খালেদার সঙ্গে ভারতীয় হাইকমিশনারের বৈঠক


❏ মঙ্গলবার, আগস্ট ৯, ২০১৬ জাতীয়

নিজস্ব প্রতিবেদক: বিএনপি চেয়ারপারসন বেগম খালেদা জিয়ার সঙ্গে বৈঠক করেছেন ভারতীয় হাইকমিশনার হর্ষবর্ধন শ্রিংলা। মঙ্গলবার রাত ৮টা ১০ মিনিটে গুলশানে চেয়ারপারসনের রাজনৈতিক কার্যালয়ে বৈঠকটি শুরু হয়ে ৯টা ৩৫ মিনিটে শেষ হয়। ঢাকায় নিযুক্ত হওয়ার প্রায় সাত মাস পর বিএনপি নেত্রীর সঙ্গে বৈঠক করলেন শ্রিংলা।

হর্ষ বর্ধন বিএনপি চেয়ারপাসনকে বলেন, ভারত সবসময় বাংলাদেশের সহযোগী। তিনি এর অর্থনৈতিক উন্নয়ন, সার্বভৌমত্বের উপর নির্ভরশীল রাষ্ট্রীয় ও পরিপক্ব প্রগতি, সমতা, বন্ধুত্ব, বিশ্বাসসহ দুই দেশের জনগণের সুবিধাকল্পে পারস্পরিক বোঝাপড়ায় এবং যৌথ উন্নয়নের জন্য অঙ্গীকার ব্যক্ত করেন।

এরই প্রেক্ষাপটে, হাইকমিশনার জনগণকে সঙ্গে নিয়ে দ্বিপক্ষীয় বাণিজ্যিক ও অর্থনৈতিক সম্পর্ক সহজতর এবং অবকাঠামোগত সংযোগ উন্নয়নের উপর গুরুত্ব আরোপ করেন।

khaleda-indiaবৈঠক শেষে সাবিহ উদ্দিন আহমেদ বলেন, ভারতের হাইকমিশন নানা কাজে ব্যস্ত ছিলেন, তাই এতদিন আসতে পারেননি। আজকে এসেছেন। এটা সৌজন্য সাক্ষাৎ ছিল।

বৈঠকে কি বিষয়ে আলোচনা হয়েছে জানতে চাইলে তিনি বলেন, দুই দেশের স্বার্থ সংশ্লিষ্ট বিষয় নিয়ে আলোচনা হয়েছে। হর্ষবর্ধন শ্রিংলা এর আগেও বেশ কয়েকবার খালেদা জিয়ার সঙ্গে বৈঠক করেছেন, তবে হাইকমিশনার হিসেবে এটাই তার প্রথম সাক্ষাৎ।

চলতি বছরের জানুয়ারি মাসে ঢাকায় নিযুক্ত হয়েছিলেন হর্ষবর্ধন। তিনি বিদায়ী হাইকমিশনার পঙ্কজ শরণের স্থলাভিষিক্ত হন। এর আগে ব্যাংককে ভারতের রাষ্ট্রদূত হিসেবে কর্মরত ছিলেন।

বৈঠকে বিএনপি মহাসচিব মির্জা ফখরুল ইসলাম আলমগীর, স্থায়ী কমিটির সদস্য আমীর খসরু মাহমুদ চৌধুরী ও উপচেষ্টা সাবিহ উদ্দিন আহমেদ উপস্থিত ছিলেন। ভারতীয় হাইকমিশনের মধ্যে ডেপুটি হাইকমিশনার ড. আদর্শ সোয়াইকা, ফাস্ট সেক্রেটারি রাজেশ উরকি, দ্বিতীয় সচিব মিস মনশ্রী বৈঠকে অংশ নেন বলে সংশ্লিষ্ট সূত্রে জানা গেছে।