‘বাবাকে খুন করে এসেছি, আমাকে গ্রেপ্তার করুন’


আন্তর্জাতিক ডেস্ক- ‘ঘরের মধ্যে পড়ে রয়েছে বাবার দেহ৷ বাবাকে খুন করে এসেছি, আমাকে গ্রেপ্তার করুন৷’

শুক্রবার রাত এগারোটা নাগাদ এক অজ্ঞাতপরিচয় ব্যক্তি এসে এমনই দাবি করল ভারতের পূর্ব যাদবপুর থানার পুলিশ আধিকারিকদের কাছে৷ প্রথমে পাত্তা দেননি তাঁরা৷ ভুল বকছে ভেবে উড়িয়ে দিয়েছিলেন ওই ব্যক্তির দাবি৷ কিন্তু একটু পরে ওই ব্যক্তির বক্তব্যই মন দিয়ে শুনলেন পুলিশ আধিকারিকরা৷ ওই যুবকের কাছ থেকে পাওয়া তথ্যের ভিত্তিতে পুলিশ আধিকারিকরা পৌঁছে গেলেন মুকুন্দপুরের অহল্যানগরের একটি বাড়িতে৷ পুলিশ ঘটনাস্থলে পৌঁছে জানান সত্যিই রাজা ঢালি নামে ওই যুবক বাবা বলাই ঢালিকে খুন করেছে৷

জানা গিয়েছে, পারিবারিক বিবাদের জেরে বাবাকে শ্বাসরোধ করে খুন করেছে অভিযুক্ত ছেলে৷ ঘটনার সময় বাবা-ছেলে দু’জনেই মদ্যপ অবস্থায় ছিল বলে জানিয়েছে পুলিশ।

স্থানীয় সূত্রে খবর, মৃত বলাই ঢালির প্রথমপক্ষের স্ত্রী প্রায় পাঁচ বছর আগে মারা গিয়েছেন৷ কিছু বছর আগে দ্বিতীয়বার বিয়ে করেন বলাই৷ কিন্তু মন থেকে বাবার দ্বিতীয় বিয়ে মেনে নিতে পারেনি অভিযুক্ত রাজা ঢালি৷ এমনকী, বাবার দ্বিতীয়পক্ষের স্ত্রীর সঙ্গেও তার তেমন একটা বনিবনা ছিল না৷ এই বিষয়ে প্রায়শই বাবা ও ছেলের মধ্যে অশান্তি লেগে থাকত৷ শুক্রবার সেই বিবাদ চরম রূপ নেয়৷ বাবা-ছেলের বাদানুবাদ শুনতে পান আশপাশের প্রতিবেশীরাও৷ কিন্তু একটা সময় পর পরিস্থিতি শান্ত হয়ে যায়৷ সকলে ভাবেন সব মিটমাট হয়ে গিয়েছে৷

পূর্ব যাদবপুর থানার পুলিশ জানিয়েছে, শুক্রবার রাত এগারোটা নাগাদ থানায় আসে রাজা ঢালি৷ পুলিশকে জানায়, বাবাকে খুন করে থানায় আত্মসমর্পণ করতে এসেছে সে৷ অভিযুক্তের কাছ থেকে পাওয়া তথ্যের ভিত্তিতে রাতেই ঘটনাস্থলে যান পূর্ব যাদবপুর থানার পুলিশ আধিকারিকরা৷ তাঁরা দেখেন রাজা ঢালির বিবরণ মতোই ঘরের মধ্যে পড়ে রয়েছে বাবা বলাই ঢালির নিথর দেহ৷ তাঁর মুখ দিয়ে রক্ত বেরোচ্ছিল এবং গলায় ফাঁসের দাগ ছিল৷ পুলিশ আধিকারিকরা জানিয়েছেন, শুক্রবার রাতেই অভিযুক্ত রাজা ঢালিকে গ্রেপ্তার করা হয়েছে৷ শারীরিক পরীক্ষার পর শনিবার তাকে আদালতে পেশ করা হতে পারে৷ সূত্রের খবর, অভিযুক্তকে হেফাজতে নেওয়ার আরজি জানাতে পারেন তদন্তকারীরা৷ মৃত বলাই ঢালির পরিবার সূত্রে খবর, সম্পত্তির লোভে বাবকে খুন করেছে রাজা৷

◷ ১২:২৯ অপরাহ্ন ৷ শনিবার, জানুয়ারী ৫, ২০১৯ আন্তর্জাতিক