🕓 সংবাদ শিরোনাম

আমাদের যা আছে, তা দিয়েই সামনে এগিয়ে যাব: প্রধানমন্ত্রীএসএসসিতে জিপিএ-৫ পেয়েও অর্থের অভাবে উচ্চ শিক্ষা অনিশ্চিত শুভ’রমহামারি এখনই শেষ হচ্ছে না, সৃষ্টি হতে পারে নতুন ভ্যারিয়েন্ট: টেড্রোসখাগড়াছড়িতে সড়ক দুর্ঘটনায় নিহত ২নৌকা থেকে লাফিয়ে পালালো পাচারকারী, বিপুল আইস-ইয়াবা উদ্ধারশাবি উপাচার্যের বিরুদ্ধে যত অভিযোগ শিক্ষার্থীদেরমালয়েশিয়ায় প্রতারণার অভিযোগে নাবিস্কো ভাইয়া গ্রুপের বিরুদ্ধে সংবাদ সম্মেলনবিএনপি বহিষ্কার করলেও অন্য দলে যোগ দেব না: তৈমূরগ্লাস সুমনের মাদক কারবারের প্রধান সহযোগী গ্রেফতারমনোহরদীর দরগাহ মেলা শুরু, নজর কাড়ছে বড় মাছের বাজার

  • আজ বুধবার, ৫ মাঘ, ১৪২৮ ৷ ১৯ জানুয়ারি, ২০২২ ৷

গ্যাসের দাম বৃদ্ধি: আবাসিকে গ্যাসের দাম বাড়ানোর প্রস্তাব


❏ সোমবার, আগস্ট ৮, ২০১৬ Breaking News, অর্থনীতি, জাতীয়

সময়ের কণ্ঠস্বর – মিটারযুক্ত আবাসিক গ্রাহকদের গ্যাসের দাম ১৪০ শতাংশ বাড়ানোর প্রস্তাব করেছে তিতাস গ্যাস ট্রান্সমিশন অ্যান্ড ডিস্ট্রিবিউশন কোম্পানি লিমিটেড।

সোমবার বাংলাদেশ এনার্জি রেগুলেটরি কমিশনে গ্যাসের দাম বৃদ্ধির গণশুনানির দ্বিতীয় দিনে এ প্রস্তাব করে এ গ্যাস বিতরণ কোম্পানি।

কোম্পানিটি আবাসিক খাতে প্রতি ঘনমিটার গ্যাসের মূল্য ৭ টাকা থেকে বৃদ্ধি করে ১৬ দশমিক ৮০ টাকা করার প্রস্তাব দিয়েছে।

গ্যাস বিতরণ কোম্পানিটি আবাসিকে একচুলার মাসিক বিল ৬’শ টাকা থেকে ৮৩ শতাংশ বাড়িয়ে ১১’শ টাকা, দুই চুলা ৬৫০ টাকা থেকে বাড়িয়ে ১২’শ টাকা করার প্রস্তাব করেছে।

এছাড়া মিটারযুক্ত আবাসিকের পরেই রয়েছে ক্যাপটিভ পাওয়ার (শিল্প কারখানায় স্থাপিত বিদ্যুৎ উৎপাদন জেনারেটর)। এই খাতে ১৩০ শতাংশ দাম বৃদ্ধির প্রস্তাব করেছে তিতাস গ্যাস। বর্তমানে প্রতি ঘনমিটার গ্যাসের দাম রয়েছে ৮ দশমিক ৩৬ টাকা। দাম বৃদ্ধি করে সেটিকে ১৯ দশমিক ২৬ টাকা করার প্রস্তাব করা হয়েছে।

gas prizeএছাড়া বিদ্যুতে ৬৩ শতাংশ, সার উৎপাদনে ৭১ শতাংশ, শিল্প কারখানার জন্য ৬২ শতাংশ এবং বাণিজ্যিক প্রতিষ্ঠানে ৭২ শতাংশ দাম বৃদ্ধির প্রস্তাব দিয়েছে তিতাস গ্যাস।

রোববার গ্যাস ট্রান্সমিশন কোম্পানি লিমিটেডের (জিটিসিএল) গ্যাসের সঞ্চালন ট্যারিফ বাড়ানোর প্রস্তাবের মধ্য দিয়ে শুরু হয়েছে এ গণশুনানি। সোমবার দ্বিতীয় দিনে তিতাস গ্যাস ট্রান্সমিশন অ্যান্ড ডিস্ট্রিবিউশন কোম্পানি লিমিটেডের গণশুনানি চলছে। ১০ আগস্ট পশ্চিমাঞ্চল গ্যাস কোম্পানি, ১১ আগস্ট বাখরাবাদ গাস কোম্পানি, ১৪ আগস্ট কর্ণফুলী গ্যাস ডিস্ট্রিবিউশন কোম্পানি, ১৬ আগস্ট জালালাবাদ গ্যাস ডিস্ট্রিবিউশন কোম্পানি ও ১৭ আগস্ট সুন্দরবন গ্যাস কোম্পানির গ্রাহক পর্যায়ে দাম বৃদ্ধির প্রস্তাবের ওপর শুনানি গ্রহণ করা হবে।

১৮ আগস্ট পেট্রোবাংলা, বাংলাদেশ গ্যাস ফিল্ডস, সিলেট গ্যাস ফিল্ডস ও বাপেক্সের সরবরাহ করা গ্যাসের পাইকারী মূল্য বাড়ানোর বিষয়ে গণশুনানি হবে।

গণশুনানিতে অংশ নিয়ে মতামত দেওয়ার সুযোগ রয়েছে ভোক্তাদের।

জানা গেছে, গ্যাসের আপস্ট্রিম খরচ, সঞ্চালন ভাড়া এবং ভোক্তাপর্যায়ে গ্যাসের দাম বাড়ানোর প্রস্তাব দিয়ে গত ২৯ মার্চ থেকে ৩ এপ্রিল সময়ের মধ্যে আবেদন করে ছয়টি গ্যাস বিতরণ কোম্পানি। একই সময়ে ৩০ মার্চ গ্যাসের ট্রান্সমিশন চার্জ পুননির্ধারণের জন্যও আবেদন করে জিটিসিএল। প্রস্তাব যাছাই বাছাই শেষে গত ১৩ জুলাই এই বিষয়ে গণশুনানির দিন ধার্য করে কমিশন।

গণশুনানি শেষে আগামী ৯০ দিনের মধ্যে গ্যাসের মূল্যহার বিষয়ে কমিশন ঘোষণা দেবে বলে জানিয়েছেন বিইআরসির পরিচালক (গ্যাস) এ কে এম মনোয়ার হোসেন আখন্দ।

প্রসঙ্গত, গত বছরের ১ সেপ্টেম্বর গ্যাসের দাম গড়ে ২৬ শতাংশ বাড়ানো হয়। বিইআরসি আইন-২০০৩ অনুযায়ী এক বছরের মধ্যে দুই বার দাম বাড়ানোর বিধান না থাকলেও ৮ মাসের মাথায় আবারও দাম বাড়ানোর প্রস্তাব করে কোম্পানিগুলো।