১০ সেপ্টেম্বর শুরু হচ্ছে ইবির ভর্তি আবেদন

❏ বুধবার, সেপ্টেম্বর ৫, ২০১৮ শিক্ষাঙ্গন

রায়হান মাহবুব, ইবি প্রতিনিধি: ইসলামী বিশ্ববিদ্যালয়ের (ইবি) ২০১৮-১৯ শিক্ষাবর্ষ স্নাতক (সম্মান) প্রথম বর্ষে ভর্তির আবেদন প্রক্রিয়া আগামী ১০ সেপ্টেম্বর থেকে শুরু হবে। আবেদন প্রক্রিয়া চলবে আগামী ১০ অক্টোবর পর্যন্ত। আগামী ৪ থেকে ৭ নভেম্বর আসন্ন শিক্ষাবর্ষের ভর্তি পরীক্ষা অনুষ্ঠিত হবে।

এ বছর ৩৩ টি বিভাগে মোট ২ হাজার ২৭৫ জন শিক্ষার্থী ভর্তি করা হবে। এছাড়া এবার ভর্তি পরীক্ষা লিখিত ও এমসিকিউ’র সমন্বয়ে অনুষ্ঠিত হবে বলে বিষয়টি নিশ্চিত বিশ্ববিদ্যালয়ের ভারপ্রাপ্ত রেজিস্ট্রার এস এম আব্দুল লতিফ।

রেজিস্ট্রার অফিস সূত্র জানা গেছে, ২০১৮-১৯ শিক্ষাবর্ষ স্নাতক (সম্মান) প্রথম বর্ষে ভর্তি পরীক্ষার নিয়ম পরিবর্তন করে ৮টি ইউনিটের পরিবর্তে ৪টি ইউনিটে ভর্তি পরীক্ষা নেওয়ার সিদ্ধান্ত হয়েছে। এ বছর ৫টি অনুষদের অধীনে ৩৩টি বিভাগের ভর্তি পরীক্ষা এ ৪টি ইউনিটে অনুষ্ঠিত হবে। ‘এ’ ইউনিটের অধীনে ধর্মতত্ত্ব ও ইসলামী শিক্ষা অনুষদভূক্ত ৩ বিভাগ, মানবিক ও সমাজ বিজ্ঞান অনুষদভূক্ত ১টি বিভাগ এবং আইন ও শরীয়াহ অনুষদভুক্ত ১টি বিভাগ। ‘বি’ ইউনিটের অধীনে মানবিক ও সমাজ বিজ্ঞান অনুষদভূক্ত ৯টি বিভাগ এবং আইন ও শরীয়াহ অনুষদভূক্ত ২টি বিভাগ। ‘সি’ ইউনিটের অধীনে ব্যবসায় প্রশাসন অনুষদভূক্ত ৬টি বিভাগ। এবং ‘ডি’ ইউনিটে অধীনে ফলিত বিজ্ঞান ও প্রযুক্তি অনুষদভূক্ত ১১টি বিভাগ অন্তভূক্ত করা হয়েছে।

কেন্দ্রীয় ভর্তি পরীক্ষা কমিটির সিদ্ধান্ত অনুযায়ী এ বছর ১২০ নম্বরের ভর্তি পরীক্ষায় এমসিকিউ থাকবে ৬০ নম্বর, লিখিত সংক্ষিপ্ত প্রশ্নের উত্তর ২০ নম্বর এবং এসএসসি-এইচএসসিতে প্রাপ্ত জিপিএ’র ভিত্তিতে (২০+২০) ৪০ নম্বর। আগামী ১০ সেপ্টেম্বর রাত ১২.০১ মিনিট থেকে ১০ অক্টোবর রাত ১২.০১ মিনিট পর্যন্ত আবেদনের সময় নির্ধারণ করা হয়েছে। ১ জন আবেদনকারী একটি ইউনিটের জন্য শুধুমাত্র ১টি আবেদন করতে পারবে। তবে যোগ্যতা থাকলে একাধিক ইউনিটে আবেদন করতে পারবে। আগামী ১৬ অক্টোবর থেকে ২৮ অক্টোবরের মধ্যে আবেদনকারীরা তাদের প্রবেশপত্র ডাউনলোড করতে পারবে।

ইউনিট প্রতি ফি ২০০ টাকা এবং ইউটিনে প্রতিটি বিভাগের জন্য আরো ১০০ টাকা করে জমা দিতে হবে। সে অনুযায়ী ‘এ’ ইউনিটে ৫ বিভাগের জন্য ৭০০ টাকা, ‘বি’ ইউনিটে ১১টি বিভাগের জন্য ১৩০০ টাকা, ‘সি’ ইউনিটে ৬ টি বিভাগে জন্য ৮০০ টাকা এবং ‘ডি’ ইউনিটে ১১টি বিভাগের জন্য ১৩০০ টাকা নির্ধারন করা হয়েছে।

বিশ্ববিদ্যালয়ের উপাচার্য অধ্যাপক হারুন উর রশিদ আসকারী বলেন, ‘ভর্তি পরীক্ষা সহজীকরণ ও শিক্ষার্থীদের ভোগান্তি কমাতে এ বছর ইউনিটের সংখ্যা কমানো হয়েছে। এছাড়া বিশ্ববিদ্যালয়টিকে আন্তর্জাতিকী করণের লক্ষ্যে বিদেশী শিক্ষার্থীদের ভর্তি করাতেও নানা পদক্ষেপ গ্রহন করেছে কর্তৃপক্ষ।’

উল্লেখ্য, ভর্তি পরীক্ষা সংক্রান্ত যাবতীয় তথ্য বিশ্ববিদ্যালয়ের ওয়েব সাইট (www.iu.ac.bd) থেকে বিস্তারিত জানা যাবে।