সংবাদ শিরোনাম

পণ্যবাহী ট্রাক-মাইক্রোবাসের মুখোমুখি সংঘর্ষে নিহত-১খালেদার জিয়ার শারীরিক অবস্থার উন্নতি নেই, হয়নি বিদেশ যাওয়ার সিদ্ধান্তওপ্রধানমন্ত্রী কোরআন-সুন্নাহর বাইরে কিছু করেন না: স্বরাষ্ট্রমন্ত্রীমির্জাপুরে গণহত্যা দিবস উপলক্ষে মোমবাতি প্রজ্জ্বলনশনিবার থেকে ঝড়-বৃষ্টির সম্ভাবনাস্পুটনিক-৫ টিকা একে-৪৭’র মতো নির্ভরযোগ্য: পুতিনডোপটেস্টো রিপোর্ট: স্পিডবোটের চালক শাহ আলম মাদকাসক্তচাঁদপুরে ঐতিহাসিক বড় মসজিদে লক্ষাধিক মুসল্লির সালাতে ‘জুমাতুল বিদা’ রাঙামাটিতে ডিবির অভিযানে ইয়াবাসহ দুই চিহ্নিত মাদক ব্যবসায়ী আটক! আনসার ব্যাটালিয়ান সদস্যদের সঙ্গে স্থানীয়দের সংঘর্ষ : নারীসহ ৯জন আহত

  • আজ ২৫শে বৈশাখ, ১৪২৮ বঙ্গাব্দ

আগামীকাল খালেদা জিয়ার জামিনের শুনানি

১০:৪৩ অপরাহ্ন | সোমবার, এপ্রিল ২৯, ২০১৯ স্পট লাইট

সময়ের কন্ঠস্বর ডেস্ক: কারাবন্দী বিএনপি চেয়ারপারসন খালেদা জিয়ার জিয়া চ্যারিটেবল মামলায় জামিন শুনানির দিন আগামীকাল মঙ্গলবার ধার্য করেছেন আদালত।

সোমবার বিকেলে এ তথ্য নিশ্চিত করেন খালেদা জিয়ার আইনজীবী ব্যারিস্টার কায়সার কামাল।

খালেদা জিয়ার জামিনের বিষয়ে জানতে চাইলে ব্যারিস্টার কায়সার কামাল বলেন, ‘বিগত সময়ে খালেদা জিয়া ন্যায়বিচার না পেলেও এবার পাবেন বলে আশা করছি।

জানা গেছে, জেল থেকে মুক্তি পেতে হলে জিয়া চ্যারিটেবল মামলাসহ আরও তিনটি মামলায় খালেদা জিয়াকে জামিন পেতে হবে।

এর আগে একাধিক গণমাধ্যমে প্রকাশ পায়, খালেদা জিয়ার মুক্তির বিষয়ে পর্দার অন্তরালে সরকারের শীর্ষ মহলের সঙ্গে রাজনৈতিক সমঝোতার চেষ্টা চলছে। যেহেতু খালেদা জিয়ার মনোভাবে বোঝা গেছে তিনি প্যারোলে রাজি নন, সে কারণে একাদশ জাতীয় সংসদে বিএনপির ছয় বিজয়ীর শপথ নেওয়ার মাধ্যমে এ সমঝোতা হতে পারে। এই শপথের মাধ্যমে খালেদা জিয়ার মুক্তি হতে পারে বলে ধারণা করা হচ্ছে।

গণমাধ্যমের এই খবরের বিষয়ে জানতে চাইলে বিএনপির সিনিয়র এক নেতা কয়েক দিন আগে বলেন, কোনো খবর যখন গণমাধ্যমে প্রকাশ পায়, তখন ধরে নিতে হবে কোথাও না কোথাও এর ভিত্তি আছে। এ উদ্যোগ যে দলীয়ভাবেই হতে হবে এমনটা নয়; দলের বাইরেও হতে পারে। তবে জনগণের কাঙ্ক্ষিত সিদ্ধান্ত হঠাৎ করেই হয়ে যায়। খালেদা জিয়ার মুক্তির ক্ষেত্রেও এমনটা ঘটতে পারে।

ওই নেতা বলেন, জিয়া অরফানেজ ও জিয়া চ্যারিটেবল-এ দুটি মামলা বাদে অন্য সব মামলায় বেগম খালেদা জিয়া জামিনে আছেন। সরকারের দিক থেকে বাধা সৃষ্টি না করলে জামিনযোগ্য ওই দুই মামলায় খালেদা জিয়া জামিনে যেকোনো সময় মুক্ত হবেন।