার ১৫ দিন পর জাতীয় পার্টির সমাবেশ করা নিয়ে অনেকেই যেমন সমালোচনা করেছেন তেমনি অনেকেই এ উদ্যোগকে স্বাগতও জানিয়েছেন।

jatiyo parti

এই সমাবেশ করা নিয়ে নাম প্রকাশে অনিচ্ছুক জাতীয় পার্টির একাধিক নেতা বলেন, পার্টির ভেতরের কাঠামো এখনও শক্তিশালী হয়নি। যার জন্য চাইলেই হুট করে সমাবেশ করা যাচ্ছে না। তবে তারা আশা প্রকাশ করে বলেন, এই সংকট থাকবে না। পূর্ণাঙ্গ কেন্দ্রীয় কমিটি গঠন পর্যন্ত কিছুটা এলোমেলো থাকবে বলেও কেউ কেউ মত প্রকাশ করেন।

আগামী ১৭ জুলাই পার্টির চেয়ারম্যান হুসেইন মুহম্মদ এরশাদ ৫ দিনের ব্যক্তিগত সফরে নিউইয়র্ক যাচ্ছেন। সেখান থেকে ফিরে এসে বেশ কিছু গুরুত্বপূর্ণ সিদ্ধান্ত নেবেন বলে একাধিক সূত্র জানিয়েছে।

এদিকে, জাতীয় পার্টির মহাসচিব এবিএম রুহুল আমিন হাওলাদার আগামীকালের সমাবেশ সফল করার লক্ষ্যে এক প্রস্তুতি সভায় বলেন, কোনো দেশপ্রেমিক রাজনৈতিক দল এই ন্যাক্কারজনক সন্ত্রাসী হামলা সমর্থন করতে পারে না। যারা এই অপকর্মে জড়িত এবং যারা এদের মদদ দিচ্ছে তারা দেশের শত্রু, ইসলামের শত্রু।

তিনি বলেন, সন্ত্রাস বা সন্ত্রাসী হামলা কোনো রাজনৈতিক সমস্যা নয়, এটা আমাদের জাতীয় সমস্যা। এই সমস্যা মোকাবেলায় দল-মত নির্বিশেষে সব দেশপ্রেমিক রাজনৈতিক দলকে ঐক্যবদ্ধ হওয়ারও আহ্বাবান জানান রুহুল আমিন হাওলাদার।

সন্ত্রাসবিরোধী সমাবেশে প্রধান অতিথি হিসেবে বক্তব্য রাখবেন জাতীয় পার্টির চেয়ারম্যান সাবেক রাষ্ট্রপতি হুসেইন মুহম্মদ এরশাদ।

বিশেষ অতিথি হিসেবে উপস্থিত থাকবেন পার্টির সিনিয়র কো-চেয়ারম্যান বেগম রওশন এরশাদ, কো-চেয়ারম্যান গোলাম মোহম্মদ কাদের, মহাসচিব এবিএম রুহুল আমিন হাওলাদার প্রমুখ।

আপনার জেলার সর্বশেষ সংবাদ জানুন