• আজ ২৯শে চৈত্র, ১৪২৭ বঙ্গাব্দ

ইউএনও’র অপসারণের দাবীতে রংপুরের গঙ্গাচড়ায় সাংবাদিক সমাজের কলম বিরতি পালন

২:২৪ পূর্বাহ্ন | বুধবার, ডিসেম্বর ২৮, ২০১৬ দেশের খবর, রংপুর

15750204_390828937928183_1540328126_nশাহরিয়ার মিম,রংপুর:

রংপুরের গঙ্গাচড়ার স্থানীয় সাংবাদিককে লাঞ্ছিত, মামলার হুমকির প্রতিবাদ ও উপজেলা নির্বাহী অফিসার আমিনুল ইসলামের অপসারণের দাবীতে গতকাল মঙ্গলবার দুপুর ২ টা থেকে দুপুর ৩টা পর্যন্ত কলম বিরতি কর্মসূচি পালন করেছে সাংবাদিক সমাজ।

উপজেলা কেন্দ্রীয় শহিদ মিনারে অনুষ্ঠেয় কর্মসূচিতে অংশগ্রহণ করেন উপজেলা সাংবাদিক সমাজে সভাপতি সাজু আহমেদ আল, সাধারণ সম্পাদক আব্দুল আলীম প্রামানিক, সদস্য আলী আরিফ সরকার রিজু, জাকিরুল ইসলাম মন্টু, আব্দুল বারী স্বপন, ইউসুফ আলী বাপ্পী, মঈনুজ্জামান মিলটন, ইনামুল হক মাজেদী, মিজানুর রহমান লুলু, হাসান আলী, কামরুজ্জামান লিটন, শফিকুল ইসলাম চাঁদ, বাবুল মিয়া, নির্মল রায়, আব্দুল বারী দুলাল, সুজন আহম্মেদ, সফিয়ার রহমান কাজল, সাজু আহম্মেদ স্বপন প্রমূখ।

গত ১৬ ডিসেম্বর মহান বিজয় দিবস উপলক্ষে উপজেলা প্রশাসনের আয়োজনে বিভিন্ন কর্মসূচিতে অব্যবস্থাপনা, মুক্তিযোদ্ধাদের অসম্মান, লক্ষাধিক টাকা চাঁদাবাজি, নিম্নমানের পুরস্কার বিতরণের খবর প্রকাশ হওয়ায় উপজেলা নির্বাহী অফিসার আমিনুল ইসলাম স্থানীয় সাংবাদিককে লাঞ্ছিত ও মামলার হুমকি প্রদান করে। এর প্রতিবাদে উপজেলা সাংবাদিক সমাজ তার বক্তব্য প্রত্যাহার করে দুঃখ প্রকাশের জন্য ৭ দিনের সময় বেঁধে দেয়। কিন্তু ওই উপজেলা নির্বাহী অফিসার তার বক্তব্য প্রত্যাহার ও দুঃখ প্রকাশ না করায় পুনরায় সাংবাদিক সমাজ ৩১ ডিসেম্বর পর্যন্ত কর্মসূচি ঘোষণা করে। এর প্রেক্ষিতে গতকাল কলম বিরতি কর্মসূচি পালন করে।

চলমান রয়েছে উপজেলা নির্বাহী অফিসার সংশ্লিষ্ট সকল সংবাদ পরিবেশন বন্ধ কর্মসূচি। এছাড়াও আগামী ৩১ ডিসেম্বর রয়েছে সাংবাদিক সমাজের অবস্থান ধর্মঘট। উল্লেখ্য, মহান বিজয় দিবসে আপ্যায়ন প্যাকেটে গো-মাংস পরিবেশন করায় এরই মধ্যে ইউএনও কে প্রত্যাহার ও শাস্তির দাবিতে মানববন্ধন এবং বিক্ষোভ সমাবেশ করেছে গঙ্গাচড়া সনাতন যুব সংঘ। বিক্ষোভ সমাবেশে বক্তাগণ ৭ দিনের মধ্যে সাম্প্রদায়িক সম্প্রীতিতে আঘাতকারী ইউএনওকে প্রত্যাহার করা না হলে বৃহৎ কর্মসূচী গ্রহণ করা হবে ঘোষণা দেন।