সংবাদ শিরোনাম
  • আজ ১৯শে ফাল্গুন, ১৪২৭ বঙ্গাব্দ

‘কুষ্টিয়া এখন বাংলাদেশের আর কোনও জনপদ নয়’

৪:২০ অপরাহ্ন | মঙ্গলবার, জুলাই ২৪, ২০১৮ Breaking News, জাতীয়

সময়ের কণ্ঠস্বর :: বিএনপির মহাসচিব মির্জা ফখরুল ইসলাম আলমগীর বলেছেন, মাহমুদুর রহমানের কি হাল করেছে দেশবাসী দেখেছেন। কুষ্টিয়া এখন বাংলাদেশের আর কোনও জনপদ নয়। কুষ্টিয়া এখন সম্পূর্ণভাবে সন্ত্রাসীদের আওতায় চলে গেছে। সেখানে প্রশাসন ও পুলিশ সন্ত্রাসী হয়ে গেছে। ওখানকার যে রাজনৈতিক নেতা উনি সবচেয়ে বড় সন্ত্রাসী। অথচ এই কুষ্টিয়াতে আওয়ামী লীগের লোকেরা পালিয়ে বেড়াতো। এই কুষ্টিয়ায় এখন যিনি মন্ত্রী আছেন তাদের ছেলেরা প্রকাশ্যে ঈদের জামাতে গুলি করে মানুষ হত্যা করেছিল। এটি ভুলে গেলে চলবেনা। অতীতকে একটু মনে করুন। অতীতকে মনে না করলে নিজেকে চিনবেন না।

আজ মঙ্গলবার দুপুরে জাতীয় প্রেসক্লাবে ন্যাশনাল পিপলস পার্টি (এনপিপি) আয়োজিত এক আলোচনা সভায় তিনি এ মন্তব্য করেন।

তিনি বলেন, আমরা সম্পূর্ণ বৈরী পরিবেশে রাজনৈতিক কর্মকান্ড চালাচ্ছি। এ কথাটা ভুলে গেলে চলবেনা যে আমরা সম্পূর্ণ ফ্যাসিস্ট সরকারের অধীনে বাস করছি। ফ্যাসিস্ট কথাটায় জোর দেয়ার কারণ মাহমুদুর রহমান তার পত্রিকায় সর্বপ্রথম লিখেছিলেন ফ্যাসিবাদের প্রতিধ্বনি শোনা যায়। আজকে সেই ফ্যাসিবাদের প্রতিধ্বনিনারা দেশের জনগণের বুকে পাড়া দিয়ে বসে গেছে।

প্রধানমন্ত্রীর বক্তব্যের সমালোচনা করে মির্জা ফখরুল বলেন, প্রধানমন্ত্রী বলেছেন আমরা নাকি জনগণের কাছে গিয়ে ব্যর্থ হয়ে ব্লেম গেম করছি। বলার উদ্দেশ্যটা হচ্ছে একটা অডিও বেরিয়েছে আমাদের দুই নেতার মধ্যে কথোপকথনের। যার উপর ভিত্তি করে আমাদের রাজশাহী জেলার সেক্রেটারিকে গ্রেপ্তার করেছে।

বিএনপির এ নেতা বলেন, আজকাল প্রযুক্তির যুগে আমার সঙ্গে প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার আলাপনও তৈরি করে দেওয়া যায়। এটি কোন কঠিন কাজ না। আপনার নিজেরাই দেখেন কতো জনের কতো রকম ছবি বের হয়। এর ঘাড়ে ওর মাথা। এটাই করেছে সরকারদলের লোকজন।