• আজ ১৯শে ফাল্গুন, ১৪২৭ বঙ্গাব্দ

স্বেচ্ছাসেবক লীগ নেতাকে পেটানো সেই এএসআই ক্লোজড

৩:৩৫ অপরাহ্ন | সোমবার, জানুয়ারী ১৪, ২০১৯ আলোচিত বাংলাদেশ

সময়ের কণ্ঠস্বর, ভোলা- ভোলার বাংলা স্কুল মোড়ে মোটরসাইকেল কাগজ পরীক্ষার সময় সামান্য বিষয় নিয়ে এক স্বেচ্ছাসেবক লীগ নেতাকে প্রকাশ্যে পেটানোর ঘটনায় অভিযুক্ত এএসআই শাহে আলমকে ক্লোজড করা হয়েছে।

একইসাথে তার বিরুদ্ধে বিভাগীয় মামলা প্রক্রিয়াধীন রয়েছে বলে জানিয়েছে পুলিশ।

এর আগে রোববার বিকালে ভোলার বাংলাস্কুল মোড়ে মোটসাইকেলের কাগজ পরীক্ষা করার সময় বোরহানউদ্দিন উপজেলা স্বেচ্ছাসেবক লীগ যুগ্ম সম্পাদক আওলাদ হোসেন (৩২) কে মারধর করেন এএসআই শাহে আলম। পরে তাকে থানায় নিয়ে যান।

এর পরিপ্রেক্ষিতে প্রতিবাদ জানিয়ে বোরহানউদ্দিন উপজেলা আওয়ামী লীগ ও স্বেচ্ছাসেবক লীগ নেতৃবৃন্দ পুলিশ সুপারের দপ্তরে অভিযোগ করেন এবং অভিযুক্ত এএসআই শাহ আলমের শাস্তি দাবি করেন।

আওলাদ ও তার ভাই মো. আব্বাস উদ্দিন জানান, আওলাদ ও তার এক বন্ধু দুটি আলাদা মোটরসাইকেলে বোরহানউদ্দিন থেকে ভোলা জেলা শহরে আসেন। শহরের বাংলাস্কুল মোড়ে পুলিশ চেকিংকালে কাগজপত্র ঠিক থাকায় পুলিশ আওলাদকে ছেড়ে দেয়। কিন্তু তার বন্ধুর হেলমেট না থাকাসহ কাগজে কিছু অসঙ্গতির জন্য মোটরসাইকেল আটকে রাখে পুলিশ। এ সময় আওলাদ সেটি ছেড়ে দেয়ার অনুরোধ করতেই ক্ষিপ্ত হয়ে ওঠেন এএসআই শাহে আলম। কথা কাটাকাটির এক পর্যায়ে শাহে আলম আওলাদের উপর চড়াও হন। তার গলার মাফলার ধরে টেনে মাটিতে ফেলে দিয়ে লাথি মারতে থাকেন। পরে তাকে থানায় নিয়ে যান।

এদিকে আওলাদ হোসেনকে এভাবে মারধরের ভিডিও মোবাইলে ধারণ করে সেসময় উপস্থিত সাধারণ মানুষ। যা মুহূর্তের মধ্যে ফেসবুকসহ সামাজিক মাধ্যমে ভাইরাল হয়।

এ বিষয়ে ভোলার পুলিশ সুপার জানান, অভিযুক্ত এএসআইকে ক্লোজড করা হয়েছে এবং তার বিরুদ্ধে বিভগীয় মামলা প্রক্রিয়াধীন রয়েছে।