সংবাদ শিরোনাম

‘তালা ভেঙ্গে মসজিদে তারাবি পড়ার চেষ্টা্’‌, পুলিশের বাধায় সংঘর্ষে মুসল্লিরা‘লঘু পাপে গুরু দণ্ড’; তিনটি মুরগি চুরির দায়ে দেড়লাখ টাকার জরিমানা চার তরুণের!কুড়িগ্রামের সবগুলো নদ-নদী শুকিয়ে গেছে, হুমকীতে জীব-বৈচিত্রহেফাজতের আরেক কেন্দ্রীয় নেতা গ্রেপ্তারমধুখালীতে বান্ধবীর সহায়তায় অচেতন করে দফায় দফায় ধর্ষণের শিকার নারী!বাসস্ট্যান্ডে প্রকাশ্যে চায়ের স্টলে ইতালি প্রবাসীকে কুপিয়ে হত্যাগোবিন্দগঞ্জে মর্মান্তিক সড়ক দূঘর্টনায় স্কুল শিক্ষকসহ একই পরিবারের ৪ জন নিহতময়মনসিংহে ব্রহ্মপুত্র নদের পানিতে ডুবে মারা গেলো ৩ শিশুমুহুর্তেই ভয়াবহ আগুন! স্কুলেই পুড়ে মরলো ২০ শিশু শিক্ষার্থী!সাবেক আইনমন্ত্রী আব্দুল মতিন খসরু আর নেই

  • আজ ২রা বৈশাখ, ১৪২৮ বঙ্গাব্দ

সিরাজগঞ্জে চিকিৎসক ও নার্সের মৃত্যুর ঘটনায় আটক-৩

৫:৩৬ অপরাহ্ন | বুধবার, এপ্রিল ২৬, ২০১৭ দেশের খবর, রাজশাহী

সিরাজুল ইসলাম শিশির, সিরাজগঞ্জ প্রতিনিধি: দাওয়াত খাওয়ার পর খাদ্যে বিষক্রিয়ায় সিরাজগঞ্জের কাজিপুর উপজেলা স্বাস্থ্য কর্মকর্তা ও এক সিনিয়র নার্সের মৃত্যুর ঘটনায় জিজ্ঞাসাবাদের জন্য স্বাস্থ্য বিভাগের ৩ জনকে আটক করেছে পুলিশ। এ ঘটনায় তদন্তে কমিটি করেছে স্বাস্থ্য বিভাগ।

আটককৃতরা হলেন, কাজিপুর উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সের হিসাব রক্ষক আব্দুল হামিদ, ২ জন এম এল এস এস, কাজিপুরের উল্লাপাড়ার মোয়াজ্জেম হোসেন ও মসলিমপাড়ার চান মিয়া।

কাজিপুর থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা সমিত কুমার কুন্ডু জানান, জিজ্ঞাসাবাদের জন্য ওই ৩ জনকে আটক করা হয়েছে। ঘটনার বিষয়ে এখনও কোন মামলা হয়নি। আটককৃতরা নিহত স্বাস্থ্য কর্মকর্তার রুমে কর্মরত ছিলেন।

সিরাজগঞ্জ সিভিল সার্জন ডাঃ মঞ্জুর রহমান জানান, ঘটনার তদন্তে সিরাজগঞ্জ সদর হাসপাতালে কর্মরত মেডিসিন বিভাগের চিকিৎসক উদয় নারায়ন মোহন্তকে প্রধান করে ৩ সদস্য বিশিষ্ট তদন্ত কমিটি করা হয়েছে। আর অসুস্থ প্রধান সহকারী আলমগীর ফেরদৌসের গুরুতর অসুস্থ্য অবস্থায় আইসিইউতে রাখা হয়েছে।

এদিকে, এ ঘটনার পর থেকে উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে মাষ্টাররোলে কর্মরত কর্মচারী কাজিপুরের বেড়িপোটলের লাকী খাতুন ও শুভগাছা গ্রামের রাশেদ গা ঢাকা দিয়েছে বলে নাম প্রকাশ না করার শর্তে স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে কর্মরত এক চিকিৎসক জানিয়েছেন।

প্রসঙ্গত, মঙ্গলবার দুপুরে উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সের কর্মকর্তা-কর্মচারী ও নার্সরা প্রধান সহকারী আলমগীর হোসেনের বাসায় দাওয়াত খেতে যান। উপজেলা স্বাস্থ্য ও পরিবার পরিকল্পনা কর্মকর্তা ডা. মনিরুজ্জামান, নার্স জোবাইদা ও প্রধান সহকারী আলমগীর ফেরদৌসের জন্য কর্মচারীরা অফিসে খাবার নিয়ে আসেন। সেখানে খাবার খাওয়ার পর বিকেলে তারা অসুস্থ্য হয়ে পড়েন। আশংকাজনক অবস্থায় তাদের বগুড়া শহীদ জিয়াউর রহমান মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে ভর্তি করা হলে রাত ৯টার দিকে নার্স ও সাড়ে ১০টার দিকে চিকিৎসকের মৃত্যু হয়।

নিহত উপজেলা স্বাস্থ্য কর্মকর্তা ডা: মনিরুজ্জামান পাবনার বেড়া উপজেলার মানিলা গ্রামের নুরুল হকের ছেলে। সিনিয়র স্টাফ নার্স জোবাইদা খাতুন (৩০) কাজিপুর উপজেলার বিয়ারা এলাকার বাবলু মিয়ার স্ত্রী। মৃত্যুকালে চিকিৎসক মনিরুজ্জামান স্ত্রী, ২ মেয়ে ও নার্স জোবায়দা স্বামী ও ২ মেয়েসহ অসংখ্য গুনগ্রাহী রেখে গেছেন। আর অসুস্থ্য প্রধান সহকারী আলমগীর ফেরদৌস রায়গঞ্জ উপজেলার বাসিন্দা।