বাংলার ‘আমিরের’ নাম ঘোষণা করল আইএস, জঙ্গি হামলার হুমকি

❏ বুধবার, মে ১, ২০১৯ আন্তর্জাতিক

সময়ের কণ্ঠস্বর ডেস্ক- বিশ্বের বিভিন্ন দেশে হামলার পর এবার ভারত ও বাংলাদেশকেও সরাসরি হুমকি দিলো মধ্যপ্রাচ্যভিত্তিক জঙ্গি সংগঠন ইসলামিক স্টেট (আইএস)।

‘বাংলায়’ হামলার জন্য আবু মুহম্মদ আল-বেঙ্গলি নামে একজনের নামও ঘোষণা করেছে এই জঙ্গি সংগঠনটি। ভারতের প্রভাবশালী গণমাধ্যম টাইমস অব ইন্ডিয়া এ খবর প্রকাশ করেছে।

মঙ্গলবার (৩০ এপ্রিল) বাংলা, ইংরেজি ও হিন্দি ভাষায় আইএস একটি বার্তা (পোস্টার) প্রকাশ করেছে। সেখানে বলা হয়েছে, ‘যদি তোমরা মনে করো বাংলায় ও হিন্দিতে খিলাফতের সেনাদের স্তব্ধ করে দেবে তাহলে এটা সুনিশ্চিতভাবে জেনে রাখো যে, আমাদের লোকেরা কখনো নীরব হবে না। তাদের প্রতিশোধ নেয়ার তৃষ্ণা কখনো মুছে যাবে না’।

ঢাকার গুলিস্তানে একটি সিনেমা হলের পাশে ককটেল হামলার এক দিন পর এ বার্তা প্রকাশ করেছে আইএস। সোমবার সন্ধ্যা সাড়ে সাতটার দিকে গুলিস্তানে ওই বিস্ফোরণের ঘটনা ঘটে। এতে তিন পুলিশ সদস্য আহত হয়।

ককটেল হামলার পর মঙ্গলবার আইএসের পক্ষ থেকে আরবি ভাষায় একটি বিবৃতি প্রকাশ করে। আইএসের মুখপাত্র আমাক-এ প্রকাশিত বিবৃতিতে হামলার দায় স্বীকার করা হয়।

টাইমস অব ইন্ডিয়ার খবরে বলা হয়েছে, আইএস এর ‘শিগগিরই আসছি, ইনশাল্লাহ’ শীর্ষক পোস্টার প্রকাশের পর তদন্ত শুরু করেছে বিভিন্ন সংস্থা। ওই পোস্টারে আল মুরসালাত গ্রুপের একটি লোগো ব্যবহার করা হয়েছে। অন্যদিকে মঙ্গলবার যে হুমকি দেয়া হয়েছে তা ওই একই গ্রুপ দিয়েছে।

কয়েক দিন আগে আরও একটি বাংলায় লেখা পোস্টারে এমনই ইঙ্গিত পাওয়া গিয়েছিল। আইএসকে সমর্থনকারী একটি টেলিগ্রাম চ্যানেলে প্রকাশিত একটি পোস্টারে বাংলা হরফে লেখা ছিল, ‘শীঘ্রই আসছি, ইনশাল্লাহ…।’

উল্লেখ্য, গত মাসে শ্রীলঙ্কায় চার্চ ও হোটেলে হামলায় কমপক্ষে ২৫০ জনের মৃত্যু হয়েছিল। এই ঘটনাকে বাঘোজের ঘটনার বদলা বলে উল্লেখ করা হয়েছে। বাঘোজ হল সিরিয়ার গ্রাম, যেখানে আইএসআইএসের শেষ উপস্থিতি ছিল। ২২ মার্চ আমেরিকার প্রেসিডেন্ড ডোনাল্ড ট্রাম্প ঘোষণা করেছিলেন সিরিরায় শেষ যে জায়গায় আইএস-এর উপস্থিতি ছিল, তাদের মেরে ফেলা হয়েছে।