• আজ শুক্রবার। গ্রীষ্মকাল, ১০ই বৈশাখ, ১৪২৮ বঙ্গাব্দ। ২৩শে এপ্রিল, ২০২১ খ্রিস্টাব্দ। বিকাল ৩:১৫মিঃ

‘স্কুলজীবনে যে মহিলাকে দেখে মন আনচান করত, এখন তারই প্রেমিক হয়েছি’

⏱ | বুধবার, অক্টোবর ২৬, ২০১৬ 📁 বিনোদন

বিনোদন ডেস্ক- ঋষি-নিতু-র ছেলে ছোট থেকেই দুরন্ত দেখতে। সেই সঙ্গে তাঁর স্মার্ট এবং পুরুষালি হাবভাব মহিলা মহলে যথেষ্টই জনপ্রিয় করেছিল রণবীরকে। তিনি নিজেও মহিলাদের পছন্দের এই ফায়দা তুলতে পছন্দ করতেন। একটা সময় রণবীর স্বীকার করেছিলেম মাত্র ১৪ বছর বয়সে তাঁর ‘ভার্জিনিটি’ নষ্ট হয়েছিল। সুন্দরী মেয়ে দেখলে তাঁদের সঙ্গে যেচে আলাপ করা বা ইমপ্রেস করাটাই ছোটবেলা থেকেই পছন্দ করতেন রণবীর কপূর।

181823-ranbir-kapoor-650বলিউডের বিখ্যাত কাপূর পরিবারে পার্টি, নায়ক-নায়িকাদের আনাগোনা খুব একটা অপরিচিত ছিল না রণবীরের কাছে। ‘আ আব লট চলে’-র শ্যুটিং তখন চলছে। কাপূর পরিবারের প্রোডাকশনের ছবি। ছবির নায়ক-নায়িকা অক্ষয় খন্না এবং তখন সদ্য বলিউডে পা রাখা বিশ্বসুন্দরী ঐশ্বর্যা রাই। ছবির শ্যুটিং-এর মধ্যেই একদিন বাড়িতে পার্টি দিয়েছিলেন রণধীর, ঋষি এবং রাজীব কপূররা। পার্টিতে নিমন্ত্রিত ছিলেন ‘আ আব লট চলে’-র নায়ক-নায়িকা থেকে শুরু করে গোটা প্রোডাকশন টিম।

সুন্দরী ঐশ্বর্যাকে দেখে স্থির থাকতে পারেননি স্কুলছাত্র রণবীর। তখনও তিনি ক্লাস টেন পাস করেননি। ঐশ্বর্যা তখন রীতিমতো ২২-২৩ বছরের তরুণী। রণবীর সটান গিয়ে পরিচয় সেরে ছিলেন ঐশ্বর্যার সঙ্গে। বিশ্বসুন্দরীকে ইমপ্রেস করতে বলে বসেছিলেন তিনি নাকি ক্লাসের ফাইনাল পরীক্ষায় ৬৫.৩ শতাংশ নম্বর পেয়েছেন। তিনি ঐশ্বর্যার গুণমুগ্ধ ভক্ত, তা-ও বলে দেন রণবীর।

কিন্তু রণবীরের ঠাকুমা রাজ কপূরের স্ত্রী কৃষ্ণা কপূর হাটে হাঁড়ি ভেঙে দেন। তিনি ঐশ্বর্যাকে জানান, রণবীর ৫৪ শতাংশ নম্বর পেয়েছে বলে তিনি খুশি হয়ে এই পার্টি দিচ্ছেন। ব্যস, রণবীরের মিথ্যা এক্কেবারে ফাঁস। সম্প্রতি ‘অ্যায় দিল হ্যায় মুশকিল’-এর প্রচারে কপিল শর্মার শো-তে এসে ঐশ্বর্যা রণবীরের এই কথা বলেন।

তবে, রণবীরের কথায়, ‘এটা একদিকে ভাল। একটা সময় যে মহিলাকে দেখে মন আনচান করত আজ তারই প্রেমিক হতে পেরেছি। এটা খুব ভালো।’ কিন্তু সেই প্রেমিকের ভালবাসার যে বহর দেখা যাচ্ছে তাতে চক্ষু চড়কগাছ শুধু নয়, ঐশ্বর্যার পরিবারে রীতিমতো ঝামেলা লেগে গিয়েছে বলে খবর।

ফটোশুটে রণবীর-ঐশ্বর্যা

ফটোশুটে রণবীর-ঐশ্বর্যা

এমনকী, এমন খবরও সামনে এসেছে, রণবীর এবং ঐশ্বর্যার ঘনিষ্ঠ ফোটোশ্যুট দেখে নাকি বচ্চর পরিবারের ছোট মেয়ে আরাধ্যা নাকি নিজেও ভিরমি খেয়ে গিয়েছে। রণবীরকে সে ভুল করে নাকি বাবা অভিষেক বলে ভেবে নিয়েছিল। যদিও, রণবীর কপূর এই নিয়ে কিছু খোলসা করেননি। ঐশ্বর্যাও চুপ।