• আজ ২৮শে চৈত্র, ১৪২৭ বঙ্গাব্দ

কুড়িগ্রাম জেলা পরিষদ নির্বাচনে সদস্য পদে খরচ ৫ লাখ : ভোট পেয়েছেন -১টি

২:২৩ অপরাহ্ন | বৃহস্পতিবার, ডিসেম্বর ২৯, ২০১৬ দেশের খবর, রংপুর

ফয়সাল শামীম, নিজস্ব প্রতিবেদক: কুড়িগ্রাম জেলা পরিষদ নির্বাচনে ভিতরবন্দ, হাসনাবাদ, নেওয়াশী, রামখানা ও সন্তোষপুর এই ৫টি ইউনিয়ন নিয়ে গঠিত ৪নং ওয়ার্ড। ওই ওয়ার্ডে সদস্য পদে মোট ৫ জন প্রার্থী মনোনয়ন পত্র দাখিল করলেও পরে এক প্রার্থী নির্বাচন না করার সিন্ধান্ত নেন। বাকী ৪ প্রার্থী মাঠে সরব ছিলেন।

kurigram

গতকাল নির্বাচনে মোস্তফা জামান ৩৮ ভোট পেয়ে বিজয়ী হন। তার নিকটতম প্রতিদন্দ্বি আমিনুল ইসলাম গালিভার পেয়েছেন ১৭ ভোট। অপর প্রার্থী মকবুল হোসেন পান ৯ ভোট। অন্য প্রার্থী ডাঃ আমিনুল ইসলাম পেয়েছেন ১ ভোট। ডাঃ আমিনুলের বাড়ী ভিতরবন্দ সেখানখান ১২ জন ইউপি সদস্যকে তার চাচাত ভাই বাতেনের বাড়ীতে দাওয়াত খাইয়ে প্রতিজনকে ১০ হাজার করে টাকা দেন। এর আগে ওই সদস্যদেক এমপির মাধ্যামে ১০ হাজার করে টাকা দিয়েছিলেন।

বাকী ৪ ইউনিয়নে অনুরুপহারে ভোটারদের মাঝে টাকা প্রদান করেন। কিন্তু ভোট পেয়েছেন মাত্র ১টি। এখন তিনি টাকা ফেরৎ চাচ্ছেন। ভিতরবন্দ ইউপি সদস্য নুর ইসলাম, ইউনুছ আলী, মাইন উদ্দিন, মুকুল মিয়া, রুহুল আমিন, হাবিবুল ইসলাম, ফেরদৌস আলম, জিয়াউর রহমান জানান, আমরা ডাঃ আমিনুলের নিকট টাকা চাইনি। তিনি আমাদের জোর করে টাকা দিয়েছেন। তিনি ওই পদের যোগ্য না তাই ভোটারা তাকে ভোট দেন নাই। আমরা সবাই তার টাকা চেয়ারম্যানের মাধ্যমে ফেরৎ দিয়েছি। অপর প্রার্থী আমিনুল ইসলাম গালিভার তিনি তার দেয় টাকা ফেরৎ নিচ্ছেন। আমিনুল ইসলাম বলেন, ভোটদিতে চেয়ে টাকা নিয়েছে। ভোট দেয় নাই তাই টাকা ফেরৎ নিচ্ছি।