🕓 সংবাদ শিরোনাম

দু’সপ্তাহের মধ্যেই শিশুদের কোভিড টিকাকরণ, সিদ্ধান্ত ইউরোপীয় ইউনিয়নেবাড়িতে লুকিয়ে রাখা ৪৭ ভরি স্বর্ণসহ তিন রোহিঙ্গা নারী-পুরুষ আটকফিরে দেখা; ইতিহাসে আজকে এই দিনের উল্লেখযোগ্য ঘটনা প্রবাহশীতে অপরূপ লাল শাপলার ডিবির হাওরময়মনসিংহ শহরের ভেতরেই রেলক্রসিং: প্রতিদিন ৮ ঘন্টা যানজটবিজয়ের ৫০ বছরে ওয়ালটন ল্যাপটপ ও এক্সেসরিজে ৫০% পর্যন্ত ছাড়মাইকিং করে ২গরু জবাই করল পরাজিত প্রার্থী, দাওয়াতে এলো না কেউ!সুনামগঞ্জে আফ্রিকা ফেরত প্রবাসীর বাড়িতে লাল পতাকাতদন্ত কর্মকর্তাসহ ৬৫ জনের সাক্ষ্য-জেরায় সাক্ষ্যপর্ব সমাপ্তবিকৃতমনা মাদ্রাসা শিক্ষকের লালসার শিকার অসহায় এক কিশোরের জবানবন্দী!

  • আজ বৃহস্পতিবার, ১৭ অগ্রহায়ণ, ১৪২৮ ৷ ২ ডিসেম্বর, ২০২১ ৷

লাদেন হত্যা নিয়ে বই লিখে ৫৫ কোটি টাকা জরিমানা


❏ রবিবার, আগস্ট ২১, ২০১৬ আন্তর্জাতিক, স্পট লাইট

আন্তর্জাতিক ডেস্ক- ওসামা বিন লাদেন হত্যার অভিযানে অংশ নেওয়ার কাহিনী বর্ণনা করে বই লিখে রীতিমতো হৈচে ফেলে দিয়েছিলেন মার্কিন নেভি সিল সদস্য সাবেক কর্মকর্তা ম্যাট বিসোনেট। ২০১২ সালে প্রকাশ হওয়া বইটি ছিল সে বছরের সর্বাধিক বিক্রীত (বেস্ট সেলার)। অবশ্য বইটি নিজের নামে নয়, মার্ক ওয়েন ছদ্মনামে লিখেছিলেন তিনি।photo-1471757012তবে এবার সেই বইয়ের জন্যই জরিমানা গুনতে হবে ম্যাটকে। কেননা, চুক্তি লঙ্ঘন করে প্রকাশ করা যাবে না—এমন সব তথ্য প্রকাশ করেছিলেন তিনি। তা ছাড়া ‘নো ইজি ডে’ শিরোনামে লেখা বইয়ের জন্য পেন্টাগনের ছাড়পত্র বা অনুমতিও নেননি ম্যাট। আর এসব অভিযোগে মার্কিন সরকার সাত মিলিয়ন ডলার বা প্রায় ৫৫ কোটি টাকা জরিমানা করেছে তাঁকে।

জরিমানা হিসেবে এখন থেকে বই বিক্রির লাভ এবং রয়্যালটির সব অর্থ রাষ্ট্রীয় কোষাগারে জমা দেবেন ম্যাট। ছেড়ে দেবেন বইটি থেকে চলচ্চিত্র তৈরির অধিকারও। আর এর বদলে ম্যাটের ওপর থেকে বিভিন্ন ধরনের অভিযোগ তুলে নেবে দেশটির সরকার।

বার্তা সংস্থা এপি জানিয়েছে, আগামী চার বছর টানা রাষ্ট্রীয় কোষাগারে জরিমানার অর্থ জমা দিতে হবে ম্যাটকে।

২০১১ সালে মার্কিন নেভি সিল টিমের এক অভিযানে পাকিস্তানের অ্যাবোটাবাদে নিহত হন আল-কায়েদা নেতা ওসামা বিন লাদেন। পরে তাঁকে সাগরেই সমাহিত করা হয়।

নিয়ম অনুযায়ী এ ধরনের গোপন অভিযানে অংশ নেওয়া কমান্ডোদের প্রতি নির্দেশ থাকে, তাঁরা যেন অভিযানের কোনো তথ্য জনসমক্ষে প্রকাশ না করেন। তার পরও পেন্টাগনের অনুমতি না নিয়ে বই প্রকাশ করে অভিযানের ঘটনা বর্ণনা করায় ম্যাটের বিরুদ্ধে মামলা করে মার্কিন সরকার। তাঁর বিরুদ্ধে গোপন চুক্তি ভঙ্গের অভিযোগ আনা হয়।