পাকিস্তানে অস্ত্রধারীদের হামলায় ৯ শিক্ষার্থী নিহত

১:৪৪ অপরাহ্ন | শুক্রবার, ডিসেম্বর ১, ২০১৭ Breaking News, আন্তর্জাতিক, স্পট লাইট

আন্তর্জাতিক ডেস্ক: পাকিস্তানের পেশাওয়ারে কৃষি প্রশিক্ষণ ইন্সটিটিউটের এক আবাসিক ভবনে অস্ত্রধারীদের হামলার ঘটনায় অন্তত ৯ শিক্ষার্থী নিহত হয়েছে। আহত হয়েছেন আরো অন্তত ৩৭ জন। আহতদের অনেকের অবস্থা গুরুতর হওয়ায় মৃতের সংখ্যা বাড়তে পারে বলে আশঙ্কা করা হচ্ছে।

শুক্রবার সকালে পেশোয়ার কৃষি প্রশিক্ষণ ইন্সটিটিউটে কমপক্ষে ৪ জন অস্ত্রধারী ঢুকে পড়ে।

পুলিশ জানিয়েছে, হামলাকারীরা রিকশায় করে ঘটনাস্থলে আসে।

স্থানীয় সংবাদ মাধ্যমগুলো জানিয়েছে, এ ঘটনার পরপরই সেখানে পুলিশি অভিযান শুরু হয়।

স্থানীয় সংবাদ মাধ্যম আরো জানায়, শুক্রবার সকালে বোরকা পরিহিত সন্দেহভাজন হামলাকারীরা গুলি ছুড়তে ছুড়তে হোস্টেল ভবনে প্রবেশ করে। খবর পেয়ে পুলিশ, সেনাবাহিনী ও ফ্রন্টিয়ার কর্পসের সদস্যরা ঘটনাস্থলটি ঘিরে ফেলে। শুরু হয় গোলাগুলি। জিম্মিদের উদ্ধারে অভিযান চালায় নিরাপত্তা বাহিনী।

এছাড়া সেনাবাহিনীর হেলিকপ্টার ওই এলাকাটির ওপর নজরদারি করছে।

সন্ত্রাসী গোষ্ঠী তেহরিকে তালেবান পাকিস্তান বা টিটিপি এ হামলার দায় স্বীকার করেছে। ঈদ-ই-মিলাদুন্নবীর জন্য প্রতিষ্ঠানটি বন্ধ ছিল বলে জানা গেছে।

ভবনটিতে অন্তত ৪০ জন শিক্ষার্থী সেখানে ছিলেন বলে স্থানীয়দের সূত্রে জানা গেছে।

পেশোয়ারের হায়াতাবাদ হাসপাতাল ও খায়বার টিচিং হাসাপাতালে আহত ছাত্রদের ভর্তি করা হয়েছে। এছাড়া, পাকিস্তানের আন্তঃবাহিনী জনসংযোগ পরিদপ্তর বা আইএসপিআর জানিয়েছে, গোলাগুলির ঘটনায় দুই সেনা আহত হয়েছে এবং তাদেরকে সম্মিলিত সামরিক হাসপাতালে ভর্তি করা হয়।

আইএসপিআর বলছে, কৃষি প্রশিক্ষণ হোস্টেলে হামলার ঘটনায় সেনাবাহিনী সন্ত্রাসীদের বিরুদ্ধে অভিযান চালিয়েছে এবং এতে তিন সন্ত্রাসী নিহত হয়েছে। তবে পুলিশ বলছে, হামলায় জড়িত চার সন্ত্রাসীই মারা গেছে।