সংবাদ শিরোনাম

ছাত্রলীগ নেতার প্যান্ট চুরির ভিডিও ভাইরাল!পাটগ্রামে ইউএনও’র উপর হামলা, আটক ৬আগের সব রেকর্ড ভেঙ্গে একদিনে সর্বোচ্চ মৃত্যু ৮৩ জনেরশফী হত্যা মামলা: মামুনুল-বাবুনগরীসহ ৪৩ জনকে অভিযুক্ত করে প্রতিবেদনখালেদা জিয়ার রোগমুক্তি কামনায় সারাদেশে দোয়া কর্মসূচিরোহিঙ্গা শিবিরে ফের অগ্নিকান্ডসালথায় তান্ডব: এসিল্যান্ডের বিরুদ্ধে উঠা অভিযোগের সত্যতা মিলেনিশাহজাদপুরে কৃষকদের মাঝে হারভেস্টার মেশিন বিতরণচাঁদপুরে গণমাধ্যম সপ্তাহের রাষ্ট্রীয় স্বীকৃতি পেতে প্রধানমন্ত্রী বরাবর স্মারকলিপিশ্রমিকদের যাতায়াতের ব্যবস্থা না করলে আইনি পদক্ষেপ : শ্রম প্রতিমন্ত্রী

  • আজ ৩০শে চৈত্র, ১৪২৭ বঙ্গাব্দ

দিনাজপুরে ধর্ষণের শিকার হয়ে সাড়ে ৩ বছরের শিশুর মর্মান্তিক মৃত্যু

৮:৫১ পূর্বাহ্ন | রবিবার, ডিসেম্বর ১, ২০১৯ রংপুর
Dinajpur-Dhorshok-Pic

দিনাজপুর প্রতিনিধি: দিনাজপুরের পার্বতীপুরে ধর্ষনের শিকার হয়ে আবিদা সুলতানা মিম নামের  সাড়ে ৩ বছরের এক শিশুর মর্মান্তিক মৃত্যু হয়েছে।

ঘটনাটি ঘটেছে, শনিবার রাত আনুমানিক পার্বতীপুর উপজেলার পলাশবাড়ী ইউনিয়নের রঘুনাথপুর ডাঙ্গাপাড়া গ্রামে। নিহত শিশু মিম ওই গ্রামের আরিফুল ইসলামের মেয়ে।

বাবা আরিফুল ইসলাম ও মা নাসরিন জাহান জানান, একই গ্রামের আমিনুল ইসলামের ছেলে আমজাদ হোসেন(২০) শিশুটিকে ধর্ষন করেছে বলে সন্দেহ করা হচ্ছে। শনিবার দুপুর আনুমারিক ২টা ৩০ মিনিট থেকে শিশুটিকে খুঁজে পাওয়া যাচ্ছিল না। অনেক খোঁজাখুজির পর আমজাদের বাড়িতে গেলে তালাবদ্ধ দেখতে পাওয়ায় পার্বতীপুর মডেল থানা পুলিশে খবর দেন । পরে পুলিশ ও এলাকাবাসী ঘরের দরজা ভেঙ্গে টেবিলের নিচ থেকে রক্তাক্ত অবস্থায় ওই শিশুকে উদ্ধার করে।তাৎক্ষনিক গ্রামবাসীর সহায়তায় পার্বতীপুর উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্স হাসপাতালে নেয়া হলে কর্তব্যরত চিকিৎসক শিশুটিকে মৃত ঘোষনা করেন। এরই মধ্যে আমজাদ হোসেন পালিয়ে যায়।

পার্বতীপুর উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্স হাসপাতালের আবাসিক মেডিকেল অফিসার (আর,এম,ও) ডাক্তার মোঃ আলম মিয়া রাত সাড়ে ৯টায় জানায়, অতিরিক্ত রক্তক্ষরণে শিশুটির মৃত্যু হয়েছে। তার পড়নের কাপড় ছিলো রক্তে ভেজা।

পার্বতীপুর মডেল থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা-ওসি (তদন্ত) মোঃ সোহেল রানা শিশুটির ধর্ষন ও মৃত্যুর সত্যতা স্বীকার করে বলেন, শিশুটিকে আমজাদ হোসেনের শয়নকক্ষ থেকে উদ্ধার করা হয়েছে। আমজাদই শিশুকে ধর্ষন করেছে বলে সন্দেহ করা হচ্ছে।

 মেয়েটির মামা আবু সায়েম জানায়, ওই যুবকের বাড়ির পাশে মিমসহ তার বন্ধুরা খেলতে গেলে ওই যুবক জানালা দিয়ে মিমকে চকলেটের প্রলোভন দেখিয়ে ঘরে নিয়ে যায়। এই কথা জানায়,একই এলাকার রাশেদুল ইসলামের ছেলে জিহাদ (৫)। তার কথার ভিত্তিতে মিমের পরিবার আমজাদের বাড়িতে গেলে তালাবদ্ধ দেখতে পাওয়ায় পার্বতীপুর মডেল থানা পুলিশে খবর দেন । পরে পুলিশ ও এলাকাবাসী ঘরের দরজা ভেঙ্গে টেবিলের নিচ থেকে রক্তাক্ত অবস্থায় ওই শিশুকে উদ্ধার করে।

এ ব্যাপারে পার্বতীপুর থানায় মামলা হয়েছে। পুলিশ আমজাদ হোসেনকে খুঁজছে।