সংবাদ শিরোনাম

টাঙ্গাইলে পিকআপ-ট্রলির মুখোমুখি সংঘর্ষে দুই ভায়রা নিহতফরিদপুরের দুই ভাইয়ের ৫ হাজার ৭০৬ বিঘা জমি ক্রোকের নির্দেশইউএনওকে বহনকারী গাড়ি নিয়ন্ত্রণ হারিয়ে খাদেঝালকাঠিতে আলোচিত শাহাদাৎ হত্যা মামলায় ৩ জনের যাবজ্জীবনলালমনিরহাট সীমান্তে ভারতীয় পুলিশের হাতে বাংলাদেশি যুবক আটকচুয়াডাঙ্গায় নিখোঁজের পর আখক্ষেত থে‌কে গৃহবধূর বিবস্ত্র মরদেহ উদ্ধারপিলখানার শহীদদের প্রতি রাষ্ট্রপতি ও প্রধানমন্ত্রীর শ্রদ্ধাটিকা নেয়ার ১২ দিন পর ত্রাণ সচিব করোনায় আক্রান্তনওগাঁয় সড়ক দুর্ঘটনায় মোটরসাইকেল আরোহী নিহত, আহত ৫রাঙামাটিতে ইউপি সদস্যকে গুলি করে হত্যার ঘটনায় ১৮ জনের বিরুদ্ধে মামলা

  • আজ ১২ই ফাল্গুন, ১৪২৭ বঙ্গাব্দ

দুই বছর পর চোখ থেকে বের হলো দেড় ইঞ্চি কাঠের টুকরো!


কৃষ্ণ কর্মকার, বাউফল প্রতিনিধি , পটুয়াখালী:
দুই বছর আগে গাছ কাটতে গিয়ে গুরুতর জখম হন পটুয়াখালীর বাউফল উপজেলার বিলবিলাস গ্রামের আবুল হোসেন নামের শ্রমিক। এসময় ওই শ্রমিকের চোখে একটি কাঠের টুকরা ঢোকে। স্থানীয় ভাবে চিকিৎসা শেষে কোন সুস্থ্য না হলে চিকিৎসকের পরামর্শ নিয়ে রাজধানীর একটি চক্ষু হাসপাতালে ভর্তি হন। সেখানের চিকিৎসকরা আবুল হোসেনের চোখ উপড়ে ফেললেও চোখের অসহ্য যন্ত্রনা থেকে মুক্তি পায়নি সে।

 

উপায় না পেয়ে দুই বছর পড় নিজেই সুই দিয়ে খুচিয়ে খুচিয়ে চোখ থেকে বেড় করে আনলেন দের ইঞ্চি সাইজের একটি কাঠের টুকরা। আবুল মৃধার পরিবারের সদস্য ও স্থানীয়রা জানান, ২০১৫ সালের ২ আগস্ট গাছ কাটতে গিয়ে আবুল মৃধা গাছ থেকে পড়ে গিয়ে মাথা ও চোখে মারাতœক আঘাত পান। স্থানীয় হাসপাতালে প্রাথমিক চিকিৎসার পর তাকে পটুয়াখালী চক্ষু হাসপাতালে তাকে ভর্তি করা হয়।

 

এক পর্যায়ে উন্নত চিকিৎসার জন্য আবুলকে ঢাকায় চিকিৎসা নেওয়ার পরামর্শ দেওয়া হয়। চিকিৎসা ব্যয়বহুল হওয়ায় শেষ সম্বল একখন্ড জমি বিক্রি করে ২ লাখ টাকা নিয়ে ১১ আগস্ট ঢাকার ইস্পাহানি ইসলামিয়া চক্ষু ইনিস্টিটিউটে ভর্তি হন। তার কেবিন নং ১৬, ভর্তি রেজি: নং ৩৮৩৭/১২ এবং এমআর নং ১৬৯৪১৬৭। সেখানে অনেক পরীক্ষা-নিরীক্ষা করে ১৬ আগস্ট আবুলের ডান চোখ উপড়ে ফেলা হয় এবং ১৯ আগস্ট তাকে রিলিজ দেওয়া হয়। এরপর আবুল বাড়ি এলে তার উপড়ে ফেলা চোখের মধ্যে যন্ত্রণা শুরু হয় এবং পুঁজ পড়তে শুরু করে।

 

এভাবে যন্ত্রণা নিয়েই আবুল জীবনযাপন করতে থাকে। যন্ত্রণা সহ্য করতে না পেরে ২ বছর চার মাস পর গত বুধবার (১৫ নভেম্বর) ঘরে থাকা সুঁচ দিয়ে উপড়ে ফেলা চোখের মধ্যে খুঁচতে তাকে এবং এক পর্যায়ে দেড় ইঞ্চি লম্বা কাঠের টুকরো বের হয়ে আসে।

এঘটনায় এলাকায় জনমনে ঢাকার ওই চক্ষু হাসপাতালের চিকিৎসা নিয়ে নানা প্রশ্নের সৃষ্টি হয়েছে এবং ভূক্তভোগিকে ক্ষতিপূরণ দেওয়ার দাবি করা হয়েছে।

 

◷ ১:০১ অপরাহ্ন ৷ শুক্রবার, নভেম্বর ২৪, ২০১৭ আলোচিত