সংবাদ শিরোনাম

মুশতাকের মৃত্যুকে ঘিরে আন্দোলনে বাতাস দিচ্ছে জঙ্গিগোষ্ঠী: তথ্যমন্ত্রীকক্সবাজারে মেয়েকে ধর্ষণের দায়ে পিতার যাবজ্জীবনস্বাধীনতা ইশতেহার পাঠের সুবর্ণ জয়ন্তী উদযাপন উপলক্ষে টাঙ্গাইলে আলোচনা সভাবকেয়া বেতনের দাবিতে চট্টগ্রামে পোশাক শ্রমিকদের সড়ক অবরোধমাদক মামলায় দেশের ইতিহাসে প্রথম ফাঁসির আদেশকৃষকের অনীহা, আমন মৌসুমে ধান-চাল সংগ্রহে ব্যর্থ খাদ্য অধিদফতরনিখোঁজের ৮ দিন পর বৃদ্ধের মরদেহ উদ্ধার; পরিবারের দাবি হত্যাখালেদা জিয়ার আবেদন আইন মন্ত্রণালয়ে পাঠানো হবে: স্বরাষ্ট্রমন্ত্রীতিস্তা টোল প্লাজায় আট লাখ ৭০ হাজার ভারতীয় রুপিসহ আটক ১শতাধিক যুবকের রঙিন চুল কাটালো পুলিশ

  • আজ ১৮ই ফাল্গুন, ১৪২৭ বঙ্গাব্দ

দীর্ঘ ২২ বছর ধরে ম্যানহোলে থাকেন এই দম্পতি, নেপথ্যে যে কারণ!

৭:১০ অপরাহ্ন | শনিবার, ফেব্রুয়ারী ৪, ২০১৭ আন্তর্জাতিক

আন্তর্জাতিক ডেস্ক- ২২ বছর ধরে ম্যানহোলের মধ্যে জীবন পার করছেন কলম্বিয়ার মারিয়া গর্সিয়া আর মিগুয়েল রেসট্রেপো দম্পতি। কলম্বিয়ার মেডেলিনের রাস্তায় ৪ দশমিক ৫ ফুট বাই ১০ ফুট ম্যানহোল। যার গভীরতা ৬ দশমিক ৫ ফুট। ম্যানহোলের ঢাকনাটা সারা বছরই খোলা থাকে।

colombia1_38589_1486204955পথে চলাচল করা মানুষও জানেন ওটা আসলে মারিয়া-মিগুয়েল দম্পতির বাড়ি! মারিয়া-মিগুয়েল দম্পতির সঙ্গী একমাত্র পোষ্য কুকুর ব্ল্যাকি। হঠাৎ কেনই বা তারা এ ড্রেনে বসবাসের সিদ্ধান্ত নিলেন? তার পেছনেও রয়েছে বেশ কিছু কারণ।

মারিয়া-মিগুয়েল প্রেম করে বিবাহ বন্ধনে আবদ্ধ হন। তবে তার আগে দুজনেই ড্রাগ চোরাচালানকারী দলের সঙ্গে যুক্ত ছিলেন। ওই পেশায় থাকা অবস্থাতেই পরিচয় হয় মারিয়া-মিগুয়েলের। পরে সেই অন্ধকার জীবন ছেড়ে দুজনে বিয়ের পিঁড়িতে বসেন। কিন্তু থাকার জায়গা পাবেন কোথায়? চলার পথে এই শুকনো পরিত্যক্ত ম্যানহোলটা দেখেই পছন্দ হয় এই দম্পতির। ঠিক করেন ম্যানহোলের মধ্যেই সাজিয়ে তুলবেন নিজেদের সংসার।

ম্যানহোলের ভেতরের জায়গা পরিষ্কার করে সাজিয়ে তোলেন নিজেদের সংসার। বিদ্যুতের কানেকশন থেকে ছোট্ট কিচেন, বিছানা, র‌্যাক, টিভি সবটাই রয়েছে এই সংসারে। বাতিল সিডি ড্রেনের দেওয়ালে লাগিয়ে ঘরের অন্দরসজ্জাও করেছেন তারা।

শুধু তাই নয়, যে কোনো অনুষ্ঠানে নিজেদের ম্যানহোলের সংসারকে সুন্দর করে সাজিয়ে তোলেন তারা। ক্রিসমাসের সময় ম্যানহোলের বাইরে ক্রিসমাস ট্রি, সান্তাক্লজ, জিঙ্গল বেল কোনোটাই বাদ দেননি মারিয়া-মিগুয়েল। তারা না থাকলে ‘ম্যানহোল-বাড়ি’ পাহারা দেয় তাদের পোষ্য ব্ল্যাকি। আনন্দবাজার