বাউফলে বিয়ের প্রলোভন দেখিয়ে ছাত্রীকে ধর্ষণের অভিযোগ

৮:২২ অপরাহ্ন | সোমবার, নভেম্বর ২৭, ২০১৭ দেশের খবর, শিক্ষাঙ্গন

কৃষ্ণ কর্মকার,বাউফল প্রতিনিধি:
বিয়ের প্রলোভন দেখিয়ে পটুয়াখালীর বাউফল উপজেলায় সপ্তম শ্রেণির এক ছাত্রীকে ধর্ষন করেছে এক যুবক। ধর্ষিতা উপজেলার পূর্বকালাইয়া মাধ্যমিক বিদ্যালয়ের সপ্তম শ্রেণির ছাত্রী। গত ২৩ নভেম্বর বৃহস্পতিবার রাত সারে নয়টার দিকে উপজেলার কালাইয়া ইউনিয়নের ২নং ওয়ার্ডের মধ্যকালাইয়া গ্রামে ওই ঘটনা ঘটে। এ ঘটনায় ছাত্রীর বড় ভাই তিনজনকে আসামী করে রোববার বাউফল থানায় নারী ও শিশু নির্যাতন দমন আইনে একটি মামলা দায়ের করেছে।

মামলার বিবরন সূত্রে জানা গেছে, ছাত্রী (১৫) বিদ্যালয়ে আসা যাওয়ার পথে বিভিন্ন সময়ে প্রেমের প্রস্তাব দিয়ে উত্যক্ত করত একই গ্রামের মিঠুন মৃধা (২০) নামের এক যুবক। একসময় ওই যুবক ছাত্রীকে বিয়ের স্বপ্ন দেখালে তাদের মধ্যে প্রেমের সম্পর্ক তৈরী হয়। ঘটনার দিন গত ২৩ নভেম্বর বৃহস্পতিবার রাত সারে নয়টার দিকে মিঠুন মৃধা জরুরী কথা আছে বলে ছাত্রীকে ঘড়ের বাইরে ডেকে এনে বাড়ির পাশেই পুকুর পাড়ে নিয়ে যায়।

এক পর্যায়ে ওই যুবক ছাত্রীর ইচ্ছার বিরুদ্ধে তাকে ধর্ষন করে। এমন সময় ওই ছাত্রীর খোঁজ পড়লে তার (ছাত্রীর) বড় ভাই ঘটনাস্থল থেকে তাকে (ছাত্রীকে) উদ্ধার করে মিঠুনকে আটকে রাখে। খবর পেয়ে মিঠুনের বাবা ও ভাই লাঠিসোটা নিয়ে এসে ছাত্রীর ভাইকে মারধর করে জোর পূর্বক মিঠুনকে ছিনিয়ে নেয়। ঘটনাটি এলাকায় জানাজানি হয়ে গেলে মেয়ের পক্ষ থেকে পারিবারিক ভাবে মিমাংসার চেষ্টা করলেও অভিযুক্ত মিঠুনের বাবা তার ছেলেকে এলাকার বাইরে পাঠিয়ে দেয়।
বাউফল থানার ওসি মো. মনিরুল ইসলাম বলেন, ঘটনার সাথে জড়িতদের গ্রেপ্তারের চেষ্টা চলছে।