প্রেম প্রত্যাখ্যান করায় কালকিনিতে স্কুল ছাত্রীকে পিটিয়ে জখম


ষ্টাফ রিপোর্টার- মাদারীপুর: মাদারীপুরের কালকিনিতে দশম শ্রেণীর এক স্কুল ছাত্রীকে পিটিয়ে জখম করেছে এক বখাটে।

আজ মঙ্গলবার (১৫ জানুয়ারি) সকালে দিকে জেলার কালকিনি উপজেলার পৌর এলাকার ঝাউতলা গ্রামে বাসার উকিলের বাড়ী সামনে রাস্তার পাশে এ ঘটনাটি ঘটে। আহত স্কুল ছাত্রী উদ্ধার করে কালকিনি উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে ভর্তি করা হয়েছে। সে কালকিনি বালিকা উচ্চ বিদ্যালয়ের ছাত্রী।

স্থানীয় সূত্রে জানা গেছে, মঙ্গলবার সকালে বাড়ি থেকে প্রাইভেট পড়তে যাচ্ছিল স্কুল ছাত্রী সুকতারা। বাসার উকিলে বাড়ীর পাশে রাস্তায় বের হলে একা পেয়ে এক বখাটে যুবক ধারালো অস্ত্র দিয়ে পিটিয়ে জখম করে ফেলে রেখে যায়। পরে স্থানীয়রা অজ্ঞান অবস্থায় পরে থাকতে দেখে উদ্ধার করে কালকিনি স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে ভর্তি করে। স্কুল ছাত্রীর হাত-পা ও মাথায় গুরুতর আঘাত রয়েছে বলে জানা গেছে। সুকতারার পরিবার ধারনা করছে। কালকিনির সাহেবরামপুর এলাকার সালাম আকনের ছেলে রুমন আকন এই কাজটি করতে পারে। তবে শুকতারার জ্ঞান ফিরলে বিস্তারিত জানা যাবে।

তবে রুমনের ভাই শামন আকন বলছে, আমার ভাই গতকাল বিদেশ থেকে ঢাকা নেমেছে। এখনো আমরা ঢাকা। আমি বা আমরা এ কাজ কিভাবে করবো। আমাকে ফাসানোর জন্য এই কাজ করা হচ্ছে। তাছাড়া ঐ মেয়ে বলতে পারবে কে এই কাজ করছে। কোন প্রমান ছাড়া কেন আমাদের ফাসানোর চেষ্টা করা হচ্ছে। তবে যে মেয়ের কথা বলেছে সেই মেয়ের সাথে আমার বড় ভাই রুমন এর সাথে বিদেশে থাকা অবস্থায় বিয়ে হয়েছিল। আমার ভাইয়ের সাথে সংসার করবে না বলেই মেয়ে নিজে তাকে ছেড়ে দিয়েছে। আমি নিজেও বিবাহিত। হয়তো এই কারনে তারা আমাদের ফাসানোর চেষ্টা করছে। তবে আমি গত ১১ তারিখ ঢাকা আসছি। আমার কাছে সকল প্রমান আছে।

কালকিনি থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) মোফাজ্জেল হোসেন জানান, ধারনা করা হচ্ছে প্রেম জনিত কারনে এ ঘটনা ঘটেছে। খবর পেয়ে পুলিশ ঘটনাস্থলে গিয়েছে। আইনগত ব্যবস্থা নেয়া হচ্ছে।

◷ ৩:১৭ অপরাহ্ন ৷ মঙ্গলবার, জানুয়ারী ১৫, ২০১৯ ঢাকা