ঝিনাইদহে সেবায়েত ও হোমিও চিকিৎসক হত্যা দুই শিবির নেতার আদালতে স্বীকারোক্তিমূলক জবানবন্দি


download


আরাফাতুজ্জামান, ঝিনাইদহ প্রতিনিধিঃ

ঝিনাইদহ সদর উপজেলার কাস্টসাগরা মন্দিরের সেবায়েত শ্যামানন্দ দাস ও কালিগঞ্জ উপজেলায় হোমিও চিকিৎসক আব্দুর রাজ্জাক হত্যার ঘটনায় আটক দুই শিবির নেতা ঝিনাইদহ আদালতে স্বীকারোক্তিমূলক জবানবন্দি দিয়েছেন।

রোববার বিকেলে ঝিনাইদহের অতিরিক্ত চিফ জুডিশিয়াল ম্যাজিস্ট্রেট ও কালীগঞ্জ থানার আমলী আদালতে ১৬৪ ধারায় জবানবন্দি দেন তারা।

ঝিনাইদহের অতিরিক্ত চিফ জুডিশিয়াল ম্যাজিস্ট্রেট আদালতের বিচারক বেগম ফাহমিদা জাহাঙ্গীর ও কালিগঞ্জ আমলী আদালতের সিনিয়র জুডিশিয়াল ম্যাজিস্ট্রেট মোঃ আলমগীর কবির তাদের জবানবন্দি রেকর্ড করেন।

স্বাকারোক্তি দেওয়া দুই শিবির নেতা হলেন, ঝিনাইদহ সদর উপজেলার মহারাজপুর ইউনিয়নের হরিপুর গ্রামের মোহাম্মদ আলীর ছেলে ও কালিগঞ্জ উপজেলার বাকুলিয়া গ্রাম শিবিরের সাধারণ সম্পাদক সবুজ খান (২২) এবং শৈলকুপা উপজেলার ফুলহরি গ্রামের আমিনুল ইসলামের ছেলে ও ঝিনাইদহ দক্ষিণ অংশের শিবিরের সভাপতি শাহিন আলম (২৫)। পুলিশ গোপন খবরের ভিত্তিতে ১৬ জুলাই শনিবার সকালে সদরের হরিপুর গ্রাম থেকে সবুজ ও রোববার ভোরে শেখপাড়া বাজার থেকে শাহিন আলমকে আটক করে।

ঝিনাইদহের (এসপি) পুলিশ সুপার মোঃ আলতাফ হোসেন স্বাকারোক্তি বিষয়টি নিশ্চিত করে রোববার সন্ধ্যায় তার কার্যালয়ে এক সাংবাদিক সম্মেলনে জানান, শিবিরের কেন্দ্রীয় সিদ্ধান্তে সেবায়েত শ্যামানন্দ দাস ও হোমিও চিকিৎসক আব্দুর রাজ্জাককে হত্যা করা হয়েছে।

প্রসঙ্গত, ১৫ মার্চ হোমিও চিকিৎসক আব্দুর রাজ্জাক ও ১ জুলাই সেবায়েত শ্যামানন্দ দাসকে কুপিয়ে হত্যা করে দুর্বৃত্তরা।

◷ ১:৪১ পূর্বাহ্ন ৷ সোমবার, জুলাই ১৮, ২০১৬ আলোচিত, খুলনা