• আজ শুক্রবার, ২৪ অগ্রহায়ণ, ১৪২৯ ৷ ৯ ডিসেম্বর, ২০২২ ৷

বিদ্যালয়ের শিক্ষক ও প্রধান শিক্ষকসহ সংশ্লিষ্ট ব্যাক্তিদের বিরুদ্ধে বিভিন্ন অভিযোগ


❏ বৃহস্পতিবার, আগস্ট ১১, ২০১৬ ঢাকা, দেশের খবর

রেজাউল সরকার (আঁধার), গাজীপুর প্রতিনিধি: জেলা শহরে রানী বিলাসমণি সরকারি বালক উচ্চবিদ্যালয় ও জয়দেবপুর সরকারি বালিকা উচ্চবিদ্যালয়ের প্রধান শিক্ষকসহ সংশ্লিষ্ট ব্যক্তিদের বিরুদ্ধে বিভিন্ন অভিযোগ উঠেছে। গত সোমবার জেলার উন্নয়ন সমন্বয় সভায় উপস্থিত কমিটির সদস্যরা এসব অভিযোগ করেন।

school

খোঁজ নিয়ে জানা গেছে, শহরের প্রাণকেন্দ্রে সরকারি এ দুটি শিক্ষা প্রতিষ্ঠান অবস্থিত। জেলার সবচেয়ে মেধাবী শিক্ষার্থীরা এ স্কুল দুটিতে লেখাপড়া করে। অভিভাবকেরা অভিযোগ করেন, রানী বিলাসমণি সরকারি বালক উচ্চবিদ্যালয়ের প্রধান শিক্ষক মাসুদা খানম ঢাকায় বসবাস করেন। তিনি নিয়মিত সঠিক সময়ে বিদ্যালয়ে উপস্থিত হন না। তাঁর দক্ষ তদারকির অভাবে শিক্ষা প্রতিষ্ঠানটি অতীতের সুনাম ধরে রাখতে পারছে না।

বিদ্যালয়ের শিক্ষকেরাও নিয়মিত ক্লাস নেন না। এসব অভিযোগের পরিপ্রেক্ষিতে সোমবার জেলা উন্নয়ন সমন্বয় সভা থেকে একজন অতিরিক্ত জেলা প্রশাসক রানী বিলাসমণি সরকারি বালক উচ্চবিদ্যালয়ে যান। সেখান থেকে ফিরে তিনি সভায় অবহিত করেন। বেলা সাড়ে ১১টায় তিনি স্কুলে গিয়ে দেখতে পান স্কুলের প্রধান শিক্ষক তখনো এসে পৌঁছাননি। আর সাতটি ক্লাসের মধ্যে মাত্র একটি ক্লাস চলছে। অন্য ছয়টি ক্লাসে কোনো শিক্ষক নেই। আবার ক্লাসের মধ্যেই শিক্ষার্থীদের কাছ থেকে একজন শিক্ষক মাসিক বেতন আদায় করছেন।

এ ব্যাপারে জয়দেবপুর সরকারি বালিকা উচ্চবিদ্যালয়ের প্রধান শিক্ষক হাবিবুর রহমান সাংবাদিকদের বলেন, তাঁর স্কুলে নিয়মিত ক্লাস নেওয়া হয়। শিক্ষার্থীদের ব্যবহারের জন্য টয়লেটগুলো সব সময় পরিষ্কার-পরিচ্ছন্ন রাখার চেষ্টা করা হয়।

রানী বিলাসমণি সরকারি বালক উচ্চবিদ্যালয়ের প্রধান শিক্ষক মাসুদা খানম বলেন, ‘ওই দিন ছুটিতে থাকার কারণে বিষয়টি আমার জানা ছিল না।’