সংবাদ শিরোনাম
  • আজ ২৫শে বৈশাখ, ১৪২৮ বঙ্গাব্দ

এবারের বিপিএলে আইকন খেলোয়াড়রা কে কোন দলের হয়ে খেলছে !

❏ মঙ্গলবার, সেপ্টেম্বর ২৭, ২০১৬ খেলা, স্পট লাইট

স্পোর্টস আপডেট ডেস্ক – ৩০ সেপ্টেম্বর বিপিএলের প্লেয়ারস ড্রাফট। তবে খেলোয়াড় দলে ডাকার এই পর্বের আগেই ঠিক হয়ে গেছে ‘আইকন’রা কে কোন দলে খেলবেন। আগামী ৪ নভেম্বর থেকে শুরু হওয়ার কথা বিপিএলের চতুর্থ আসর।

এবারের বিপিএলে ‘আইকন’ না রাখার চিন্তাভাবনা হয়েছিল প্রথমে। এর বদলে শীর্ষ খেলোয়াড়দের ‘এ প্লাস’ শ্রেণিতে রাখার চিন্তা ছিল। পরে বদলে যায় সে চিন্তা। ২২ সেপ্টেম্বরের টেকনিক্যাল কমিটির সভায় আইকন শ্রেণি রেখেই খেলোয়াড় তালিকা দেওয়ার সিদ্ধান্ত হয়েছে। তবে আইকনদের প্লেয়ারস ড্রাফটে তোলা হবে না। পছন্দমতো দল বেছে নেওয়ার সুযোগও দেওয়া হয়েছে তাঁদের।

আইকন, এ, বি, সি ও ডি—এই পাঁচ শ্রেণিতে মোট ১৩৩ ক্রিকেটারকে নিয়ে আসন্ন বিপিএলের খেলোয়াড় তালিকা চূড়ান্ত হয়েছে টেকনিক্যাল কমিটির ওই সভায়। আইকন শ্রেণির সাত ক্রিকেটারের সবার মূল্য সমান নয়। অনুমিতভাবেই সাকিব আল হাসান সবচেয়ে ‘দামি’ (৫৫ লাখ টাকা)।

সাকিবকে এরই মধ্যে নিশ্চিত করে ফেলেছে ঢাকা ডাইনামাইটস। বর্তমান চ্যাম্পিয়ন কুমিল্লা ভিক্টোরিয়ানসেই থেকে যাচ্ছেন মাশরাফি। তামিমও খেলবেন গতবারের দল চিটাগং ভাইকিংসে। মুশফিকুর রহিম বরিশাল বুলসে, মাহমুদউল্লাহ খুলনা টাইটানসে। বাকি দুই আইকন সাব্বির ও সৌম্য খেলবেন রাজশাহী ও রংপুর রাইডার্সে। কয়েকটি ফ্র্যাঞ্চাইজির অবশ্য অভিযোগ, সাকিবকে নির্ধারিত মূল্যের প্রায় দ্বিগুণ টাকা দিচ্ছে ঢাকা। সঙ্গে নাকি দিচ্ছে একটি গাড়িও। ঢাকা ডাইনামাইটস সাকিবকে নিশ্চিত করার পরই আইকনদের উন্মুক্ত করে দেওয়া হয়েছে বলেও দাবি তাদের।

bpl-icon-criceter

প্রথম বিপিএলের নিলামে বাংলাদেশের খেলোয়াড়দের মধ্যে সবচেয়ে বেশি, ২ লাখ ডলার দাম উঠেছিল নাসির হোসেনের। তবে সাম্প্রতিক ফর্ম ‘আইকন’ শ্রেণি থেকে ছিটকে দিয়েছে তাঁকে। তিনি আছেন ২৫ লাখ টাকার ‘এ’ শ্রেণিতে। নাসিরসহ এই দলে আছেন ১১ জন। এ ছাড়া ১৮ লাখ টাকার ‘বি’ শ্রেণিতে আছেন ৩৫ ক্রিকেটার, ১২ লাখ টাকার ‘সি’ শ্রেণিতে ৫৩ জন ও ৫ লাখ টাকার ‘ডি’ শ্রেণিতে ২৭ জন।

আইকন ছাড়া বাকি সব শ্রেণির খেলোয়াড়কে নিতে হবে প্লেয়ারস ড্রাফট থেকে। গতবারের দল থেকে দুজন করে স্থানীয় ক্রিকেটার ধরে রাখার সুযোগ থাকছে পুরোনো ফ্র্যাঞ্চাইজিগুলোর। তাদের নাম জমা দেওয়ার শেষ দিন আজ। খুলনা ও রাজশাহীর ফ্র্যাঞ্চাইজি নতুন বলে স্বাভাবিকভাবেই এ সুযোগ থাকছে না তাদের। প্লেয়ারস ড্রাফটে তাই প্রথম দুটি ‘কল’ করার সুযোগ পাবে দল দুটি।

প্লেয়ারস ড্রাফটের বাইরে বিদেশি খেলোয়াড় সংগ্রহের সুযোগ উন্মুক্ত সব ফ্র্যাঞ্চাইজির জন্যই। এর মধ্যেই অনেক ফ্র্যাঞ্চাইজি পছন্দের বিদেশি খেলোয়াড়দের সঙ্গে কথাবার্তা চূড়ান্ত করে ফেলেছে। অনেকের নাম বিপিএল টেকনিক্যাল কমিটির কাছে জমাও দিয়েছে ফ্র্যাঞ্চাইজিগুলো। এই খেলোয়াড়দের বাদ দিয়ে দু-এক দিনের মধ্যে প্লেয়ারস ড্রাফটের বিদেশি খেলোয়াড়ের তালিকা ঘোষণা করা হবে।

বিদেশি খেলোয়াড় সংগ্রহে অন্যদের তুলনায় অনেকটাই এগিয়ে ঢাকা ডাইনামাইটস। সূত্র জানিয়েছে, ডোয়াইন ব্রাভো, কুমার সাঙ্গাকারা, মাহেলা জয়াবর্ধনে, আন্দ্রে রাসেল, রবি বোপারাসহ আট-নয়জন ক্রিকেটারকে এরই মধ্যে নিশ্চিত করে ফেলে ফেলেছে তারা। চিটাগং ভাইকিংসের হয়ে তিন-চারটি ম্যাচ খেলতে আসতে পারেন ক্রিস গেইল। আন্দ্রে রাসেলকে হারালেও গতবারের স্যামুয়েলস, জাইদি ও কুলাসেকারাকে ধরে রাখছে কুমিল্লা ভিক্টোরিয়ানস। এ ছাড়া শহীদ আফ্রিদির রংপুর রাইডার্সে ও ড্যারেন স্যামির রাজশাহীতে খেলাও প্রায় নিশ্চিত। নতুন মালিকানায় যাওয়ার পর কাল পর্যন্ত চূড়ান্ত হয়নি রাজশাহী ফ্র্যাঞ্চাইজির নাম।