সংবাদ শিরোনাম
  • আজ ১৫ই ফাল্গুন, ১৪২৭ বঙ্গাব্দ

বেরোবিতে কর্মকর্তাদের অসহযোগিতা কার্যক্রম অব্যাহত

১:১৭ অপরাহ্ন | সোমবার, জানুয়ারী ৩০, ২০১৭ শিক্ষাঙ্গন

এইচ এম নুর আলম, বেরোবি প্রতিনিধি: বিদ্যমান আপগ্রেডেশন/পদোন্নতি নীতিমালা অনুযায়ী কর্মকর্তা-কর্মচারিদের অধিকার বাস্তবায়ন না করায় প্রশাসনিক সকল কাজে উপাচার্যকে অসহযোগিতা কার্যক্রম অব্যাহত রেখেছে অফিসার্স অ্যাসোসিয়েশনের কর্মকর্তারা। তবে আপগ্রেডেশন/পদোন্নতির আশ্বাস পাওয়ায় আগামী ২০ ফেব্রুয়ারি পর্যন্ত অসহযোহিতা কার্যক্রম স্থগিত করেছে কর্মচারি ইউনয়ন।

r-un

শনিবার সকালে অনুষ্ঠিত ৫২তম সিন্ডিকেটে পাঁচজন কর্মকর্তাসহ মোট ৫৯ জন কর্মচারির পদায়ন নিশ্চিত হয়। তবে উপাচার্যের প্রতিশ্রুতি অনুযাযী অনুষ্ঠিত সিন্ডিকেটের পূর্বে বিদ্যমান নীতিমালার আলোকে কর্মকর্তা-কর্মচারিদের আপগ্রেডেশন/পদোন্নতি না দেওয়ায় ও অজ্ঞাতনামা মিথ্যা মামলায় কর্মকর্তা-কর্মচারিদের শাস্তির সিদ্ধান্ত বাতিল না করায় তাঁদের কার্যক্রম অব্যাহত থাকবে বলে জানা গেছে।

সিন্ডিকেটে পদায়নের বিষয়ে উপাচার্য ডঃ একে এম নূর-উন-নবী বলেন, পদবঞ্চিত মোট ৬৪ কর্মকর্তা-কর্মচারীর তালিকা সিন্ডিকেটে উত্থাপন করা হয়। আইনি জটিলতার কারণে পাঁচ জনের পদায়ন সম্ভব হয়নি।

অ্যাসোসিয়েশনের সভাপতি এটিএম গোলাম ফিরোজ বলেন, আমাদের দাবি আদায় হয়নি। সিন্ডিকেটে পাঁচজনকে পদায়ন করলেও বকেয়া বেতন দেয়নি বিশ্ববিদ্যালয় প্রশাসন। আমাদের দাবি আদায় না হওয়া পর্যন্ত এ কর্মসূচি অব্যাহত থাকবে বলে এক মুঠোফোনে এ সিদ্ধান্ত জানান।

সিন্ডিকেটে পদায়নের বিষয়ে অফিসার্স অ্যাসোসিয়েশনের সাধারণ সম্পাদক সামছুল হক বলেন, ইউজিসি এক বছর আগেই কর্মকর্তাদের পদায়নে অর্থ বরাদ্দ দিয়েছে। অনেক পরে এই ৫ কর্মকর্তাকে পদায়ন দেয়া হলো। যদি তাদের বকেয়াসহ দেয়া হতো তাহলে আরও ভালো হতো।

এদিকে পদ পেয়ে উচ্ছ্বাস প্রকাশ করেছে কর্মকর্তা-কর্মচারীগণ। অল্প সময়ের মধ্যে বকেয়া পাওনার দাবি করেন তারা। কর্মচারি ইউনয়নের সাধারণ সম্পাদক মোঃ নুর আলম বলেন, আগামী ২০ ফেব্রুয়ারির মধ্যে আমাদেও আপগ্রেডেশন/পদোন্নতির আশ্বাস দিয়েছেন উপাচার্য ডঃ একে এম নূর-উন-নবী। ফলে ২০ ফেব্রুয়ারি পর্যন্ত চলমান কার্যক্রম স্থগিত ঘোষণা করেছি আমরা।

উল্লেখ্য যে, বিশ্ববিদ্যালয় অফিসার্স অ্যাসোসিয়েশন তাঁদের বেশ কিছু দাবি নিয়ে গত ২৩ জানুয়ারি এবং কর্মচারি ইউনিয়ন তাঁদের কাঙ্ক্ষিত দাবি আদায়ে ২৪ জানুয়ারি উপাচার্যকে প্রশাসনিক কাজে অসহযোগিতা কার্যক্রম ঘোষণা করে।