🕓 সংবাদ শিরোনাম

করোনাকালে নার্সদের উৎসাহ-অনুপ্রেরণা দিতে বিভিন্ন হাসপাতালে ছুটে যাচ্ছেন মহাপরিচালকপ্রকাশ্যে একই পরিবারের ৩ জনকে গুলি করে হত্যা, হামলাকারী এএসআই আটকযমুনা নদীর তীররক্ষা বাঁধের নির্মাণ কাজ শুরু হবে ৬ মাসের মধ্যেপাবনার চাটমোহরে সড়ক দুর্ঘটনায় বৃদ্ধের মৃত্যুআশুলিয়ায় মহাসড়ক থেকে শ্রমিকদের সরাতে পুলিশের টিয়ার শেল-জলকামান, নিহত ১দিনেদুপুরে প্রকাশ্যে গুলি করে একই পরিবারের ৩ জনকে হত্যানেতানিয়াহুর জন্য ১০ বছরের কারাদণ্ড অপেক্ষা করছে: আইনজীবীদক্ষিণ কেরানীগঞ্জে ১৯ কেজি গাঁজাসহ আটক ৩শায়েস্তাগঞ্জে ২৪ ঘন্টার মধ্যে ট্রেনে কাটা পড়ে ২ যুবকের মর্মান্তিক মৃত্যুটিকার ঘাটতি দূর না হলে সামনে বিপদ: জাতিসংঘ মহাসচিব

  • আজ রবিবার, ৩০ জ্যৈষ্ঠ, ১৪২৮ ৷ ১৩ জুন, ২০২১ ৷

এসএসসি ও সমমান পরীক্ষার ফল প্রকাশের তারিখ ঘোষণা


❏ মঙ্গলবার, এপ্রিল ২৫, ২০১৭ Breaking News, ফিচার, শিক্ষাঙ্গন, স্পট লাইট

সময়ের কণ্ঠস্বর: আগামী ৪ মে বৃহস্পতিবার প্রকাশ করা হবে চলতি বছরের মাধ্যমিক স্কুল সার্টিফিকেট (এসএসসি) ও সমমানের পরীক্ষার ফলাফল। সেদিন সকাল ১০টায় গণভবনে প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার কাছে ফলাফলের কপি হস্তান্তার করবেন শিক্ষামন্ত্রী নুরুল ইসলাম নাহিদ। এ সময় শিক্ষা মন্ত্রণালয়ের দুই বিভাগের সচিব, অধিদপ্তরের ডিজি, সব শিক্ষা বোর্ডের চেয়ারম্যানগণ উপস্থিত থাকার কথা জানা গেছে।

পরীক্ষা শেষের ৬০ দিনের মধ্যে পাবলিক পরীক্ষার ফল প্রকাশ বর্তমান সরকারের নীতিগত সিদ্ধান্ত। এসএসসি ও সমমানের পরীক্ষা শেষ হওয়ার ৬০ দিন পূর্ণ হবে ৪ মে।

শিক্ষা মন্ত্রণালয়ের একজন জ্যেষ্ঠ কর্মকর্তা জানান, বিগত বছরের মতোই এবারো ৬০ দিনের মধ্যে ফল প্রকাশ করা হবে। মে মাসের ২ থেকে ৪ তারিখের মধ্যে ফল প্রকাশে প্রধানমন্ত্রীর সম্মতির জন্য প্রস্তাব পাঠানো হয়েছিল। তিনি ৪ তারিখ নির্ধারণ করছেন ওইদিন ফল প্রকাশ করা হবে।

পূর্বের ধারাবাহিকতায়, সকালে প্রধানমন্ত্রীর কাছে ফলাফলের সারসংক্ষেপ তুলে দেওয়ার পর দুপুর ১২টায় সচিবালয়ে নিজ মন্ত্রণারয়ে সংবাদ সম্মেলনে ফলাফলের তথ্যউপাত্থ তুলে ধরবেন। এরপর শিক্ষা বোর্ডের ওয়েবসাইটে, মোবাইল ফোনে এসএমএস এবং স্ব স্ব শিক্ষা প্রতিষ্ঠানে ফল জানা যাবে।

গত ফেব্রুয়ারি মাসে অনুষ্ঠিত হয় এসএসসি ও সমমানের পরীক্ষা। এই পরীক্ষায় অংশ নেয় ১৬ লাখ ৪৪ হাজার ১৩০ জন শিক্ষার্থী।

গত বছর এসএসসি ও সমমানের পরীক্ষায় গড় পাসের হার ছিল ৮৮.২৯ শতাংশ। ২০১৫ সালে ছিল ৮৭.০৪ শতাংশ। এ হিসেবে পাসের হার বেড়েছিল গত বছর ১.২৫ শতাংশ। গত বছর মোট জিপিএ-৫ পেয়েছে ১ লাখ ৯ হাজার ৭৬১ জন। বোর্ডওয়াজ পাসের হার ছিল- ঢাকা বোর্ডে ৮৮.৬৭ শতাংশ, রাজশাহী বোর্ডে ৯৫.৭০, কুমিল্লা বোর্ডে ৮৪.০০, যশোর বোর্ডে ৯১.৮৫, চট্টগ্রাম বোর্ডে ৯০.৪৪, বরিশাল বোর্ডে ৭৯.৪১, সিলেট বোর্ডে ৮৪.৭৭, দিনাজপুর বোর্ডে ৮৯.৫৯ শতাংশ, মাদ্রাসা বোর্ডে ৮৮.২২ এবং কারিগরি বোর্ডে ৮৩.১১ শতাংশ।

সেরার তালিকায় নাম তুলতে কিছু-কিছু প্রতিষ্ঠান অনৈতিক পন্থা অবলম্বন করার অভিযোগ ওঠায় গতবছর থেকে এসএসসি ও সমমানের পরীক্ষার ফলে সেরা-২০ কিংবা সেরা-১০ শিক্ষাপ্রতিষ্ঠানের তালিকা করা হয়নি।