• আজ মঙ্গলবার, ৪ মাঘ, ১৪২৮ ৷ ১৮ জানুয়ারি, ২০২২ ৷

ডিমলায় শিশুকে জবাই করে হত্যা ও তিস্তা নদী থেকে কৃষকের লাশ উদ্ধার


❏ বৃহস্পতিবার, আগস্ট ২৫, ২০১৬ দেশের খবর, রংপুর

মাজহারুল ইসলাম লিটন, ডিমলা প্রতিনিধি: নীলফামারীর ডিমলায় ৪ বছরের শিশুকে জবাই করে হত্যা ও তিস্তা নদী থেকে কৃষকের লাশ উদ্বার করেছে পুলিশ। উপজেলার বালাপাড়া ইউনিয়নের দক্ষিন বালাপাড়া গ্রামের গুচ্ছগ্রাম সংলগ্ন বাঁশঝাড় সংলগ্ন গর্ত থেকে ৪ বছরের শিশু শুকুমনির গলাকাটা লাশ উদ্বার করা হয়েছে। শুকুমনি দক্ষিন বালাপাড়া গ্রামের এনছান আলীর কন্যা। অপরদিকে আজ বৃহস্পতিবার সকালে তিস্তা নদী থেকে তিস্তার মাছ ধরতে যাওয়া কৃষক তসলিম উদ্দিন (৫০) এর লাশ উদ্বার করা হয়। সে গয়াবাড়ী ইউনিয়নের পশ্চিম খড়িবাড়ী গ্রামের মৃত মনির উদ্দিনের পুত্র।

las

পুলিশ জানায়, দক্ষিন বালাপাড়া গ্রামের এনছান আলীর কন্যা শুকুমনি বুধবার সকালে গুচ্ছগ্রাম সংলগ্ন খেলার মাঠে খেলতে যায়। দুপুুর পযন্ত বাড়ীতে না ফেরায় ১টার দিকে মসজিদের মাইক দিয়ে প্রচার করা হয় শুকুমনিকে পাওয়া যাচ্ছে না। দিনভর অনেক খোঁজাখুঁজির পর রাত সাড়ে ১০টার দিকে মাঠের অদুরে বাঁশ ঝাড় সংলগ্ন গর্ত থেকে গলাকাটা লাশ এলাকাবাসী দেখতে পেয়ে তার পরিবারকে সংবাদ দিলে। শিশুটির মা মতিজন লাশ সনাক্ত করেন। রাতে পুলিশ লাশ উদ্বার করে আজ বৃহস্পতিবার সকালে ময়না তদন্তের জন্য জেলার মর্গে প্রেরন করেন। ডিমলা থানার  জিডি নং-১২০০ মুলে লাশের ময়না তদন্ত করা হচ্ছে মর্মে ডিমলা থানার ওসি মোয়াজ্জেম হোসেন নিশ্চিত করেন।

অপরদিকে বুধবার দুপুরে পশ্চিম খড়িবাড়ী গ্রামের মনির উদ্দিনের পুত্র তসলিম উদ্দিন তিস্তার ধারে ঘাস কাটার জন্য বস্তা ও কাচি নিয়ে বের হয়। যাওয়ার সময় বলেন নদীতে মাছ ধরে বাড়ীতে ফিরবেন। কিন্তু রাত পয্ন্ত বাড়ীতে না ফেরায়। পরিবারের লোকজন সকালে খোঁজাখুঁজির জন্য বের হলে তিস্তার পাড়ে লাশ দেখতে পায়। পুলিশ ঘটনাস্থলে পরিদর্শন করেছে। উক্ত কৃষককে হত্যা করা হয়েছে নাকি নদীতে ডুবে মারা গেছে পুলিশ নিশ্চিত করতে পারেনি। এ রিপোর্ট লেখা পর্যন্ত মামলা হয়নি।