রাজশাহীর চারঘাটে স্ত্রীকে মেরে গলায় ফাঁস দিয়ে ঝুলিয়ে রাখল স্বামী

১১:৩২ পূর্বাহ্ন | বুধবার, নভেম্বর ১৩, ২০১৯ দেশের খবর, রাজশাহী

ওবায়দুল ইসলাম রবি, রাজশাহী প্রতিনিধি- রাজশাহীর চারঘাট উপজেলায় গৃহবধুকে পিটিয়ে হত্যা করার অভিযোগ উঠেছে। হত্যার অভিযোগে নিহতের স্ত্রী নাসিমার স্বামী তুফানকে আটক করেছে চারঘাট মডেল থানা পুলিশ। নিহত গৃহবধুর লাশ উদ্ধার করে বুধবার ময়না তদন্তের জন্য রামেক হাসপাতাল মর্গে প্রেরন করেছে।

গতকাল মঙ্গলবার দুপুরে উপজেলার শলুয়া ইউনিয়নের ফতেপুর মন্ডলপাড়া গ্রামে ওই হত্যার ঘটনাটি ঘটে। প্রায় ১৯ বছর পূর্বে ফতেপুর গ্রামের সিরাজ আলীর মেয়ে নিহত নাসিমার বিয়ে হয় একই গ্রামের আব্দুল বারেকের ছেলে তুফানের সাথে।

নিহতের পিতা সিরাজ আলী গণমাধ্যমকে জানান, মেয়ের স্বামী তুফান একজন দিনমজুর। সাংসারিক অভাব অনটনের কারনে উপজেলার বিভিন্ন এনজিও’র ঋনে জড়িয়ে পড়ে। পক্ষান্তরে এনজিও কিস্তির টাকা দিতে পরিশোধ করতে পারছিল না।

এ নিয়ে গত মঙ্গলবার দুপুরে স্বামী-স্ত্রীর মধ্যে বাতবিতান্ডের এক পর্যায়ে তুফান তার স্ত্রীকে মারপিট করে। পরে ডিস লাইনের তার গলায় ফাঁস দিয়ে নিজ ঘরের তীরের সাথে ঝুলিয়ে রাখে। নিহতের পিতা সিরাজ আলী লোকমুখে সংবাদ পেয়ে দ্রুত মেয়ের বাড়িতে গিয়ে ঝুলন্ত অবস্থায় নাসিমার লাশ দেখতে পায়।

চারঘাট মডেল থানার অফিসার ইনচার্জ সমিত কুমার কুন্ডু ঘটনার সত্যতা নিশ্চিত করে বলেন, খবর পেয়ে থানা পুলিশ মঙ্গলবার সন্ধ্যায় নিহত গৃহবধুর লাশ উদ্ধার করে এবং তার স্বামী তুফান শেখ গ্রেফতার করে। আজ বুধবার সকালে নিহতের লাশটি ময়না তদন্তের জন্য রামেক হাসপাতাল মর্গে প্রেরন করা হয়েছে। এই ঘটনাই নিহতের পিতা সিরাজ আলী বাদী হয়ে নিহত নাসিমার স্বামী তুফান শেখের বিরুদ্ধে চারঘাট মডেল থানায় একটি হত্যা মামলা দায়ের করেছে।