কঙ্গনাকে বাচ্চা মেয়ে বলে ক্ষমা করে দিলেন মহেশ

৫:১৪ অপরাহ্ণ | বৃহস্পতিবার, মে ২, ২০১৯ বিনোদন

বিনোদন ডেস্ক :: তাকে জাস্ট ক্ষমা করে দিলেন মহেশ ভাট। পরিচালকের পাশাপাশি তার মেয়ে আলিয়াকে নিয়ে এখন প্রায়ই নানারকম মন্তব্য প্রকাশ করছেন কঙ্গনা রানাওয়াত এবং তার বোন। কেন বা কি কারনে তারা এমন করছেন তা স্পষ্ট নয় কিন্তু তিনি নাগাড়ে ভাট পরিবারকে তার নিশানায় রেখেছেন।

কিন্তু এত কিছুর পরেও মেয়ে আলিয়ার মতোই কঙ্গনার বিরুদ্ধে কিছু বললেন না মহেশ ভাট। বললেন কঙ্গনা তাঁর কন্যাসম। তাই তিনি কিছু বলতে চান না। এক কথায় কঙ্গনা বা তাঁর বোনের কথা নিয়ে তিনি মাথা ঘামাতে রাজি নন তিনি বুঝিয়ে দিয়েছেন।

সম্প্রতি কঙ্গনার বোন রঙ্গোলির আক্রমণের নিশানায় পড়েন খ্যাতনামা বলিউড পরিচালক, প্রযোজকমহেশ ভাট। মহেশ ভাটকে আক্রমণ করে রঙ্গোলি টুইট করেছিলেন, ‘মহেশজী কখনই কঙ্গনাকে ব্রেক দেননি, দিয়েছিলেন অনুরাগ বসু, আর ছবির প্রযোজনা করেছিলেন মহেশ ভাটের ভাই মুকেশ ভাট। মহেশজী শুধুই ছবিতে ক্রিকেটিভ ডিরেক্টর হিসাবে কাজ করেছিলেন।’

তিনি এও লেখেন ‘ও লমহে’ ছবির স্ক্রিনিংয়ে মহেশ ভাট নাকি কঙ্গনাকে জুতা ছুঁড়ে মেরেছিলেন। এই আক্রমণের বিষয় নিযে মহেশ ভাটকে প্রশ্ন করা হলে তিনি বলেন, ‘আমরা কখনওই নিজের সন্তান বা সন্তানসম এমন কারোর দিকে আঙুল তুলি না। ও তো বাচ্চা। ওর বিরুদ্ধে কথা বলতে আমরা রুচিতে বাঁধে।’

প্রসঙ্গত ‘গলি বয়’ ছবিতে আলিয়ার অভিনয় বিশেষ দাগ কাটতে পারেনি বলেছিলেন কঙ্গনা। দেশের বিষয়ে আলিয়ার-রণবীরের কোনও মাথা ব্যাথাই নেই বলেছিলেন কঙ্গনা। আবার আলিয়া ও তাঁর মা সোনি রাজদানের নাগরিকত্ব নিয়েও কটাক্ষ করেছিলেন কঙ্গনা। তবে হাজারও আক্রমণে আলিয়া কোনও পালটা মন্তব্য করেননি। তার পথেই হাঁটলেন বাবা মহেশ ভাট।