সংবাদ শিরোনাম
এবার রাশিয়াকে আংশিক মুসলিম রাষ্ট্র বললেন পুতিনের মুখপাত্র | চেয়ারম্যান নির্বাচিত হওয়ার পরদিনই বিএনপি নেতার বিরুদ্ধে পুলিশের মামলা | ‘মাদরাসা শিক্ষা নিয়ে অপপ্রচারের সুযোগ নেই’- তথ্য প্রতিমন্ত্রী | ইয়েমেনের যুব ও ক্রীড়ামন্ত্রীকে হত্যাকারী ঘাতক নিহত | বাংলাদেশের উন্নয়নের প্রশংসায় উপমহাদেশজুড়ে তোলপাড় হচ্ছে: তথ্যমন্ত্রী | মত প্রকাশের স্বাধীনতায়ও সীমাবদ্ধতা আছে: জাস্টিন ট্রুডো | ফেসবুকে ধর্ম অবমাননার কারণে এক সপ্তাহে ৫ শিক্ষার্থী বহিষ্কার | জেমস বন্ড খ্যাত অভিনেতা শন কনারি মারা গেছেন | দালালদের ধরে দেওয়ার আহ্বান প্রবাসীকল্যাণ মন্ত্রীর | সম্প্রসারিত মেট্রোপলিটন এলাকাকে রাজশাহী সিটির অন্তর্ভুক্ত করার দাবিতে মানববন্ধন |
  • আজ ১৫ই কার্তিক, ১৪২৭ বঙ্গাব্দ

টেকনাফে নৌকা থেকে ৭ লক্ষ ইয়াবা উদ্ধার

৫:১৬ অপরাহ্ন | শুক্রবার, জুলাই ২৬, ২০১৯ চট্টগ্রাম

তাহজীবুল আনাম, কক্সবাজার প্রতিনিধি: কক্সবাজারের টেকনাফে ৭লাখ পিস ইয়াবা উদ্ধার করেছে বাংলাদেশ কোস্ট গার্ড সদস্যরা।

শুক্রবার (২৬জুলাই) ভোর সাড়ে ৫টার দিকে নাফ নদীর স্থলবন্দরের পাশে জাইল্লারদ্বীপ এলাকা থেকে এসব ইয়াবা উদ্ধার করা হয়। যার আনুমানিক মুল্য ৩৫ কোটি টাকা বলে দাবি করছে কোস্ট গার্ড।

বাংলাদেশ কোস্ট গার্ড চট্টগ্রাম পূর্ব জোনের মিডিয়া কর্মকর্তা লে: বিএন হায়াত ইবনে সিদ্দিক জানিয়েছেন, গোপন সংবাদের ভিত্তিতে টেকনাফ স্থল বন্দরের নিকটবর্তী জাইল্লারদ্বীপ এলাকায় নাফ নদীতে কোস্ট গার্ড বাহিনী কর্তৃক একটি বিশেষ অভিযান চালান। এসসময় সন্দেহজনক একটি কাঠের বোটকে ধাওয়া করা হলে বোটটি কিছুদূর গিয়ে উল্টে যায় এবং বোটের আরোহিরা নদীরপাড়ে উঠে জঙ্গেলের দিকে পালিয়ে যায়। ভাসমান বোটটি তল্লাশী করে বিভিন্ন বস্তা হতে ৭ লক্ষ পিস ইয়াবা ট্যাবলেট উদ্ধার করা হয়। এসময় চোরাকারবারিদেরকে ধাওয়া করা হলেও তাদের আটক করা সম্ভব হয়নি। ভাসমান উক্ত বোট ও ইয়াবা টেকনাফ থানায় হস্তান্তর করা হয়েছে এবং সংশ্লিষ্ট আইনে মামলা রুজু করা হয়েছে।

বাংলাদেশ কোস্ট গার্ড টেকনাফ স্টেশনের লে: কমান্ডার মোহাম্মদ সোহেল রানা জানিয়েছেন, ‘এটিই হচ্ছে এ বছরের কোন বাহিনীর সবচেয়ে বড় চালান আটকের ঘটনা। এর আগেও আমরা বিভিন্নভাবে ইয়াবা সহ মাদক উদ্ধার করেছি, কিন্তু এত বিশাল চালান উদ্ধার করা সম্ভব হয়নি। তিনি আরও বলেন, আমাদের প্রধানমন্ত্রীর মাদকের বিরুদ্ধে জিরো টলারেন্স নীতি অনুসরন করে মাদকবিরোধী অভিযান বাংলাদেশ কোস্ট গার্ডের আওতাধীন এলাকাসমূহে অভিযান অব্যাহত রাখবে। এজন্য সকলের সহযোহিতা প্রয়োজন।