• আজ ১৯শে ফাল্গুন, ১৪২৭ বঙ্গাব্দ

যৌন হয়রানির শিকার জাতিসংঘের এক তৃতীয়াংশ কর্মী

৫:৫০ অপরাহ্ন | বুধবার, জানুয়ারী ১৬, ২০১৯ আন্তর্জাতিক

আন্তর্জাতিক ডেস্ক- গত দুই বছরে জাতিসংঘের এক-তৃতীয়াংশ কর্মী ও চুক্তিভিত্তিক কর্মরত নারী যৌন হয়রানির শিকার হয়েছেন। মঙ্গলবার জাতিসংঘের এক প্রতিবেদন এ কথা বলছে।

গত নভেম্বরে জাতিসংঘ ও তার বিভিন্ন সংস্থার ৩০ হাজার ৩৬৪ কর্মীর ওপর জরিপ চালিয়েছে বহুজাতিক পেশাগত সেবা নেটওয়ার্ক ডেলাওয়েট। তবে এ সংখ্যার ১৭ শতাংশ মাত্র জরিপে অংশ নেয়। তবে সাড়া দেয়ার এ হারকে বেশ কম বলে কর্মীদের কাছে পাঠানো এক চিঠিতে উল্লেখ করেছেন জাতিসংঘের মহাসচিব অ্যান্তেনিও গুতেরেস।

তিনি বলেন, এতে দুটি বিষয় আমার কাছে পরিষ্কার হয়েছে। প্রথমত যৌন হয়রানি নিয়ে আলোচনা করতে আমাদের আরও বহুদূর পথ পাড়ি দিতে হবে। দ্বিতীয়ত সেখানে একটি অবিশ্বাসের পরিবেশ বজায় রয়েছে। একটি নিষ্ক্রিয়তার ধারণা ও জবাবদিহিতার অভাব রয়েছে।

যৌন হয়রানির বিরুদ্ধে যখন বিশ্বজুড়ে মিটু আন্দোলন চলছে, তখন এ জরিপটি প্রকাশ করা হয়েছে।

জরিপের ফলাফলে বলা হয়েছে, জরিপে অংশ নেওয়া জাতিসংঘের ২১ দশমিক ৭ শতাংশ কর্মী বলেছেন, তারা আপত্তিকর কৌতুক অথবা যৌন ইঙ্গিতপূর্ণ গল্পের বিষয়বস্তুতে পরিণত হয়েছেন, ১৪ দশমিক ২ শতাংশ তাদের শারীরিক গঠন, শরীর অথবা যৌন কার্যকলাপের ব্যাপারে আপত্তিকর মন্তব্য পেয়েছেন। ১৩ শতাংশ কর্মী যৌনতা নিয়ে আলোচনায় আগ্রহী না হওয়া সত্ত্বেও তাদের সেই আলোচনায় টেনে আনা হয়েছে বলে জানিয়েছেন।

ডিলয়েটের এই জরিপ বলছে, ১০ দশমিক ৯ শতাংশ কর্মী বলেছেন, তারা অঙ্গভঙ্গি বা যৌন ইঙ্গিতপূর্ণ আচরণের শিকার হয়েছেন; যা বিব্রতকর এবং তাদের বিক্ষুব্ধ করে তুলেছে। এছাড়া ১০ দশমিক ১ শতাংশ কর্মীর শরীর এমনভাবে স্পর্শ করা হয়েছে; যা অনাকাঙ্ক্ষিত।

যৌন হয়রানির শিকার হয়েছেন যারা, তাদের অর্ধেকের বেশি বলেছেন, এসব হয়েছে অফিস পরিবেশে; অন্যদিকে, ১৭ দশমিক ১ শতাংশ বলেছেন, তাদের কাজ সম্পর্কিত সামাজিক ইভেন্টে যৌন হয়রানির মুখোমুখি হয়েছেন তারা।