সাভারে সাইনবোর্ড লাগাতে গিয়ে বিদ্যুৎস্পৃষ্ট হয়ে ৩ দিন মজুরের মৃত্যু

⏱ | মঙ্গলবার, সেপ্টেম্বর ২৭, ২০১৬ 📁 ঢাকা, দেশের খবর

rg


নিজস্ব প্রতিবেদক,সাভারঃ

সাভারে একটি ডেন্টাল সার্জারী মালিকের খামখেয়ালীপনায় বিদ্যুৎস্পৃষ্ট হয়ে তিন দিন মজুরের মর্মান্তিক মৃত্যু হয়েছে। এই ঘটনায় আহত হয়েছে আরও দুই দিন মজুর। ঘটনার পর থেকে ওই ডেন্টাল সর্জারীর মালিক পলাতক রয়েছে। মঙ্গলবার সকালে সাভারের আমিনবাজার এলাকার আব্দুল আলী মার্কেটের তৃতীয় তলায় থাকা রশিদ ডেন্টাল সার্জারীর সাইনবোর্ড লাগাতে গিয়ে এই ঘটনা ঘটে।

আহত দিন মজুর সজিব জানায়, সকালে ওই ডেন্টাল সার্জারীর মালিক তাদের একটি সাইনবোর্ড লাগানোর কথা বলে কাজে নিয়ে আসে। পরে তারা মার্কেটের নিচ তলা থেকে বিশাল আকৃতির একটি সাইনবোর্ড জিআই তার ও পাটের রশি দিয়ে তৃতীয় তলায় ওঠানোর চেষ্টা চালায়। এক পর্যায়ে সাইনবোর্ডটি উপরে ওঠানোর কাজে ব্যবহৃত জিআই তারটি পল্লিবিদ্যুতের সঞ্চালন তারের সাথে লেগে সাইনবোর্ডটি ও জিআই তারটি বিদ্যুতায়িত হয়ে ঘটনাস্থলেই সাইদুর (৩০), শাহা-আলম (২৫) ও গেদু (২৮) নামের তিন জনের মৃত্যু হয়। আর গুরুত্বর আহত হয় আরও দুই জন। পরে স্থানীয়রা আহতদের উদ্ধার করে স্থানীয় একটি ক্লিনিকে পাঠিয়ে চিকিৎসা সেবা দেয়। এদিকে, ঘটনার পর থেকে ওই ডেন্টাল সার্জারীর মালিক মামুনুর রশিদ পালিয়ে যায়।

এ বিষয়ে পল্লিবিদ্যুৎ ৩ আমিন বাজার জোনাল অফিসের জেনারেল ম্যানেজার সৈয়দ ওয়াহিদুল ইসলাম জানান, ওই ডেন্টাল সার্জারীর মালিকের গাফতলীতেই এই দূর্ঘটনা ঘটে। কারন হিসেবে তিনি উল্লেখ করেন, প্রায় ৭ ফিট আকৃতির এত বড় বিশাল সাইনবোর্ডটি জিআই তারের সাহায্যে উপরের ওঠানোর সময় জিআই তারের উপরে অতিরিক্ত চাপ সৃষ্টি হয়। এবং সাইনবোর্ডটি উপরের দিকে ওঠানোর সময় ওই ডেন্টাল ক্লিনিকের বিদ্যুতের মিটারের সঞ্চালন তারের সাথে লেগে লিকেজ হয়েই জিআই তারটি বিদ্যুতায়িত হয়ে পড়ে। যার ফলেই এই ঘটনাটি ঘটে। এতে পল্লিবিদ্যুৎ কর্তৃপক্ষের কোন গাফলতি নেই বলেও জোড় দাবি করেন তিনি।

ঢাকা জেলার ভারপ্রাপ্ত অতিরিক্ত পুলিশ সুপার মোহাম্মদ মনিরুল ইসলাম মনির জানান, মরদেহ তিনটি উদ্ধার করে ময়না তদন্তের জন্য ঢাকা মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে পাঠানো হয়েছে। এ ছাড়া এই ঘটনার সুষ্ঠ তদন্ত শেষে যাবতীয় আইনি প্রক্রিয়া সম্পন্ন করা হবে।