স্ত্রীকে জোরপূর্বক ধর্ষণের অভিযোগে গ্রেফতার হলেন স্বামী!

আন্তর্জাতিক ডেস্ক :: ভারতের কলকাতা শহরে এক ব্যক্তির বিরুদ্ধে ধর্ষণের অভিযোগ এনেছেন স্ত্রী। অনিচ্ছা সত্ত্বেও স্বামী তার ওপর নির্যাতন চালান বলে জানিয়েছেন ওই নারী।

সংবাদমাধ্যম টাইমস অব ইন্ডিয়ার খবরে বলা হয়, ধর্ষণ ছাড়াও স্বামীর পরিবারের সদস্যদের বিরুদ্ধে যৌতুকের অভিযোগ আনেন কলকাতার ওই বাসিন্দা। ইচ্ছার বিরুদ্ধে গিয়ে অন্তঃসত্ত্বা থাকাকালীন তার সঙ্গে শারীরিক সম্পর্ক করা হয়েছে বলে অভিযোগ উঠেছে। এ ঘটনায় ওই নারীর স্বামীকে গ্রেফতার করেছে পুলিশ।

পুলিশের তদন্তে জানা যায়, বিয়ের সময় বর ব্যাংকের সিনিয়র কর্মকর্তা বলে উল্লেখ করা হয়। কিন্তু পরে দেখা যায় তিনি একটি বেসরকারি প্রতিষ্ঠানে ছোট পদে চাকরি করেন। এমনকি বিয়ের পর চাকরিও ছেড়ে দেন তিনি।

ওই নারীর বরাত দিয়ে পুলিশ আরও জানায়, নিজেকে বাঁচানোর অন্য কোনো পথ না পেয়ে আদালতের শরণাপন্ন হন তিনি।

এদিকে বিয়ে পরবর্তী ধর্ষণ বন্ধে আইন দাবি করে আসছে নারী অধিকার সংরক্ষণ সংস্থা ‘শ্যাম’। সংস্থাটির প্রতিষ্ঠাতা অনুরাধা কাপুর বলেন, কারো ইচ্ছার বিরুদ্ধে শারীরিক সম্পর্ক করাই ধর্ষণ। বিয়ে হয়েছে বলেই যে স্ত্রী নিষেধ করতে পারবে না এমন না।