🕓 সংবাদ শিরোনাম
  • আজ রবিবার, ২০ অগ্রহায়ণ, ১৪২৮ ৷ ৫ ডিসেম্বর, ২০২১ ৷

চরফ্যাশনে অধ্যক্ষ’র বেত্রাঘাতে ৮ম শ্রেণি’র ছাত্রী হাসপাতালে


❏ মঙ্গলবার, সেপ্টেম্বর ২৭, ২০১৬ দেশের খবর, বরিশাল

এস আই মুকুল, ভোলা প্রতিনিধি-  অন্য ছাত্রীর মন রক্ষা করতে প্রেম করার অজুহাতে অধ্যক্ষ আবুল কাশেমের বেত্রাঘাতে ৮ম শ্রেণীর ছাত্রী ফারজানা চরফ্যাশন হাসপাতালে কাতরাচ্ছে। সোমবার মাওলানা আবুল কাশেম চরফ্যাশন মিয়াজানপুর সিনিয়র ফাজিল ডিগ্রি মাদ্রাসার অধ্যক্ষ মাদ্রাসায় জনসম্মেেুখ লাইব্রেরিতে ফারজানাকে ডেকে এনে এ ঘটনাটি ঘটিয়েছে বলে পরিবারের পক্ষ থেকে দাবী করেন। বিষয়টি নিয়ে এলাকায় তোলপাড় সৃষ্ঠি হয়েছে।

unnamedস্থানীয় সুত্রে জানা গেছে, একই শ্রেণীর জাকিয়ার পিতা ও ভাইদের মন রক্ষা করতে অধ্যক্ষ তাদের সম্মুখে এভাবে ফারজানাকে বেত্রাঘাত করে আহত করছে বলে দাবী তার পরিবারের। ওই অধ্যক্ষের বিচারের দাবী জানিয়ে উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তার বরাবর অভিযোগ করছেন বলে আহত ফারজানার বড় বোন তানিয়া জানিয়েছেন।

আহত ফারজানার পিতা ছাদেক ফরাজী বলেন, আমার মেয়েকে এভাবে মারধর করছে এর বিচার চাই। এদিকে তার মা ’মেয়ে’র আঘাতে কান্নায় ভেঙ্গে পরেন।

অধ্যক্ষ আবুল কাশেম ফারজানার আঘাতের কথা স্বীকার করে বলেন, নিয়ম-কানুন জানি তবুও বেত মাদ্রাসায় রাখতে হয়। প্রেমের গুনজনে অন্য শিক্ষককে দিয়ে না পিঠিয়ে আমি নিজ হাতে কয়েকটি বেত্রাঘাত করেছি। আমি ফারজানার চিকিৎসার জন্য রাতে টাকাসহ আমার শিক্ষক পাঠিয়ে হাসপাতালে ভর্তি করে চিকিৎসা চালাচ্ছি। মঙ্গলবার সকালেও তাদের তত্ত্বাবধানের জন্য শিক্ষকদেরকে হাসপাতালেও পাঠিয়েছি। অধ্যক্ষ আবুল কাশেম উক্ত ঘটনাকে ধামা-চাপা দেওয়ার জন্য চেষ্টা করছে।

এ ব্যাপারে উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা মনোয়ার হোসেন বলেন, মাধ্যমিক শিক্ষা অফিসারের মাধ্যমে অভিযোগ আসলে ব্যবস্থা নেওয়া হবে। এই রির্পোট লেখা পর্যন্ত থানায় কোন অভিযোগ দায়ের করেনি।