নন্দীগ্রামে তিন ঘন্টার ব্যবধানে মারা গেলেন স্বামী-স্ত্রী


মুনিরুজ্জামান মুনির, নন্দীগ্রাম (বগুড়া) প্রতিনিধি: বগুড়ার নন্দীগ্রামে তিন ঘন্টার ব্যবধানে মারা গেলেন স্ত্রী ঝরিমুন বিবি (৫০) ও স্বামী আনছার আলী আকন্দ (৬২)।

আজ সোমবার ভোরে উপজেলার সদর ইউনিয়নের হাটলাল গ্রামের এ ঘটনা ঘটে।

স্থানীয় সূত্রে জানা যায়, দুই ছেলে-তিন মেয়ে ও নাতি-নাতনী নিয়ে কৃষক আনছার আলী ও ঝরিমুন বিবির সংসার। ছেলে মেয়ে নাতি-নাতনী নিয়ে সুখেই ছিল তারা। গত শনিবার হঠাৎ করে আনছার আলী আকন্দ অসুস্থ হয়ে পড়ে। তখন পরিবারে লোকজন তাকে বগুড়া শহীদ জিয়াউর রহমান মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে নিয়ে যায়। এরপর তাকে ভর্তি করা হয় হাসপাতালে। বিভিন্ন পরীক্ষার পর জানা যায় আনছার আলীর মস্তিষ্কে রক্তক্ষরণ হয়েছে। স্বামীর ব্রেইন স্ট্রোকের খবর শুনে খুব অসুস্থ হয়ে পরে স্ত্রী ঝরিমুন বিবি। অসুস্থ অবস্থায় ঝরিমুন বিবি সোমবার ভোর রাত তিন টার দিকে নিজ বাড়িতে মৃত্যু বরণ করে। এরপর ভোর ছয় টার দিকে ব্রেইন স্ট্রোকে আক্রন্ত আনছার আলীও হাসপাতালে চিকিৎসাধীন অবস্থায় মৃত্যু বরণ করে। মৃত্যুকালে তারা দুই ছেলে ও তিন মেয়ে সহ অসংখ্য গুণাগ্রাহী রেখে গেছেন।

সোমবার বাদ যোহর পারিবারিক কবরস্থানে তাদের লাশ দাফন সম্পন্ন করা হয়েছে।

রনবাঘা উচ্চ বিদ্যালয়ের শিক্ষক ও আনছার আলীর পরিবারে সদস্য সমাজ সেবক হাবিবুর রহমান জানান, গত দুই দিন হলো আনছার আলী ব্রেইন স্ট্রোকে বগুড়া শহীদ জিয়াউর রহমান মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে ভর্তি ছিল। সোমবার ভোর রাত তিনটার দিকে নিজ বাড়িতে আনছারের স্ত্রী ঝরিমুন বিবি অসুস্থ অবস্থায় মারা যায়। এরপর ভোর ছয়টার দিকে ব্রেইন স্ট্রোকে আক্রন্ত আনছার আলীও হাসপাতালে চিকিৎসাধীন অবস্থায় মৃত্যু বরণ করে।

নন্দীগ্রাম সদর ইউনিয়ন পরিষদের চেয়ারম্যান আব্দুল বারী বারেক স্বামী-স্ত্রীর একসাথে মৃত্যুর বিষয়টি নিশ্চিত করে জানান, ঘটনাটি বেদনা দায়ক। এক সাথে স্বামী-স্ত্রীর মৃত্যুতে এলাকাবাসী শোকাহত। তাদের একসাথে মৃত্যুতে এলাকায় শোকের ছায়া নেমে এসেছে।

◷ ৫:২৩ অপরাহ্ন ৷ সোমবার, জানুয়ারী ৭, ২০১৯ রাজশাহী