গাজীপুরে নন্দিত লেখক হুমায়ূন আহমেদের চতুর্থ মৃত্যুবার্ষিকী পালন


❏ মঙ্গলবার, জুলাই ১৯, ২০১৬ গুণীজন সংবাদ, স্পট লাইট

রেজাউল সরকার (আঁধার), নিজস্ব প্রতিবেদক, গাজীপুর: নন্দিত কথাসাহিত্যিক হুমায়ূন আহমেদের চতুর্থ মৃত্যুবার্ষিকী উপলক্ষে গাজীপুরে নেয়া হয়েছে নানা কর্মসূচি। প্রিয় লেখকের নিজহাতে গড়া পিরোজ আলী গ্রামের নুহাশপল্লীতে কবর জিয়ারত, মিলাদ ও দোয়া মাহফিল এবং এতিমদের ভূরি ভোজের আয়োজন করা হয়েছে বলে জানিয়েছে নুহাশপল্লী কর্তৃপক্ষ।

সকালে কবর জিয়ারতে আসেন হুমায়ূন আহমেদের দুই ভাই লেখক জাফর ইকবাল ও কার্ট্যুনিষ্ট আহসান হাবিবসহ পরিবারের লোকজন। তারা কবরের পাশে দাঁড়িয়ে মরহুমের আত্মার মাগফেরাত কামনা করেন।

humayun-ahmedলেখালেখি নিয়ে পারিবারিকভাবে একটি জাদুঘর নির্মাণের পরিকল্পনা রয়েছে জানিয়ে আহসান হাবিব বলেন, হুমায়ূনের প্রকাশিত ও অপ্রকাশিত সব স্মৃতি এখানে সংরক্ষণ করা হবে।

এসময় জাফর ইকবাল বলেন, হুমায়ূনের শূন্যতা আমরা সব সময় অনুভব করি, তবে তিনি তার লেখা উপন্যাস, নাটক ও কর্মের মাধ্যমে এদেশের মানুষের মনে বেঁচে থাকবেন।

এছাড়া লেখকের মৃত্যুবার্ষিক উপলক্ষে তার স্ত্রী মেহের আফরোজ শাওন সিঙ্গাপুর থেকে আনা মেটালের তৈরি ‘উপুড় হয়ে শুয়ে বই পাঠরত এক নারীর মূর্তি’ নুহাশ পল্লীতে স্থাপন করবেন বলে কথা রয়েছে।

এ উপলক্ষে শাওন দুই ছেলে নিশাদ ও নিনিদসহ সোমবার রাতেই নুহাশপল্লীতে এসে অবস্থান করছেন।

হুমায়ূন আহমেদ ক্যান্সারে আক্রান্ত হয়ে ২০১২ সালের ১৯ জুলাই যুক্তরাষ্ট্রেরর একটি হাসপাতালে চিকিৎসাধীন অবস্থায় মারা যান। ২৪ জুলাই তার লাশ নিজের গড়া নুহাশ পল্লীর লিচুতলায় দাফন করা হয়। জনপ্রিয় এই লেখক ১৯৪৮ সালের ১৩ নভেম্বর নেত্রকোণার কুতুবপুর গ্রামে জম্মগ্রহণ করেন।

আপনার জেলার সর্বশেষ সংবাদ জানুন