🕓 সংবাদ শিরোনাম

গাজা উপত্যকায় ইসরাইলি হামলায় কমপক্ষে ৩৩ জনের মৃত্যুচট্টগ্রামে ২৪ ঘণ্টায় করোনা আক্রান্ত ২৫, মৃত্যু ৪সুনামগঞ্জে বিদ্যুতায়িত হয়ে মা ও ছেলেসহ ৩ জনের মর্মান্তিক মৃত্যুসৌদি আসতে দিতে হবে করোনা ভ্যাকসিন, নয়তো থাকতে হবে কোয়ারেন্টিনেএখনো ঈদ করতে বাড়ী আসছে দক্ষিনঅঞ্চলের ২১জেলার হাজার হাজার মানুষকরোনার হটস্পট কেরানীগঞ্জ, ঈদে ছাপ নেই স্বাস্থ্য বিধিরবস্তার দোকানে মাদকের ব্যবসা, দুই জন আটকডিজিটাল নিরাপত্তা আইনে সাতক্ষীরা জেলা আইনজীবী সমিতির সাবেক সভাপতি গ্রেপ্তারভারত থেকে চট্টগ্রামে আসা ৪ জনের করোনা শনাক্ত ত্রিশালে পণ্য বিপনন মনিটরিং কমিটির মতবিনিময় সভা

  • আজ রবিবার, ২ জ্যৈষ্ঠ, ১৪২৮ ৷ ১৬ মে, ২০২১ ৷

পবিত্র কাবা শরীফ নিয়ে বিরূপ স্ট্যাটাস, সৌদিতে ভারতীয় গ্রেফতার


❏ বুধবার, ডিসেম্বর ২৫, ২০১৯ আন্তর্জাতিক

আন্তর্জাতিক ডেস্ক- পবিত্র কাবা নিয়ে ফেসবুকে বিদ্রুপ পোস্ট করায় এক ভারতীয় শ্রমিককে গ্রেপ্তার করেছে সৌদির আইনশৃঙ্খলা বাহিনী।

সৌদি প্রবাসী ওই ভারতীয় শ্রমিকের নাম হরিশ বাঙ্গেরা। হরিশ ভারতের কর্ণাটক রাজ্যের কুন্দপুরের বাসিন্দা। সৌদি আরবের একটি গলফ কার্টুন কারখানায় এসি মিস্ত্রির কাজ করেন হরিশ।

ফেসবুকে সাম্প্রদায়িক ধর্মবিদ্বেষী স্ট্যাটাস দেয়ায় গত ১৯ ডিসেম্বর এই ভারতীয়কে গ্রেফতার করা হয় বলে জানিয়েছে দ্য নিউ ইন্ডিয়ান এক্সপ্রেস। এছাড়াও ডেকান হেরাল্ড, টাইমস নাউ নিউজ অনলাইন গণমাধ্যমেও এ বিষয়ে বিস্তারিত খবর প্রকাশিত হয়েছে।

সংবাদমাধ্যমগুলো জানায়, শুধু ইসলাম ধর্মীয় সবচাইতে বড় পূণ্যস্থান কাবাকে নিয়েই নয় সৌদি আরবের বর্তমান ক্রাউন প্রিন্স মুহাম্মদ বিন সালমানকে নিয়েও বিরূপ মন্তব্য করেছেন হরিশ বাঙ্গেরা। গ্রেফতারের পরপরই হরিশ বাঙ্গেরাকে ওই কারখানা থেকে চাকরিচ্যুত করেছে কর্তৃপক্ষ।

গত ১৯ ডিসেম্বর হরিশ বাঙ্গেরা তার ফেসবুক অ্যাকাউন্টে পবিত্র কাবার একটি ছবি পোস্ট করে লেখেন, আমার সকল হিন্দু বন্ধুরা, পরবর্তী রাম মন্দির হবে মক্কায়। জয় শ্রী রাম। মোদি আমাদের সঙ্গে আছেন। এরপর তার এ পোস্টটি ফেসবুকে ভাইরাল হয়ে যায়। সঙ্গে সঙ্গে হরিশকে গ্রেফতার করে তার কঠোর শাস্তির দাবি জানায় সৌদি প্রবাসীরা।

এ ঘটনার দুই দিন পরই সৌদি আরবের প্রিন্সকে নিয়ে তার আইডি থেকে আরেকটি স্ট্যাটাস পোস্ট হয়। যেখানে সৌদি প্রিন্স মুহাম্মদ বিন সালমানের ছবি দিয়ে লেখা হয়, This dog is from Congress pray. Saudi Arabia king dog.

বিষয়টি সৌদি কর্তৃপক্ষের নজরে আসলে তাকে গ্রেফতার করে সৌদি পুলিশ।

ভারতে অবস্থানরত হরিশ বাঙ্গেরার স্ত্রী সুমনা দাবি, তার স্বামীর আইডিটি হ্যাক হয়েছে। তার স্বামী ষড়যন্ত্রের শিকার। শত্রুতাবশত দুর্বৃত্তরা হরিশের ফেসবুক আইডিতে ঢুকে এ ধরণের বিরূপ মন্তব্য করেছেন। গত ২১ ডিসেম্বর স্থানীয় থানায় একটি লিখিত অভিযোগও দিয়েছেন হরিশের স্ত্রী।

এদিকে মধ্যপ্রাচ্যভিত্তিক কিছু ভারতীয় সংস্থা হরিশ বাঙ্গেরার মুক্তির জন্য সৌদি প্রশাসনের কাছে আবেদন করেছে বলে জানা গেছে।