নড়বড়ে টিনের স্কুল ঘরে আলোর ঝলকানি


sd


রেজাউল সরকার (আঁধার), গাজীপুর  প্রতিনিধি :
নড়বড়ে টিনের ঘর। ফুটো টিনের চাল। কিছু অংশ ভাঙা। মেঝে কাঁচা থাকায় উড়ে ধুলো। কোন কোন কক্ষে নেই দরজা-জানালাও।
গাজীপুর মহানগরীর কোনাবাড়ীর জয়েরটেক ১৫১ নং সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয়ের এমন জর্জরিত ঘরেই চলছে প্রায় ৪০০ কোমলমতি শিক্ষার্থীর পাঠদান। তবে বিদ্যালয়ের অবকাঠামো খুবই দুর্বল ও নড়বড়ে হলেও প্রতিবছর ‘টিনের ঘরে যেন আলোর ঝলকানি’ বাড়ছে।
বিদ্যালয়ের শিক্ষকরা জানান, বিদ্যালয়টি ১৯৯৩ সালে স্থাপিত হয়েছে। ভাল ভবন না থাকায় শিক্ষার্থী কমে যাচ্ছে। এর মধ্যেও গত পিএসসি পরীক্ষায় ৩০ জন শিক্ষার্থী অংশ নিয়ে প্রত্যেকেই এ প্লাস পেয়েছে।
মূলত ভবনের অভাবেই ওই টিনের বেড়ার ঘরে ঝুঁকি নিয়ে চলছে পাঠদান। প্রাকৃতিক বড় কোন আঘাত আসলে তা ভেঙে পড়ার আশঙ্কাও করছেন শিক্ষকরা। বিদ্যালয়টির প্রতিষ্ঠাকালীন সেই টিনের ঘরেই দুই যুগ ধরে তাদের পাঠদান চলছে। এতে রোদে পুড়ে ও বৃষ্টিতে ভিজে টিনের ঘরে আলোর ঝলকানি বাড়ছে। তবুও প্রশাসনের কাছে এত আবেদন করেও মিলছে না একটি পাকা ভবন।
অভিভাবক মমিনুল ইসমাইল বলেন, ছেলে-মেয়ে নিয়ে আমরা চিন্তিত থাকি। কারণ পরিত্যক্ত ঘরে ক্লাস চলে।
এ ব্যাপারে সদর উপজেলা শিক্ষা কর্মকর্তা মো. কামরুল হাসান বলেন, বিদ্যালয়টির ছবি তুলে পাঠিয়েছি। আগামী বাজেটে নতুন ভবন নির্মাণের বরাদ্দ পাব বলে আশা করছি।
◷ ১২:২৯ পূর্বাহ্ন ৷ বুধবার, ফেব্রুয়ারী ৮, ২০১৭ ঢাকা, দেশের খবর